• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts
Oneindia App Download

টুইন টাওয়ার ভাঙার আগে অনুভব করছেন স্নায়ুর চাপ, বলছেন প্রজেক্টের প্রধান

Google Oneindia Bengali News

আজ নয়ডায় বিশাল টুইন টাওয়ারকে যে বিস্ফোরণের মাধ্যমে ভেঙে ফেলা হবে। তার আগে, কাজের দায়িত্বপ্রাপ্ত ইঞ্জিনিয়ারিং ফার্মের প্রকল্প প্রধান বলেছেন যে তিনি বেশ চাপের মধ্যে রয়েছেন। তিনি বলেছেন, "এটা আমি মিথ্যে বলা হবে যদি আমি বলি যে আমি নার্ভাস নই। আমি বেশ নার্ভাস। আজ সকাল থেকেই মনের মধ্যে একটা ভীতি কাজ করছে, একটু চাপের মধ্যে রয়েছি। হ্যাঁ, আমি একটু নার্ভাস তো আছি বটেই কিন্তু সেই সঙ্গে এই কাজের ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসীও।"

কী বলছেন তিনি ?

কী বলছেন তিনি ?


তিনি বলেন, "সব প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে এবং দুপুর আড়াইটের দিকে বিস্ফোরণ ঘটানো হবে। আমরা প্রায় প্রস্তুত, সবকিছু করা হয়েছে। আমরা সংযোগগুলি পরীক্ষা করছি। ডেটা নিরীক্ষণের জন্য প্রয়োজনীয় কিছু যন্ত্র স্থাপন করা হচ্ছে।"

বিস্ফোরণের সময় ধ্বংসস্থল থেকে ১০০ মিটার দূরে মাত্র ছয়জন উপস্থিত থাকবেন। তাঁদের মধ্যে রয়েছে একজন পুলিশ, তিনজন বিদেশী (দক্ষিণ আফ্রিকার বিল্ডিং ধ্বংস করার বিশেষজ্ঞ) এবং দুইজন বিস্ফোরক।

কুতুব মিনারের চেয়েও লম্বা

কুতুব মিনারের চেয়েও লম্বা

সুপারটেক টুইন টাওয়ার, কুতুব মিনারের চেয়েও লম্বা, এর স্তম্ভগুলিতে ৩৭০০ কেজি বিস্ফোরক লাগানো হয়েছে। বিল্ডিং ভেঙে পড়ার সময় যে ধস নামবে তা নয় সেকেন্ড স্থায়ী হবে এবং যে ধুলো পরিমাণ ধুলো উড়বে তা থিতু হতে আরও ১২ মিনিট সময় লাগবে। একজন কর্মকর্তা এই কথা বলেছেন।

বড় টিম কাজ করবে

বড় টিম কাজ করবে

৫৬০ জন পুলিশ কর্মী, সংরক্ষিত বাহিনীর ১০০ জন, চারটি দ্রুত প্রতিক্রিয়া দল এবং একটি জাতীয় বিপর্যয় প্রতিক্রিয়া বাহিনী (এনডিআরএফ) দল ধ্বংসের জন্য মোতায়েন করা হয়েছে, সংবাদ সংস্থা এএনআই ডিসিপি (সেন্ট্রাল) রাজেশ এসকে উদ্ধৃত করেছে বলে জানিয়েছে। ট্রাফিক ডাইভারশন পয়েন্ট সক্রিয় করা হয়েছে বলে তিনি যোগ করেন।

ভেঙে ফেলার নির্দেশ

ভেঙে ফেলার নির্দেশ

নিয়ম লঙ্ঘনের জন্যসুপ্রিম কোর্ট গত বছর এই বিল্ডিং ভাঙার নির্দেশ দিয়েছিল । প্রতিটি টাওয়ারে প্রাথমিকভাবে পরিকল্পনা করা হয়েছিল যে ৪০টি ফ্লোর থাকবে। আদালতের বাধা দিয়েছিল প্রথমেই। তাই তা নির্মাণ করা যায়নি। এটি আজ ভেঙে পড়বে তবে এর আগেও এই অনিয়মের কারণেই কিছু ফ্লোর বিস্ফোরণ ঘটিয়ে না হলেও ম্যানুয়ালি ভেঙে ফেলা হয়েছিল। এখন, অ্যাপেক্স টাওয়ারে রয়েছে ৩২টি ফ্লোর এবং সিয়ানে রয়েছে ২৯টি ফ্লোর। পরিকল্পনা ছিল ৯০০-র বেশি ফ্ল্যাট হবে, সেই মতো এর দুই-তৃতীয়াংশ বুক করা বা বিক্রি করা হয়ে গিয়েছিল। সেই টাকা সুদসহ ফেরত দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট।

অ্যাপেক্স টাওয়ারের উচ্চতা ১০৩ মিটার, সিয়ানের উচ্চতা ৯৭ মিটার। এডিফিস ইঞ্জিনিয়ারিং, ধ্বংসকারী সংস্থা, দক্ষিণ আফ্রিকার বিশেষজ্ঞদের সাথে চুক্তি করে, যারা তিন বছর আগে জোহানেসবার্গে একটি ব্যাঙ্ক এইভাবে ধ্বংস করেছিল৷ সেটি ছিল ১০৮ মিটার। ভারতে বিস্ফোরণের মাধ্যমে ভেঙে ফেলা সাথে সবচেয়ে উঁচু ভবনটি ছিল কেরালায়। যার উচ্চতা ছিল ৬৮ মিটারে। এটি ২০২০ সালে ভেঙে ফেলা হয়েছিল।

টুইন টাওয়ার ভাঙার জন্য চলছে শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি, জেনে নিন সম্পূর্ণ প্রক্রিয়া টুইন টাওয়ার ভাঙার জন্য চলছে শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি, জেনে নিন সম্পূর্ণ প্রক্রিয়া

English summary
twin tower project head in pressure before demolition work
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X