• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

ধর্ষণ নিয়ে অশালীন মন্তব্য করে ক্ষমা চাইলেন কংগ্রেস MLA

Google Oneindia Bengali News

'ধর্ষণ অবশ্যম্ভাবী হলে শুয়ে উপভোগ করা উচিত', বক্তা বলিউড সিনেমার কোনও প্রতিনায়ক নন। তিনি জনপ্রতিনিধি, বলা ভাল অন্যতম প্রবীণ জননেতা যিনি কিনা রাজ্যের বিধানসভার অধ্যক্ষের দায়িত্বও পালন করেছেন। কংগ্রেস নেতা তথা কর্নাটক বিধানসভার প্রাক্তন অধ্যক্ষ কেআর রমেশ কুমারের এই বক্তব্যেই শুরু হল বিতর্ক।

কী বলেছেন কংগ্রেস MLA?

কী বলেছেন কংগ্রেস MLA?

কর্নাটক বিধানসভার অধ্যক্ষ বিশ্বেশ্বর হেজ কাগেরির কাছ থেকে সময় চেয়ে নিচ্ছিলেন বিধায়করা। ফসলের ক্ষতি নিয়ে আলোচনা করতে চাইছিলেন প্রত্যেকে। এমন সময়ই ধর্ষণ সংক্রান্ত মহা বিতর্কিত মন্তব্যটি করে বসেন কংগ্রেস নেতা। কী ঘটেছিল? অসময়ের বৃষ্টির জন্য ফসলের ক্ষতি হয়েছে কর্নাটকজুড়ে। এই ইস্যু নিয়েই প্রত্যেক বিধায়ক অতিরিক্ত সময় চেয়েছিলেন অধ্যক্ষের কাছে। সেই সময়ই বিশ্বেশ্বর বলেন, 'সদস্যরা এই সমস্যা নিয়ে আরও বেশি করে বলতে চাইছেন। এতে আমার কোনও সমস্যা নেই। কিন্তু আমার বক্তব্য হচ্ছে, শুধু একটাই বিষয় নিয়ে পড়ে থাকলে অন্যান্য দিকে নজর দেওয়া যাবে না। আমার অবস্থা সেই ব্যক্তির মতো, যে কিছুই করতে না পেরে অবশ্যম্ভাবী ঘটনাগুলি উওঅঅভোগ করে।' এর প্রত্যুত্তরেই রমেশ কুমার বলেন, 'একটা প্রবাদ বাক্য আছে। ধর্ষণ অবশ্যম্ভাবী হলে শুয়ে উপভোগ করা উচিত।' রমেশের এই বক্তব্যকে রেকর্ড থেকে মুছে দিতে চাননি অধ্যক্ষ বিশ্বেশ্বর কাগেরি।

এর আগেও বিতর্কে জড়িয়েছেন রমেশ!

এর আগেও বিতর্কে জড়িয়েছেন রমেশ!

তবে এই প্রথম নয়, এর আগেও বিতর্কে জড়িয়েছেন রমেশ৷ বিধানসভার অধ্যক্ষ থাকাকালীন তাঁর একটি বিতর্কিত অডিও ক্লিপ ভাইরাল হয়েছিল। এই ঘটনার পর নিজেকে ধর্ষণে ভুক্তভোগীও বলেছিলেন তিনি। অবশ্য তিনি একা নন, কর্নাটকে এর আগেও ধর্ষণ নিয়ে দায়িত্বজ্ঞানহীন মন্তব্য করেছেন জনপ্রতিনিধিরা। সম্প্রতি কর্নাটকের মহীশূরে এক কলেজ ছাত্রীর গণধর্ষণের ঘটনা প্রকাশ্যে এসেছিল। সেই সময় রাজ্যের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অরোগ জ্ঞানেন্দ্র মশকরা করেছিলেন বিষয়টি নিয়ে। অগাস্ট মাসের ঘটনাটিতে মন্ত্রীমশাই কংগ্রেসের বিরুদ্ধে তোপ দেগেছিলেন এটিকে নিয়ে রাজনীতি করার৷ তিনি বলেছিলেন, 'ধর্ষণ হয়েছে মহীশূরে৷ কিন্তু কংগ্রেস এখানে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকেই ধর্ষণ করতে চাইছে।'

ক্ষমা চাইলেন কংগ্রেসী MLA

ক্ষমা চাইলেন কংগ্রেসী MLA

এবার ফের ধর্ষণ সংক্রান্ত মন্তব্যে বিতর্কে জড়ালেন রমেশ। অবশ্য বিতর্কের মুখে ক্ষমাও চেয়ে নিয়েছেন তিনি। তিনি ট্যুইট করেন, 'আজ সভাকক্ষে ধর্ষণ নিয়ে যে দায়িত্বজ্ঞানহীন মন্তব্য করেছি,তার জন্য ক্ষমা চাইছি৷ আমি কোনওভাবেই এই ঘৃণ্য অপরাধকে হাল্কাভাবে দেখাতে চাইনি। ভবিষ্যতে খুব যত্ন সহকারে শব্দচয়ন করব আমি।'

English summary
Karnatak's Congress MLA apologizes for indecent remarks on rape
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X
Desktop Bottom Promotion