• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

বাংলায় ভোট ৮ দফায়, সব রাজ্যে গণনা ২ মে,কবে কোন জেলায় ভোট জেনে নিন একনজরে

অবশেষে পশ্চিমবঙ্গের বিধানসভা নির্বাচনের দিন ঘোষণা করল নির্বাচন কমিশন। ৮ দফায় ভোট ঘোষণা করলেন মুখ্য নির্বাচন কমিশনার সুনীল অরোরা। করোনা পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখেই ৮ দফায় ভোট বলে মনে করা হচ্ছে। ২৯৪টি আসনে৮ দফায় হবে ভোট গ্রহণ। সুষ্ঠু ও অবাধ ভোট করতে বদ্ধ পরিকর নির্বাচন কমিশন। বিধানসভা ভোটের নির্ঘণ্ট ঘোষণার সঙ্গে সঙ্গে রাজ্যে লাগু হয়ে গেল আদর্শ আচরণবিধি। এবার নির্বাচন কমিশনে নির্দেশে কাজ করবে পুলিশ-প্রশাসন। ভোট সুষ্ঠু করতে ১০০০ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েন করা হচ্ছে বাংলায়।

 রাজ্যে ভোট ঘোষণা

রাজ্যে ভোট ঘোষণা

অবশেষে পূর্ব ঘোষিত সময়েই সাংবাদিক বৈঠক করে রাজ্যের বিধানসভা নির্বাচনের দিন ঘোষণা করল নির্বাচন কমিশন। দিল্লির বিজ্ঞান ভবনে সাংবাদিক বৈঠক করে মুখ্য নির্বাচন কমিশনার জানান বাংলায় ভোট হবে ৮ দফায়

২৯৪টি আসনের কথা মাথায় রেখে সুষ্ঠু অবাধ ভোট করার জন্য বাড়ানো হয়েছে দফা। যদি ১০ দফায় ভোট করার জন্য আগে থেকেই দাবি জানিয়েছিল বিজেপি। করোনা পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখেই বেশি দফায় ভোট গ্রহনের সিদ্ধান্ত বলে মনে করা হচ্ছে। করোনা আবহে ভোটারদের স্বাস্থ্যের কথা মাথায় রেখে বুঝের সংখ্যা ১,০১,৯১৬ করা হয়েছে। করোনা পরিস্থিতির মধ্যে ভোট করতে সতর্ক নির্বাচন কমিশন জানিয়েছেন মুখ্য নির্বাচন কমিশনার সুনীল অরোরা।

কোথায় কবে ভোট

কোথায় কবে ভোট

৮ দফার ভোট গ্রহন পর্ব চলবে প্রায় ১ মাস ধরে। প্রথম দফার ভোট গ্রহণ ২৭ মার্চ। ৩০টি আসনে হবে ভোট নির্বাচন। পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, ঝাড়গ্রাম, পশ্চিম মেদিনীপুর পার্ট ১, পূর্ব মেদিনীপুর পার্ট ১। দ্বিতীয় দফায় ভোট গ্রহণ ১ এপ্রিল। ৩০ আসনে ভোট গ্রহন। তৃতীয় দফা ৬ এপ্রিল। ৩১ আসনে ভোট। চতুর্থ দফা ৯ এপ্রিল, ৪৪ আসনে ভোট। পঞ্চম দফায় ভোট, ১৭ এপ্রিল। ৪৫ আসনে ভোট। ষষ্ঠ দফায় ভোট ২২ এপ্রিল। ৩৬ আসনে ভোট গ্রহণ।

সপ্তম দফায় ভোট ২৬ এপ্রিল। এবং অষ্টম দফায় ভোট ২৯ এপ্রিল।

একনজরে গতবারের ফলাফল

একনজরে গতবারের ফলাফল

২৯৪টি আসনের বিধানসভা পশ্চিমবঙ্গ। ২১৬-র ভোটে তৃণমূল কংগ্রেস এক প্রকার নিরঙ্কুশ সংখ্যা গরিষ্ঠতা নিয়েই সরকার গড়ে। ২১১টি আসন পেয়েছিল তৃণমূল কংগ্রেস। কংগ্রেস পেয়েছিল ৪৪টি আসন। আর সিপিএম পেয়েছিল ২৬টি। কংগ্রেসের সঙ্গে জোটের ফলে বামেদের ভোট কমেছিল। অন্যদিকে বামেদের সঙ্গে জোট করায় আসন বাড়িয়েছিল কংগ্রেস। বিজেপি পেয়েছিল মাত্র ৩টি আসন। কাজেই এই ৩ থেকে শাহদের টার্গেচ ২০০-য় পৌঁছনো বড় চ্যালেঞ্জ দিলীপ ঘোষদের কাছে। গতবার ৬ দফায় ভোট হয়েছিল রাজ্যে।

কেন্দ্রীয় বাহিনীতে নজর

কেন্দ্রীয় বাহিনীতে নজর

কেন্দ্রীয় বাহিনী বুথে বুথে রেখে ভোট করানোর দাবি জানিয়েছিল বিজেপি। ১০ দফায় ভোটের দাবি করেছিলেন দিলীপ ঘোষরা। ভোটের দিন ঘোষণার আগে থেকেই অবশ্য রাজ্যে কেন্দ্রীয় বাহিনী আসতে শুরু করেছে। ১০০০ বাহিনী কেন্দ্রীয় বাহিনী নিয়ে এবারে পশ্চিমবঙ্গের ভোট করানো হবে বলে জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন। ইতিমধ্যেই রাজ্যে এসে গিয়েছে বেশ কয়েক কম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী। ২৮ ফেব্রুয়ারির মধ্যে ১২৫ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী রাজ্যে পৌঁছে যাবে বলে কমিশনের তরফে জানানো হয়েছে। এদিকে নবান্নে খোলা হয়েছে ইলেকশন সেল। ভোটের কাজে কোথায় কত পুলিশ প্রয়োজন তা এই ইলেকশন সেলে জানাবে নির্বাচন কমিশন। রাজ্যের পুিলশ প্রশাসনের সঙ্গে নির্বাচন কমিশনের সমন্বর রক্ষা করবে এই ইলেকশন সেল।

English summary
West Bengal Assembly Election 2021: Voting in the State Declares by Election Commission of India on Friday
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X