• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

বিজেপিতে বিভাজন স্পষ্ট একুশের আগে, হেভিওয়েটদের 'বয়কটে' অশনি সংকেত

দুর্গাপুজোর মরশুমেও বিভাজনের কাঁটা থেকে মুক্ত হতে পারল না বিজেপি। উল্টে দুর্গাপুজোই সময়েই বেশি করে স্পষ্ট করে দিয়ে গেল গোরুয়া শিবিরের বিভাজন রেখা। দিলীপ-সৌমিত্রের বিবাদ ছাড়াও বিজেপির দুর্গাপুজোতেও দেখা গেল হেভিওয়েট নেতাদের গরহাজিরা। মুকুল-কৈলাশরা সক্রিয় হলেও অনেকের মুখ দেখা গেল না পুজোতে।

বিজেপির অন্দরে ফাটল তীব্র পুজোতেও

বিজেপির অন্দরে ফাটল তীব্র পুজোতেও

নবমী নিশি পোহালেই বিদায়ের সুর বেজে যাবে। কিন্তু বিজেপি নেতাদের দেখা নেই গেরুয়া শিবিরের পুজোর ঘটাতে। প্রথম থেকেই এই পুজোকে ঘিরে বিজেপির অন্দরে ফাটল তীব্র হচ্ছিল। বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ একদিকে, অন্যদিকে মুকুল রায়। একজন পুজোর বিপক্ষে, অন্যজন পুজোর পক্ষে। তা নিয়ে দ্বন্দ্বের মধ্যেই শুরু পুজো-পার্বন।

মোদীর ভার্চুয়াল সমাবেশে ছিলেন না শোভন-বৈশাখী

মোদীর ভার্চুয়াল সমাবেশে ছিলেন না শোভন-বৈশাখী

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ভার্চুয়াল ভাষণ দিয়ে উদ্বোধন হল বিজেপির পুজোর। কিন্তু সেই ভার্চুয়াল সমাবেশে নেই শোভন-বৈশাখী। শোভন চট্টোপাধ্যায় ও বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়কে আমন্ত্রণ জানানো সত্ত্বেও তাঁরা আসেননি। উল্টে শোভন-বৈশাখী মেতেছিলেন দিদির পাঠানো উপহার নিয়ে। মোদীর উদ্বোধনে না গিয়ে দিদির উপহারেই খুশি থেকেছেন তাঁরা।

রাহুলও গরহাজির ছিলেন বিজেপির পুজো উদ্বোধনে

রাহুলও গরহাজির ছিলেন বিজেপির পুজো উদ্বোধনে

শুধু শোভন-কাঁটা নয়, বিজেপির প্রাক্তন রাজ্য সভাপতি তথা প্রাক্তন কেন্দ্রীয় সম্পাদক রাহুল সিনহাও গরহাজির ছিলেন বিজেপির পুজো উদ্বোধনে। পুজোর কোনও অনুষ্ঠানেই তাঁকে দেখা যায়নি। তিনি না যাওয়ার কারণও ব্যাখ্যা করেননি। তিনি কার্যত এড়িয়েই গিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর অনুষ্ঠান।

অনাহুতই রয়ে গিয়েছেন তথাগত রায়

অনাহুতই রয়ে গিয়েছেন তথাগত রায়

আর একজন হলেন তথাগত রায়। তথাগত রায় রাজ্যপালের পদ ছেড়ে বিজেপিতে সক্রিয় হওয়ার বার্তা দিয়ে বাংলায় ফিরেছিলেন। বিজেপির প্রাক্তন এই রাজ্য সভাপতি অনাহুতই রয়ে গিয়েছেন। তাঁকে আমন্ত্রণও জানানো হয়নি। ফলে প্রথম থেকে যে অনৈক্যের ছবি স্পষ্ট হয়েছিল, তা নবমী পর্যন্ত অটুট রয়েছে।

অনৈক্যের ছবিতে সংযোজন দিলীপ বনাম সৌমিত্র

অনৈক্যের ছবিতে সংযোজন দিলীপ বনাম সৌমিত্র

আর এই অনৈক্যের ছবিতে সংযোজিত হয়েছে দিলীপ বনাম সৌমিত্র কাজিয়া। ভরা দুর্গাপুজোর মরশুমে সৌমিত্রর কমিটি বাতিল করে কার্যত মুকুল রায়কে বার্তা দিয়েছেন দিলীপ ঘোষ। মুকুল ঘনিষ্ঠ নেতার বিরুদ্ধে তিনি নালিশ ঠুকতেও পিছপা হননি। সৌমিত্র সমান্তরাল সংগঠন চালানোর চেষ্টা করছেন বলে অভিযোগ করেছেন।

একতার ছবি অস্পষ্ট হচ্ছে ২০২১-এর আগে

একতার ছবি অস্পষ্ট হচ্ছে ২০২১-এর আগে

সব মিলিয়ে বঙ্গ বিজেপিতে এখন কোন্দল তুঙ্গে। মুকুল বনাম দিলীপ আরও ক্ষুরধার হয়েছে দ্বন্দ্ব, তারপর বিভাজন রেখা স্পষ্ট হয়েছে রাহুল সিনহা, তথাগত রায়, শোভন চট্টোপাধ্যায়দের সঙ্গেও। মোট কথা বঙ্গ বিজেপিতে অশান্তি বাড়ছে। একতার ছবি অস্পষ্ট হচ্ছে ক্রমশ। এর প্রভাব কিন্তু পড়বেই ২০২১-এ।

English summary
BJP can’t show the picture of unity during Durga Puja season before 2021 Assembly Election. In vise versa BJP have to face many Division in durga Puja season.
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X