• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

মমতার কাছে পঞ্চম দফার ৪৫ আসনই সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ কেন, লড়াই বাকি ১৫৯-এ

পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচনে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ পর্ব হল এই পঞ্চম দফা। আগামী শনিবার অর্থাৎ ১৭ এপ্রিলের ভোট গুরুত্বপূর্ণ বাংলার নির্বাচনে। একুশের বিধানসভা নির্বাচনের আটটি পর্বের চারটি শেষ হয়ে গিয়েছে ইতিমধ্যেই। সব মিলিয়ে ২৯৪টি আসনের মধ্যে ১৩৫টি কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ সারা। বাকি ১৫৯টির মধ্যে পঞ্চম দফায় ৪৫টি আসনে ভোট হবে।

পঞ্চম দফার ৪৫ আসনের উপর নির্ভর বাংলার ভাগ্য

পঞ্চম দফার ৪৫ আসনের উপর নির্ভর বাংলার ভাগ্য

শনিবার পঞ্চম দফায় বাংলায় নির্বাচনে যে ৪৫টি কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ হবে, তা দু-পক্ষের কাছেই গুরুত্বপূর্ণ। এই কারণেই গুরুত্বপূর্ণ যে, উভয়ের মধ্যে ২০১৯-এ সবথেকে বেশি লড়াই দেখা গিয়েছিল এই পর্বে। ২০১৯-এর লোকসভা ভোটের নিরিখে উভয়েই সমান সমান আসনে এগিয়েছিল তৃণমূল বিজেপি। এবার এই পর্বে কারা টেক্কা দেয় কাকে, তার উপর নির্ভর করবে বাংলার ভাগ্য।

প্রথম দুই পর্বের ভোট ২০১৯-এর নিরিখে বিজেপির

প্রথম দুই পর্বের ভোট ২০১৯-এর নিরিখে বিজেপির

২৭ মার্চ প্রথম দফায় ৩০টি আসনের মধ্যে ২০১৯-এর নিরিখে বিজেপি ২০টিতে এগিয়ে ছিল। ১ এপ্রিল দ্বিতীয় পর্বে আরও ৩০টি আসনে নির্বাচন হয়। সেখানে তৃণমূল ১৮টিতে এবং বিজেপি ১২টিতে এগিয়েছিল ২০১৯-এ নিরিখে। এই পর্বেই ভোট হয়েছিল নন্দীগ্রামে। শুভেন্দু অধিকারীর জেলা পূর্ব মেদিনীপুর ও পশ্চিমমেদিনীপুর জঙ্গলমহেল ছিল ভোট। এই দুই পর্বের ভোট বিজেপির ঘাঁটিতে হয়েছিল বলেই ধরে নেওয়া যায়।

তৃতীয় ও চতুর্থ দফার ভোট, ২০১৯-এরপ নিরিখে তৃণমূলের

তৃতীয় ও চতুর্থ দফার ভোট, ২০১৯-এরপ নিরিখে তৃণমূলের

৬ এপ্রিল তৃতীয় দফায় ৩১টি আসন ভোটগ্রহণ হয়েছিল। এই পর্যায়ে ২০১৯ লোকসভা নির্বাচনের নিরিখে তৃণমূল ৩১টি আসনের ২৯টিতে এগিয়ে ছিল। নিজের আধিপত্য বজায় রেখেছিল। বিজেপি বাকি দুটি আসনে এগিয়ে ছিল। বাংলা নির্বাচনের চতুর্থ দফায় ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছিল ১০ এপ্রিল। ৪৪টি আসনের মধ্যে ২০১৯ লোকসভা ভোটে বিজেপি ১৯টি আসনে এগিয়ে গিয়েছিল তৃণমূলের শক্ত ঘাঁটিতে। এই দুটি দফার ভোট হয়েছিল মূলত তৃণমূলের ঘাঁটিতে।

পঞ্চম দফায় তৃণমূলকে টেক্কা দিয়ে বিজেপি পায় সবথেকে বেশি ভোট

পঞ্চম দফায় তৃণমূলকে টেক্কা দিয়ে বিজেপি পায় সবথেকে বেশি ভোট

বাংলায় শনিবার অর্থাৎ ১৭ এপ্রিল ৪৫টি বিধানসভা আসনে ভোট হবে। পঞ্চম ধাপে সর্বাধিক সংখ্যক আসনে ভোটগ্রহণ হতে চলছে। এটি বঙ্গ বিধানসভা নির্বাচনের একটি গুরুত্বপূর্ণ পর্ব। এই ৪৫টি বিধানসভা কেন্দ্রে বিজেপি সম্মিলিতভাবে তৃণমূলের থেকে ২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনে বেশি ভোট পেয়েছিল।

উভয় নেতৃত্বই সমান সমান আসন দখল করেছিল ২০১৯-এ

উভয় নেতৃত্বই সমান সমান আসন দখল করেছিল ২০১৯-এ

২০১৯-এ এই ৪৫ আসনে বিজেপি পেয়েছিল প্রায় ৪৫ শতাংশ ভোট। তৃণমূলের ৪১.৫ শতাংশের তুলনায় যা অনেকটাই বেশি। তবে আসন দখলের ক্ষেত্রে উভয় নেতৃত্বই সমান সমান আসন দখল করেছিল প্রায়। তৃণমূল পেয়েছিল ২৩টি আসন। আর বিজেপি পেয়েছিল ২২টি। ফলে কাঁটা কা টক্কর হয়েছিল এই পর্বে। তাই এই পর্ব সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ হতে চলেছে।

তৃণমূল তার হারিয়ে ফেলা আসন না ফিরে পেলে...

তৃণমূল তার হারিয়ে ফেলা আসন না ফিরে পেলে...

এখানে উল্লেখ্য, ২০১৬ সালে তৃণমূল ৩১টি আসন জিতেছিল। ২০১১-র তুলনায় ছয়টি বেশি জিতেছিল তৃণমূল। বিজেপির কিছুই ছিল না। কংগ্রেস এবং বামেরা মিলে দশটি আসন জেতে ২০১৬-য়। কিন্তু ২০১৯-এ বিজেপি এই পর্বে দারুন ভাবে উঠে আসে। যদি এই পর্যায়ে তৃণমূল তার হারিয়ে ফেলা আসন না ফিরে পায়, তবে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হ্যাটট্রিকের রাস্তা জটিল হবে।

West Bengal Election : জলপাইগুড়িঃ নরেন্দ্র মোদি, অমিত শাহ শুধু মিথ্যা কথা বলে : মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

English summary
The fifth phase is most crucial for Mamata Banerjee in West Bengal Election 2021
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X