• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

মমতা ভাষণ শুরু করতেই পড়ল 'বাধা'! ফের লোক ঢুকিয়ে গণ্ডগোলের অভিযোগ

ফের প্রকাশ্য সভায় গিয়ে মেজাজ হারালেন মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (mamata banerjee)। এদিন তিনি কসবার গীতাঞ্জলি স্টেডিয়ামে দলের এসসি-এসটি (sc-st)সেলের সভায় হাজির হয়েছিলেন। সেই সভায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ভাষণ শুরু করতেই কেউ কেউ উঠে দাঁড়ান। ব্যারিকেজ পেরিয়ে এগিয়ে আসার চেষ্টা করেন। সেই সময় ক্ষেপে যান মুখ্যমন্ত্রী।

 ফের ভাষণ থামালেন মমতা

ফের ভাষণ থামালেন মমতা

কসবার গীতাঞ্জলি স্টেডিয়ামে তখন সবে ভাষণ শুরু করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেই সময় কমকরে দুজন উঠে দাঁড়িয়ে কিছু বলার চেষ্টা করেন। কিন্তু সেই সময় রেগে যান মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি প্রশ্ন করেন পুলিশের সিকিউরিটি কোথায়। বিরোধী দলের নাম করে সভায় লোক ঢুকিয়ে গণ্ডগোলের অভিযোগ তোলেন তিনি। বলেন তাঁর মাথা গরম আছে। তবে পুলিশ ও দলীয় নেতারা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনার পর ফের ভাষণ শুরু করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

ভগবানও সব করতে পারে না

ভগবানও সব করতে পারে না

মুখ্যমন্ত্রী এদিন বলেন, আর চারপাঁচদিন পরে নির্বাচনের দিন ঘোষণা হবে। তিনি তো আর ভগবান নন। তিনি আরও বলেন ভগবানও সব করতে পারে না। মৃত্যুর একেবারে সামনে দাঁড়িয়ে ভগবানকে ডাকলে তিনি সাড়া দেন না। মুখ্যমন্ত্রী বলেন, গত কয়েকবছর ধরে তিনি অফুরন্ত পরিশ্রম করেছেন। তিনি বলেন, ভাল বেসে বললে তিনি ঘর মুছবেন, বাসন মাজবেন। কিন্তু কেউ যদি তাঁকে চোখ রাঙান, তাহলে তিনি পাল্টা জবাব দেবেন।

উত্তর ২৪ পরগনার গোপালনগরের সভাতেও গণ্ডগোল

উত্তর ২৪ পরগনার গোপালনগরের সভাতেও গণ্ডগোল

সাম্প্রতিক সময়ে (ডিসেম্বরের শুরুতে) উত্তর ২৪ পরগনার গোপালনগরের সভাতেও এই একই ধরনের পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিল। ব্যারিকেড ভেঙে সামনের দিকে এগিয়ে আসার চেষ্টা করেন অনেকে। ফলে সেই সময় ভাষণ দেওয়া বন্ধ রেখেছিলেন তিনি। পুলিশ ও দলের নেতারা পরিস্থিতি শান্ত করেন। সেই সভায় তিনি মেজাজ হারিয়েছিলেন। বিরোধীদের বিরুদ্ধে তাঁর সভা ভণ্ডুল করতে লোক পাঠানোর অভিযোগও করেন। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য ওইদিন মুখ্যমন্ত্রীর ভাষণ কিছুটা এগোতেই কিছু মহিলা প্ল্যাকার্ড নিয়ে নিজেদের দাবি জানাতে থাকেন। যার জেরে ক্ষুব্ধ হয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি বলেছিলেন, তাঁকে প্ল্যাকার্ড দেখিয়ে লাভ নেই। মুখ্যমন্ত্রী সেই সময় এই বিক্ষোভকারীদের ভর্ৎসনা করে বলেছিলেন, তিনি যতটা সম্ভব করে দেন। তিনি আইন মেনে চলেন। আইনের বাইরে গিয়ে কিছু করতে পারেন না। মিটিং নষ্ট করার অভিযোগও তিনি করেছিলেন।

সভার শেষে ডেকে নেন

সভার শেষে ডেকে নেন

মুখ্যমন্ত্রী সভার শুরুতে তাঁর সভা ভণ্ডুলের অভিযোগ তুললেও, সভার শেষে বলেন, দুজনকে আসতে দিন তাঁর কাছে। পুলিশকে বলেন, তাঁর কাছে পৌঁছে দিতে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, কিছু বলার থাকলে সভার শেষে বলবেন, শুরুতে কিছু বলবেন না।

৪৪ বছর পর রাজ্য এবং কেন্দ্রে এক সরকার, মন্তব্য শমীক ভট্টাচার্যর

একুশের ভোটে কি তৃণমূল 'মহাজোট'-এর পথে! কলকাতায় অভিষেক, দিল্লিতে হেভিওয়েট নেতার সঙ্গে সৌগতর বৈঠক ঘিরে জল্পনাএকুশের ভোটে কি তৃণমূল 'মহাজোট'-এর পথে! কলকাতায় অভিষেক, দিল্লিতে হেভিওয়েট নেতার সঙ্গে সৌগতর বৈঠক ঘিরে জল্পনা

English summary
West bengal election 2021: Mamata Banerjee looses her temper from her sc-st meeting
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X