• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

বিতর্কের পর বিতর্ক, রাজ্যসভায় উপস্থিতি নিয়ে মন্তব্যের জের, রঞ্জন গগৈয়ের বিরুদ্ধে নালিশ তৃণমূলের

Google Oneindia Bengali News

রাজ্য সভা নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্যের জের সুপ্রিমকোর্টের অবসরপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈয়ের বিরুদ্ধে প্রিভিলেজ মোশনের নোটিস আনলেন তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদরা। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য কয়েকদিন আগেই নিজের আত্মজীবনী নিয়ে বিতর্কে জড়িয়ে ছিলেন। ভারতের ঐতিহাসিক রামমন্দির-বাবড়ি মসজিদের বিতর্কিত জমি নিয়ে রায় দান করেছিলেন রঞ্জন গগৈ। সেই রায়দান প্রসঙ্গেই নিজের বইয়ে লিখেছিলেন তিনি। তাই নিয়ে রীতি মতো শোরগোল পড়ে গিয়েছিল গোটা দেশে।

বিতর্কের পর বিতর্ক, রাজ্যসভায় উপস্থিতি নিয়ে মন্তব্যের জের, রঞ্জন গগৈয়ের বিরুদ্ধে নালিশ তৃণমূলের

এদিন অবসর প্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈ বলেছেন, 'আমার যখন মনে হয় তখন রাজ্যসভায় যাই। একটি বা দু'টি অধিবেশনের জন্য আমি সংসদে চিঠি জমা দিয়েছি। কোভিডের কারণেই আমি সংসদের অধিবেশনে অংশ নিতে পারিনি। গত শীতকালীন অধিবেশেনের আগে থেকেই রাজ্যসভায় অংশ নেওয়ার জন্য RT-PCR টেস্ট করা বাধ্যতামূলক ছিল। আমি ব্যক্তিগতভাবে অস্বস্তিবোধ করেছিলাম। আর সে কারণেই যখন আমার মনে হয় তখনই আমি রাজ্যসভায় যাই। যখন গুরুত্বপূর্ণ বিষয় নিয়ে আলোচনা থাকে, তখন অংশগ্রহণ করি। আমি একজন মনোনীত সদস্য। কোনও রাজনৈতিক দলের নির্দেশে চলি না। তাই কোনও রাজনৈতিক দল তাঁদের সাংসদদের অধিবেশনে অংশ নেওয়ার জন্য নির্দেশ দিতে পারে। কিন্তু, আমার উপর সেই নির্দেশ খাটে না। আমি রাজ্যসভার একজন স্বাধীন সদস্য। যখন মনে করি তখন যাই, যখন মনে করি বেরিয়ে আসি।'

শুধু মাত্র একথা বলেই থামেননি রঞ্জন গগৈ। তিনি আরও বলেছেন, 'রাজ্যসভার অধিবেশনে আছেটা কি? আমি যদি কোনও ট্রাইবিউনালের চেয়ারম্যান পদে থাকতাম তাহলে রাজ্যসভার থেকে বেশি বেতন পেতাম। রাজ্যসভা থেকে আমি এক টাকাও নিই না।' তরুণ গগৈয়ের একের পর এক বিস্ফোরক মন্তব্যের পর শোরগোল পড়ে গিয়েছে রাজনৈতিক মহলে। রাজ্যসভার সদস্যদের অবমাননা করা হচ্ছে অভিযোগ করে তৃণমূল কংগ্রেসের সাংসদরা তাঁর বিরুদ্ধে প্রিভিলেজ মোশনের নোটিস এনেছেন। তরুণ গগৈ সংসদের অবমাননা করেছেন বলে অভিযোগ করেছেন তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদরা। এই বিরুদ্ধে সোমবার রাজ্যসভায় সোচ্চার হন তাঁরা। এবং রঞ্জন গগৈয়ের বিরুদ্ধে প্রিভিলেজ মোশন আনেন সাংসদরা।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য অযোধ্যার রায় দানের পর মনোনিত সদস্য হিসেবে দেশের অবসরপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতিকে রাজ্যসভার সাংসদ নির্বাচিত করা হয়েছিল। ২০২০-র মার্চ মাসে অবসরপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈকে রাজ্যসভায় মনোনীত করা হয়। তারপরে বাদল অধিবেশনে তাঁকে বিশেষ দেখা যায়নি। সংসদের শীতকালীন অধিবেশনেও খুব বেশি দেখা যায়নি তাঁতে। তাঁর উপস্থিতির হার সামান্য বললেই চলে। ১০ শতাংশেরও নীচে রয়েছে তাঁর রাজ্যসভা অধিবেশনে উপস্থিতির হার। এই নিয়ে প্রতিবাদে সরব হয়েছেন তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদরা।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য বাদল অধিবেশনে সংসদের শৃঙ্খলাভঙ্গের অভিযোগে ১২ জন সাংসদকে সাসপেন্ড করা হয়েছে। তাই নিয়ে সরব হয়েছেন বিরোধীরা। কিন্তু রাজ্যসভার চেয়ারম্যানের দাবি অভিযুক্ত সাংসদরা কেউ তাঁদের কাজের জন্য অনুতপ্ত নন। তাই তাঁদের সাসপেনশন প্রত্যাহার করা হবে না। কিন্তু গগৈয়ের রাজ্যসভা নিয়ে এই ধরনের বিতর্কিত মন্তব্য করার পরেও কেন তাঁর বিরুদ্ধে কোনও পদক্ষেপ করা হবে না তা নিয়ে সরব হয়েছেন তৃণমূল কংগংরেস সাংসদরা।

সিবিএসসির প্রশ্নপত্র নিয়ে তুলকালাম সংসদ

English summary
TMC Target Ranjan Gogoi
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X