• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

প্রিয়ঙ্কার বিয়ে নিয়ে খুশি নন মা মধু! কারণ জানিয়ে মুখ খুললেন অভিনেত্রী

রাজস্থানের উমেদ ভবন প্য়ালেসে রাজকীয় বিয়ের আয়োজন হয়েছিল প্রিয়ঙ্কা চোপড়ার। প্রিয়ঙ্কা চোপড়ার সঙ্গে মার্কিন পপ তারকা নিক জোনাসের বিয়ে গত বছর ছিল লাইমলাইটে। বলিউড ডিভার সঙ্গে মার্কিন পপ তারকার বিয়ে নিয়ে যদিও খুশি নন প্রিয়ঙ্কার মা।

প্রিয়ঙ্কার বিয়ে নিয়ে খুশি নন মা মধু! কারণ জানিয়ে মুখ খুললেন অভিনেত্রী

অভিনেত্রী প্রিয়ঙ্কা চোপড়া তাঁর বিয়ের বিষয়টি নিয়ে কথা বলতে গিয়ে জানিয়েছেন,তাঁর মা মধু চোপড়া তাঁদের এই বিয়ে নিয়ে খুশি ছিলেন না। আর খুশি না হওয়ার মূল কারণ, প্রিয়ঙ্কার মতে 'বিয়ের আয়োজন ছোট করে , কেবল ঘনিষ্ঠদের নিয়ে হওয়ায় খুশি ছিলেন না মা।' তিনি জানান, ভারতীয় বিয়ে মানে ১০০০ জন আমন্ত্রিত, বহুদিন ধরে চলা উৎসব। তবে প্রিয়ঙ্কার বিয়ে মোট ৩ দিনে সম্পন্ন হয়। পাশাপাশি ২০ জন মাত্র আমন্ত্রিত ছিলেন বিয়েতে। যা এক্কেবারেই মনোঃপুত হয়নি প্রিয়ঙ্কার।

[আরও পড়ুন:মা হলেন একতা কাপুর! বিয়ের দিকে ঝোঁক নেই জিতেন্দ্র-কন্যার]

প্রিয়ঙ্কা জানান কেবলমাত্র ঘনিষ্ঠদের নিয়েই বিয়ের আয়োজন সম্পন্ন করতে চেয়েছিলেন তিনি ও নিক। সেজন্যই বিয়ে ৩ দিনের মধ্যে সম্পন্ন করার চেষ্টা হয়। প্রিয়ঙ্কা জানান,'মা বলেছিলেন তিনি আরও একটা পার্টি আয়োজন করতে চান যেখানে ১৫০০০ জন থাকবেন।...' আর সেই জন্যই প্রিয়ঙ্কার বিয়ে নিয়ে মনক্ষুন্ন ছিলেন তাঁর মা।

[আরও পড়ুন: টেলিভিশন অভিনেতার আকস্মিক মৃত্যু, আত্মহত্যা নাকি দুর্ঘটনা, বাড়ছে রহস্য]

lok-sabha-home
English summary
Priyanka Chopra and Nick Jonas's dreamy wedding at Umaid Bhawan in Jodhpur was among the most-talked-about weddings of 2018. From two wedding ceremonies to three receptions in India, everything about this royal marriage kept fans hooked. Be it the breathtaking pictures or the adorable videos or the inside scoop, Priyanka Chopra and Nick Jonas were the talk of the town.
For Daily Alerts

Oneindia - এর ব্রেকিং নিউজের জন্য
সারাদিন ব্যাপী চটজলদি নিউজ আপডেট পান.

Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X
We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Oneindia sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Oneindia website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more