• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

অন্ধকারের পর্দা সরিয়ে উমাদের নিয়ে যাত্রা শুরু করল নরেন্দ্রপুর গ্রিনপার্ক সর্বজনিন

নরেন্দ্রপুর গ্রিনপার্ক সর্বজনিন-এর এবারের থিম 'মুছে দিয়ে সকল কালো, আমার উমা ঘরে এল'। আর এই স্লোগানের মধ্যে দিয়ে এবার তাঁদের পুজোকে সমাজের সেই সব নারীকে উৎসর্গ করা হয়েছে যারা নিয়ত কোনও না কোনওভাবে সমাজের বুকে নির্যাতন ও নিপীড়নের শিকার হচ্ছেন। নারী নির্যাতনের পিছনে যে মানুষগুলো জড়িত তাদের ধিক্কায় জানিয়ে অসুরের সঙ্গেও তুলনা টানা হচ্ছে এই ভাবনার আধারে।

পুজোর এমন এক অভিনব উদ্যোগ যা মন ছুঁয়ে যায়

নারীশক্তির জয়গানের এই আবহে নরেন্দ্রপুর গ্রিনপার্ক মহালয়ার দিনে এক অভিনব উদ্যোগ নেয়। যেখানে আর্থিকভাবে পিছিয়ে থাকা ৫০ জন মেয়ের হাতে তুলে দেওয়া হয় স্বাস্থ্য-বিমা। এক একটি স্বাস্থ্য-বিমার মূল্য পঞ্চাশ হাজার টাকা। এই স্বাস্থ্য-বিমা পাওয়া মেয়েরা এই মূল্যের ফ্রি-চিকিৎসা পরিষেবা পাবে। এমন উদ্যোগে সামিল হতে যেমন উপস্থিত হয়েছিলেন পুজো কমিটির প্রধান পৃষ্টপোষক নজরুল আলি মণ্ডল, তেমনি ছিলেন পুজো কমিটির প্রেসিডেন্ট তথা স্থানীয় বিধায়ক ফিরদৌসী বেগম। এছা়ড়াও ছিলেন পুজো কমিটির বিশিষ্ট সদস্যরা।

পুজোর এমন এক অভিনব উদ্যোগ যা মন ছুঁয়ে যায়

নরেন্দ্রপুর গ্রিনপার্ক ও একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার পক্ষ থেকে এই স্বাস্থ্য-বিমা দুস্থ এই মেয়েদের হাতে তুলে দেওয়া হয়। নরেন্দ্রপুর গ্রিনপার্ক সর্বজনিন দুর্গোৎসব কমিটির প্রধান পৃষ্টপোষক নজরুল আলি মণ্ডল জানান, এই ধরনের অভিনব উদ্য়োগে ভিত্তিতে আর্থিকভাবে পিছিয়ে থাকা মেয়েদের পাশে দাঁড়ানোটাই মূল লক্ষ্য। এই ধরনের উদ্যোগে আর্থিকভাবে পিছিয়ে পড়া মেয়েরা সামজিক দিক থেকে একটা সুরক্ষা কবচ পেল বলেও মন্তব্য করেন তিনি। এমন উদ্যোগকে সাধুবাদ জানান বিধায়িকা ফিরদৌসী বেগমও। তিনি বলেন, এমন উদ্যোগ সত্যিকারেই অভিনব। এরজন্য পুজো কমিটির সাধারণ সম্পাদক বিশ্বজিৎ দাসকে অভিনন্দনও জানান তিনি।

পুজো কমিটির সাধারণ সম্পাদক বিশ্বজিৎ দাস জানান, তাঁদের এবারের দুর্গাপুজো সেই সব অবেহলিত নারীদের জন্য যারা প্রতিনিয়ত এই সমাজের বুকে শোষণের শিকার হচ্ছেন। সেই কারণে পুজো কমিটির পক্ষ থেকে ৫০ জন দুস্থ মেয়ের হাতে এই স্বাস্থ্য-বিমা তুলে দেওয়ার পরিকল্পনা নেওয়া হয়। মহালয়ের মতো পবিত্র দিনে এই স্বাস্থ্য- বিমা তুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল বলেও জানান বিশ্বজিৎ।

পুজোর এমন এক অভিনব উদ্যোগ যা মন ছুঁয়ে যায়

পুজোর আগমনীতে এখন মেতে উঠেছে নরেন্দ্রপুর গ্রিনপার্ক সর্বজনিন। তৃতীয়াতেই উদ্বোধন হয়ে যাচ্ছে পুজোর। সেদিন পঞ্চায়েতমন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায় ছাড়াও পুজোমণ্ডপে উপস্থিতি থাকবেন ফিরদৌসী বেগম, নজরুল আলি মণ্ডল, জাভেদ খান, শুভেন্দু আধিকারীরা।

English summary
Narendrapur Green Park Sarbojanin took a unique initiative on Mahalaya. They handed over 50 Health Insurance to 50 Girls who are economically backward.
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X