• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

বিএসএফ গ্রামে ঢুকে মানুষকে মারধোর করছে, অভিযোগ তুললেন মমতা

Google Oneindia Bengali News

আরও একবার বর্ডার সিকিউরিটি ফোর্সের (বিএসএফ) বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ তুললেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ সংবাদমাধ্যমের খবর, বুধবার পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছেন, বিএসএফ গ্রামে ঢুকে মানুষকে মারধোর করছে এবং আন্তর্জাতিক সীমান্তের বাইরে পাঠিয়ে দিচ্ছে! তৃণমূল সুপ্রিমো কোচবিহার পুলিশকে নির্দেশও দিয়েছেন যাতে আন্তর্জাতিক সীমান্ত থেকে ৫০ কিলোমিটারের বেশি ভেতরে বিএসএফকে কোনওরকম তদন্তের অনুমতি না দেওয়ায় হয়৷

রাজ্য পুলিশের সঙ্গে বৈঠক মমতার!

রাজ্য পুলিশের সঙ্গে বৈঠক মমতার!

সংবাদমাধ্যম সূত্রে খবর, রাজ্য পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে একটি ভার্চুয়াল বৈঠকের সময়, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, 'বিএসএফকে রাজ্যের আন্তর্জাতিক সীমান্তের ৫০ কিলোমিটার ভেতরের এলাকায় প্রবেশ করতে দেবেন না, কারণ তারা গ্রামে প্রবেশ করে মানুষকে হত্যা করছে এবং তাদের সীমান্তের ওই পারে পাঠিয়ে দিচ্ছে৷ রাজ্যে যেকোনো অপারেশনে কাজ করার সময় বিএসএফকে রাজ্য পুলিশকে জানাতে ও অনুমতি নিতে বলুন।

বিএসএফ-এর এলাকা বাড়িয়েছে কেন্দ্র!

বিএসএফ-এর এলাকা বাড়িয়েছে কেন্দ্র!

প্রসঙ্গত কেন্দ্র সরকার গত বছর পাঞ্জাব, পশ্চিমবঙ্গ এবং অসমের আন্তর্জাতিক সীমান্ত থেকে ৫০ কিলোমিটার এলাকা বিএসএফ-এর আওতায় রেখেছে৷ আগে এটি সীমান্ত থেকে ১৫ কিলোমিটার এলাকা ছিল৷ নতুন আইন এনে সীমান্ত প্রহরী বাহিনীকে সীমান্তের ৫০ কিমি ভেতরেও তল্লাশি চালানোর অনুমতি দিয়েছে কেন্দ্র৷ এ জন্য বিএসএফ আইন সংশোধন করা হয়েছিল৷ অসমে এই সংশোধনীটি সংশ্লিষ্ট রাজ্যে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি বজায় রাখার জন্য বিএসএফ এবং রাজ্য পুলিশের ভূমিকা নিয়ে রাজনৈতিক অশান্তি সৃষ্টি করেছে। অন্যদিকে পাঞ্জাব এবং পশ্চিমবঙ্গের বিজেপি বিরোধী সরকার (পাকিস্তান ও বাংলাদেশের সঙ্গে) আন্তর্জাতিক সীমান্তের বিএসএফের এখতিয়ার ১৫ কিলোমিটার থেকে ৫০ কিলোমিটার পর্যন্ত বাড়ানোর কেন্দ্রের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে গত বছরের নভেম্বরেই প্রস্তাব পাস করেছিল।

কেন্দ্রের সঙ্গে মমতার বিবাদ বহু পুরনো!

কেন্দ্রের সঙ্গে মমতার বিবাদ বহু পুরনো!

এই রাজ্যগুলির তরফে কেন্দ্রীয় সরকারকে ১১ অক্টোবর, ২০২১-এ দেওয়া আদেশ প্রত্যাহার করতে বলা হয়েছিল। কেন্দ্রীয় ও পশ্চিমবঙ্গ সরকার বিভিন্ন ইস্যুতে, বিশেষ করে রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে বিগত বহু বছর ধরে বিবাদে জড়িয়েছে৷ মমতা ব্যানার্জি, রাজ্য পুলিশের সঙ্গে একটি বৈঠকে, দাবি করেছিলেন যে রাজ্যে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি ভাল কিন্তু মিডিয়ার কিছু অংশ ইচ্ছাকৃতভাবে ভুল তথ্য ছড়াচ্ছে এবং বলেছিলেন যে পশ্চিমবঙ্গে কিছু হলে মামলা দায়ের করা হয় কারণ এটি উত্তর প্রদেশ, মধ্যপ্রদেশ কিংবা, গুজরাট নয়৷

বিজেপি সিপিএম রাজ্যকে অপমান করতে চাইছে!

বিজেপি সিপিএম রাজ্যকে অপমান করতে চাইছে!

একই সঙ্গে এদিনের বৈঠকে মমতা বলেন, আত্মহত্যার মাধ্যমে মৃত্যুর ঘটনাকেও বিরোধী দলগুলি ধর্ষণের মামলা হিসাবে চিত্রিত করেছে। বিজেপি এবং সিপিআই(এম) উভয়ই পশ্চিমবঙ্গকে অপমান করার চেষ্টা করছে। আমরা বাংলাকে হাতরাস বা উন্নাও হতে দেব না।' একই সঙ্গে তিনি রাজ্যে সাম্প্রতিক ঘটনাগুলি নিয়ে পশ্চিমবঙ্গ পুলিশকেও প্রশ্ন করেন।

তুমুল জল্পনা, লকেট চট্টোপাধ্যায়কে নিয়ে সিদ্ধান্ত বদল বঙ্গ বিজেপির

English summary
BSF is beating people entering the village, Mamata complains
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X
Desktop Bottom Promotion