• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

সুদীপ জৈনের কোনও ভরসা নেই, ডেপুটি নির্বাচন কমিশনারের অপসারণ চেয়ে চিঠি তৃণমূলের

উপ নির্বাচন কমিশনার সুদীপ জৈনের অপসারণ চেয়ে নির্বাচন কমিশনে চিঠি দিল তৃণমূল কংগ্রেস। সাংসদ ডেরেক ওব্রায়েন সেই চিঠি পাঠিয়েছেন। সাংসদ সৌগত রায় সাংবাদিক বৈঠক করে সেকথা জানান। তিনি অভিযোগ করেছেন উপ নির্বাচন কমিশনার সুদীপ জৈন পক্ষপাত দুষ্ট। ২০১৯ সালের লোকসভা ভোটের সময় বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভাঙা নিয়ে ভুল রিপোর্ট কমিশনে জমা িদয়েছিলেন তিনি। কাজেই তিনি দায়িত্বে থাকলে রাজ্যে সুষ্ঠুভাবে নির্বাচন করা সম্ভব নয়।

 সুদীপ জৈনের অপসারণ দাবি তৃণমূলের

সুদীপ জৈনের অপসারণ দাবি তৃণমূলের

উপ নির্বাচন কমিশনার সুদীপ জৈনের অপসারণ দাবি করল তৃণমূল কংগ্রেস। সেই দাবি জানিয়ে নির্বাচন কমিশনে চিঠি পাঠিেয়ছেন সাংসদ ডেরেক ও ব্রায়েন। সাংসদ সৌগত রায় সাংবিদিক বৈঠক করে বলেন সুদীপ জৈনের উপর ভরসা নেই। তিনি পক্ষপাতদুষ্ট। ২০১৯-র লোকসভা ভোটেও পক্ষপাত দুষ্ট আচরণ করেছিলেন। বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভাঙার ভুল রিপোর্ট নির্বাচন কমিশনে পাঠিয়েছিলেন। তাই তিনি ভোটের দায়িত্বে থাকলে সুষ্ঠুভাবে নির্বাচন সম্ভব নয় বলে চিঠিতে লেখা হয়েছে। নির্বাচন কমিশন পরবর্তি সিদ্ধান্ত নেবে বলে জানিয়েছেন সৌগত রায়।

 একাধিক দফায় বৈঠক সুদীপ জৈনের

একাধিক দফায় বৈঠক সুদীপ জৈনের

বাংলায় ভোটের আগে একাধিকবার রাজ্যে এসে সুদীপ জৈন বৈঠক করেছেন জেলা শাসক ও পুলিশ সুপারদের সঙ্গে। তাঁর নির্দেশেই পুলিশকে কড়া বার্তা দেওয়া হয়েছে। কোনও রকম দুর্নীতি গ্রস্ত অফিসার থাকলে তাঁদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে সতর্ক করেছিলেন সুদীপ জৈন। কোনও রকম হিংসা যেন রাজ্যে না ঘটে সেদিকে পুলিশকে কড়া ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছিল। পুলিশ পক্ষপাত দুষ্ট আচরণ করলে সাসপেন্ড করা হতে পারেও কড়া বার্তা দিয়েছিলেন সুদীপ জৈন।

সুদীপের রিপোর্টের ভিত্তিতেই সিদ্ধান্ত

সুদীপের রিপোর্টের ভিত্তিতেই সিদ্ধান্ত

মনে করা হচ্ছে সুদীপ জৈনের রিপোর্টের ভিত্তিতেই নির্বাচন কমিশন বিধানসভা ভোটের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। রাজ্যের পুলিশ প্রশাসনের সঙ্গে বৈঠক করার পর মুখ্য নির্বাচন কমিশনার সুনীল অরোরাকে রিপোর্ট দিয়েছিলেন সুদীপ জৈন। তারপরেই রাজ্যে কেন্দ্রীয় বাহিনী নিয়ে তৎপর হয় কমিশন। সুদীপ জৈনের সঙ্গে দেখা করে বঙ্গ বিজেপির নেতারা রাজ্যে হিংসার ঘটনার অভিযোগ করেছিলেন। এবং বাড়তি কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েনের দাবি জানিয়েছিলেন।

 ২০২১-র ভোটে পক্ষপাত দুষ্ট আচরণ

২০২১-র ভোটে পক্ষপাত দুষ্ট আচরণ

তৃণমূল কংগ্রেসের পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হয়েছে ২০১৯সালের লোকসভা ভোটে পক্ষপাত দুষ্ট আচরণ করেছিলেন সুদীপ জৈন। কুইক রেসপন্স টিমের নেতৃত্বে সেন্ট্রাল অফিসারকে বসিয়ে সংবিধান বিরোধী কাজ করেছিলেন বলে অভিযোগ করে তৃণমূল কংগ্রেস।কেন্দ্রীয় বাহিনী রাজ্য পুলিশকে নির্দেশ দিতে পারে না এই নিয়ে সরব হয়েছিলেন শাসকদলের নেতা মন্ত্রীরা।

English summary
West Bengal Assembly Election 2021: TMC send letter to EC to remove Deputy Election Commissioner Sudip Jain
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X