• search

৭ পুরসভাই দখল তৃণমূলের, সামান্য লড়াই বিজেপির, নিশ্চিহ্ন বাম-কংগ্রেস

Subscribe to Oneindia News
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS
For Daily Alerts

    যেমন ভাবা হয়েছিল ঠিক তেমনটাই হল। সাতটি পুরসভা নির্বাচনে তৃণমূলের বিজয় দৌড় অব্যাহত থাকল। একের পর এক পুরসভায় ঘাসফুল ফোটাল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দল। বিরোধীদের একেবারে ধূলিস্যাৎ করে দিয়ে আগামী বছরের পঞ্চায়েত ভোটের আগে গা গরম করে নিল রাজ্যের শাসক দল।

    [আরও পড়ুন:এই জয় মানুষের জয়, ৭ পুরসভা জয়ের পর আর কী বললেন মুখ্যমন্ত্রী ]

    ৭ পুরসভাই দখলের পথে তৃণমূল, সামান্য লড়াই বিজেপির

    সাতটি পুরসভাতেই তৃণমূলকে যৎসামান্য লড়াই দিল একমাত্র বিজেপি। কয়েকটি পুরসভায় ১-২টি আসন পেয়েছে দিলীপ ঘোষের দল। বাদবাকী বাম-কংগ্রেসকে দূরবীন দিয়ে খুঁজলেও পাওয়া মুশকিল হবে। যতই রিগিং, ভোট লুটের অভিযোগ করুন বিরোধীরা, আগামী পঞ্চায়েত ভোটের আগে সাংগঠনিক শক্তি বাড়াতে না পারলে তৃণমূলের বিরুদ্ধে এবার প্রার্থী দেওয়া মুশকিল হয়ে যাবে।

    [আরও পড়ুন:পঞ্চায়েত ভোটেই তৃণমূলের কোমর ভাঙবে বিজেপি, দাবি দিলীপ ঘোষের]

    এদিনের ভোটগণনা এখনও পুরো শেষ হয়নি। তবে তার মধ্যেই পাওয়া ফল অনুযায়ী সবকটি পুরসভা তৃণমূল কংগ্রেস দখল করে নিয়েছে। হলদিয়ায় তৃণমূল ২৯টির মধ্যে সবকটি আসন পেয়েছে।

    নলহাটি পুরসভায় মোট ১৬টি ওয়ার্ডের মধ্যে তৃণমূল ১৪টি আসন পেয়ে বোর্ড দখল করেছে। একটি পেয়েছে নির্দল ও একটি ফরওয়ার্ড ব্লক।

    বুনিয়াদপুরে ১৪টি ওয়ার্ডের মধ্যে তৃণমূল ১৩টি পেয়েছে, বিজেপি পেয়েছে ১টি (১২ নম্বর ওয়ার্ড)।

    নদিয়ার কুপার্স ক্যাম্পে ১২টি পুর আসনের মধ্যে সবকটিই পেয়ে পুরবোর্ড দখল করেছে তৃণমূল।

    ধূপগুড়িতে তৃণমূল কংগ্রেস ১২টি ও বিজেপি ৪টি আসন পেয়েছে। বাম-কংগ্রেস পুরোপুরি নিশ্চিহ্ন।

    এছাড়া পাঁশকুড়ায় ১৮টি আসনের মধ্যে তৃণমূল কংগ্রেস ১৭টি ও বিজেপি ১টি আসন পেয়েছে।

    এই সাতটি পুরসভার মধ্যে সবচেয়ে বড় দুর্গাপুর পুরসভাতেও ৪৩টি আসনের মধ্যে ৪৩টিতে জয়ী তৃণমূল।

    English summary
    West Bengal 7 Municipality elections result, TMC sweeps, BJP opens account, Left-Congress voted out

    Oneindia - এর ব্রেকিং নিউজের জন্য
    সারাদিন ব্যাপী চটজলদি নিউজ আপডেট পান.

    We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Oneindia sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Oneindia website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more