Tap to Read ➤

বলিউড তারকা যাঁদের জেলের হাওয়া খেতে হয়েছে

শাহরুখ, সলমন, সইফ, সঞ্জয় থেকে শুরু করে ফারদিন খান - যাদের জেলে যেতে হয়েছে কোনও না কোনও কারণে
বলিউড বাদশাহ শাহরুখ খানকেও জেলে যেতে হয়েছিল জানেন কি? এক সাংবাদিককে ভয় দেখানো এবং হেনস্থার অভিযোগে জেলে গিয়েছিলেন তিনি। তবে সেসময় শাহরুখ খান বলিউড বাদশাহ হয়ে ওঠেননি
মুম্বইয়ের পাঁচ তারা তাজ হোটেলে এক ব্যক্তিকে মেরে নাক ফাটিয়ে দিয়েছিলেন সইফ আলি খান। সেকারণে তাঁকে গ্রেফতার করেছিল মুম্বই পুলিশ। বেশ কিছুদিন জেল খাটার পরে জামিনে মুক্তি পেয়েছিলেন ছোটে নবাব
২০০১ সালে কোকেন নেওয়ার অভিযোগে জেলে যেতে হয়েছিল ফরদিন খানকে। তারপরে নিজের দোষ স্বীকার করায় জামিনে মুক্তি পেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু নেশা ছাড়াতে বেশ কিছুদিন রিহ্যাব সেন্টারে কাটাতে হয়েছিল তাঁকে
সঞ্জুবাবা বা সঞ্জয় দত্তের জেল খাটার কথা তো সকলের জানা। ১৯৯৩ সালে মুম্বই বিস্ফোরণে অস্ত্র রাখার অভিযোগ ছিল সঞ্জয় দত্তের উপর। তার জন্য সঞ্জয় দত্তকে ৬ বছরের কারাদণ্ডের সাজা দিয়েছিল আদালত। ২০১৬ সালে তিনি ছাড়া পান। অত্যন্ত ভাল ব্যবহারের কারণে তাঁকে জেল থেকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছি
শাইনি আহুজার জেল খাটার কথাও সকলের জানা। ২০০৯ সালে ২০ বছরের পরিচারিকাকে ধর্ষণের অভিযোগে দোষী সাব্যস্ত হয়েছিলেন শাইনি আহুজা। সেসময় তাঁর কেরিয়ার ছিল মধ্য গগনে। সাত বছরের কারাদণ্ডের সাজা হয় তাঁর
বলিউডের আরেক তারকা সলমন খান। তাঁকেও জেল খাটতে হয়েছে। ১৯৯৮ সালে যোধপুর আদালত তাঁকে ৫ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছিল। ব্যাকবাক হরিণ শিকার করার অপরাধে বন্যপ্রাণ আইনে কারাদণ্ডের সাজা দিয়েছে আদালত। সেই মামলা এখনও চলছে আদালতে
জন আব্রাহামকেও জল খাটতে হয়েছে। নিজের দামি মোটর বাইক হারানোর পরে রেগে গিয়ে ২ জনকে মেরেছিলেন অভিনেতা। সেকারণে ১৫ দিন জেলে থাকতে হয়েছিল তাঁকে