• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

ব্রিস্টলে ইংল্যান্ডের কাছে পরাজয়ের মুখে মিতালির ভারত, অভিষেকে উজ্জ্বল শেফালি

Google Oneindia Bengali News

সাত বছর পর টেস্ট খেলতে নেমে ব্রিস্টলে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে শোচনীয় পরাজয়ের মুখে মিতালি রাজের ভারত। আজ চার দিনের টেস্টের বৃষ্টিবিঘ্নিত তৃতীয় দিনে ভারতীয় মহিলা দলকে ফলো অনে বাধ্য করেছে হিদার নাইটের দল। তৃতীয় দিনের শেষে ভারতের স্কোর ১ উইকেটে ৮৩। এখনও পিছিয়ে ৮২ রানে। ইংল্যান্ডের জয় ঠেকাতে ভরসা শেফালির চওড়ার ব্যাট।

ব্যাকফুটে ভারত

ব্যাকফুটে ভারত

মহিলাদের একমাত্র টেস্টের প্রথম ইনিংসে ইংল্যান্ড ৯ উইকেটে ৩৯৬ রান তুলে প্রথম ইনিংস ডিক্লেয়ার করার পর দ্বিতীয় দিনের শেষে ভারতের স্কোর ছিল ৫ উইকেটে ১৮৭। স্কোরবোর্ডে আর কোনও রান যোগ হওয়ার আগে এদিন ওই ১৮৭ রানেই হরমনপ্রীত কৌর ও তানিয়া ভাটিয়ার উইকেট হারায় ভারত। দিনের দ্বিতীয় ওভারে হরমনপ্রীত আউট হন, চতুর্থ ওভারে তানিয়া। ভারতের শেষ পাঁচটি উইকেট তুলে নিতে ইংল্যান্ডের আজ লাগে ২১. ২ ওভার। মাত্র ২৩১ রানেই গুটিয়ে যায় ভারতের প্রথম ইনিংস। হরমনপ্রীত চার রানে আউট হন। দীপ্তি শর্মা ২৯ রানে অপরাজিত থাকেন। পূজা বস্ত্রকার করেন ১২। সোফি এক্লেস্টোন নেন চারটি উইকেট। মিতালি রাজ, হরমনপ্রীত কৌর, তানিয়া ভাটিয়া ও স্নেহ রানার উইকেট পান তিনি।

ভরসা শেফালি

ভরসা শেফালি

ফলো অনে বাধ্য হয়ে এদিন হতাশ করলেন স্মৃতি মান্ধানা। তিনি আউট হন ৮ রানে, দলের ২৯ রানের মাথায়। এরপরই বৃষ্টিবিঘ্নিত ম্যাচে ব্যাটিং অর্ডারে তুলে আনা হয় দীপ্তি শর্মাকে। বৃষ্টির কারণে দিনের খেলা বন্ধের সময় দীপ্তি ক্রিজে আছেন শেফালি ভার্মার সঙ্গে। প্রথম ইনিংসে শতরান হাতছাড়া করেছিলেন চার রানের জন্য। শতরান হাতছাড়া করায় দীপ্তির জন্য যাঁদের মন খারাপ তাঁদের উদ্দেশে ১৭ বছরের হরিয়ানা-কন্যা আশ্বাস দিয়েছিলেন, পরে নিশ্চিতভাবেই শতরানের লক্ষ্যে পৌঁছে যাব। দ্বিতীয় ইনিংসেও আত্মবিশ্বাসের সঙ্গেই ব্যাট করছেন শেফালি। ১১টি চারের সাহায্যে ৬৮ বলে ৫৫ রানে অপরাজিত রয়েছেন। দীপ্তি শর্মা ৬৬ বলে ১৮ করে অপরাজিত রয়েছেন। কাল খেলার শেষ দিন। একমাত্র বৃষ্টিই ভারতকে এই ম্যাচে পরাজয়ের হাত থেকে বাঁচাতে পারে। শেফালির পাশাপাশি ম্যাচ বাঁচাতে চওড়া হতে হবে অভিজ্ঞ মিতালি, হরমনপ্রীতদের ব্যাটও।

লজ্জার রেকর্ড

লজ্জার রেকর্ড

প্রথম ইনিংসে ভারতীয় মহিলা দল শেষ ১০ উইকেট হারিয়েছে মাত্র ৬৪ রানের মধ্যে। এত কম রানে ১০ উইকেটে হারানোর নজির আগে নেই। সবচেয়ে বড় কথা শতরানের ওপেনিং পার্টনারশিপের পর। ১৯৭৬ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে ভারতের মহিলা দল শেষ ১০ উইকেট হারিয়েছিল ৬৫ রানের মধ্যে। তবে সেই ম্যাচে ওপেনিং জুটিতে উঠেছিল ২৮ রান। ১৬৭ রানে প্রথম উইকেট পড়ার পর ভারতের অষ্টম উইকেট পড়ে ১৯৭ রানে। টেস্টে দ্বিতীয় থেকে সপ্তম উইকেট জুটিতে কম রান ওঠার তালিকায় এটা বিশ্বে তৃতীয় সর্বনিম্ন। ভারত এর আগে এত খারাপ ব্যাটিং করেনি। তিন থেকে ছয় নম্বর অবধি ব্যাটসম্যানদের মিলিত স্কোর মাত্র আট, এটাও ভারতের মহিলা ক্রিকেটের ইতিহাসে সর্বনিম্ন।

ব্রিস্টলে প্রাপ্তি

ব্রিস্টলে প্রাপ্তি

শতরানের ওপেনিং পার্টনারশিপের পরও অল আউটের নজির এই নিয়ে ষষ্ঠবার হল মহিলাদের ক্রিকেটে। মহিলাদের ক্রিকেটে ৩১ বার শতরানের ওপেনিং পার্টনারশিপ হয়েছে টেস্টে। তবে অল আউটে ভারতই সবচেয়ে কম রানে হল। এর আগে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে ইংল্যান্ড ২৮৫ রানে গুটিয়ে গিয়েছিল ১৬৩ রানের ওপেনিং জুটির পর। স্মৃতি মান্ধানা ও শেফালি ভার্মার ওপেনিং জুটিতে গতকাল ওঠে ১৬৭। ভারতীয় মহিলা দলের হয়ে যা রেকর্ড। মহিলাদের টেস্টে ওপেনিং জুটিতে সর্বাধিক রানের নিরিখে এটি থাকছে চতুর্থ স্থানে। ১৯৮৪ সালে গার্গী বন্দ্যোপাধ্যায় ও সন্ধ্য়া আগরওয়াল অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ১৫৭ করেছিলেন, সেই রেকর্ড ভাঙেন স্মৃতি ও শেফালি। তাঁদের এই ওপেনিং জুটির রান রইল অস্ট্রেলিয়ার জডি ফিল্ডস ও রাচেল হেইন্সের ২২৯ রানের ওপেনিং জুটির পরেই। তবে দলের মোট রানে ৭৪.২৯ শতাংশ অবদান রেখে ফিল্ডস-রাচেলদের টেক্কা দিয়েছেন ভারতের ওপেনিং জুটি।

জীবনসঙ্গী খুঁজছেন? বাঙ্গালী ম্যাট্রিমনি - নিবন্ধন নিখরচায়!

English summary
Shafali Verma Hits Consecutive Fifties In Her Debut Test After England Women Enforced Follow On. India Women Have Witnessed A Terrible Batting Collapse In The First Innings.
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X