• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

বাবরি ধ্বংস স্বতস্ফূর্ত জনরোষে! প্রতিক্রিয়ায় কে কী বললেন বাংলার নেতারা

১৮ বছর পর বাবরি মামলায় বেকসুর খালাস পেয়ে গেলেন লালকৃষ্ণ আদবানি, মুরলি মনোহর যোশী-সহ ৩২ জন। দিল্লির সিবিআই আদালতে এই মামলার রায়দানের পর স্বভাবিকভাবেই বিজেপির পক্ষ থেকে রায়কে স্বাগত জানানো হয়েছে। বিরোধীরা সরব হয়েছেন রায়ের বিরোধিতায়। এই রায়ে কড়া প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন বিরোধী নেতারা।

প্রদীপ ভট্টাচার্য, কংগ্রেস নেতা

প্রদীপ ভট্টাচার্য, কংগ্রেস নেতা

কংগ্রেস নেতা প্রদীপ ভট্টাচার্য বলেন, এই রায় প্রত্যাশিতই ছিল। এমনই একটা রায় আসবে ভেবেই রেখেছিলাম। এই রায়ে দেশের ধর্মনিরপেক্ষ ভাবমূর্তি ধাক্কা খাবে। তিনি বলেন, বিজেপি বিরোধী দলগুলোকে বলব, ভারতের ঐক্য সংহতি বিসর্জন দিয়ে যাঁরা ভারতে একটি বিশেষ ধর্মের দেশ বলে চিহ্নিত করতে চান, তাঁদের বিরুদ্ধে সমস্ত দল এক হন।

সুজন চক্রবর্তী, সিপিএম নেতা

সুজন চক্রবর্তী, সিপিএম নেতা

সিপিএম নেতা সুজন চক্রবর্তী বলেন, মোদী-শাহের রাজত্বে যা হওয়ার তাই হচ্ছে। মোদী-শাহ নিজেরাই ছাড়া পেয়ে যাচ্ছেন। ফলে বাকিরা তো ছাড়া পাবেনই। স্পষ্ট হয়ে যাচ্ছে, সরকার যা চাইছে সেই পথেই রায় বেরোচ্ছে। এতে দেশের মাথা লজ্জায় হেঁট হয়ে যাচ্ছে। জ্যোতি বসু এই ঘটনার পর বর্বরের দল বলে মন্তব্য করেছিলেন।

সৌগত রায়, তৃণমূল নেতা

সৌগত রায়, তৃণমূল নেতা

তৃণমূল নেতা সৌগত রায়ও বলেন, এই রায় হবে এমনই ভেবেছিলেন তিনি। ২৮ বছর পর রায়দানে অভিযুক্তদের বেকসুর খালাস করে ভারতের ধর্মনিরপেক্ষ ভাবমূর্তিকে ভুলুণ্ঠিত করা হল। ভারতের মৌলিক ঐক্য ভেঙে গুঁড়িয়ে দেওয়া হল এই রায়ে। ন্যায় মিলল না। মুসলিম ল-বোর্ড নিশ্চয়ই উচ্চতর আদালতে যাবে এই রায়ের বিরুদ্ধে। ভুলের জন্য হয়েছে বিশ্বাস করতে কষ্ট হয়। যা হচ্চে কেন্দ্রের শাসক দলের পক্ষ হচ্ছে।

শমীক ভট্টাচার্য, বিজেপি নেতা

শমীক ভট্টাচার্য, বিজেপি নেতা

বিজেপি নেতা শমীক ভট্টাচার্য বলেন, এই রায়কে স্বাগত। প্রমাণ হল লালকৃষ্ণ আদবানি, মুরলি মনোহর যোশীদের কোনও ইন্ধন ছিল না। তা থাকা সম্ভবও ছিল না। এটা আসলে জনরোষের বহিঃপ্রকাশ হয়। রাজনৈতিক নেতা বা প্রশাসনের পক্ষে নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব ছিল না। সেই জনরোষ। আজকের দিনে

তন্ময় ভট্টাচার্য, সিপিএম নেতা

তন্ময় ভট্টাচার্য, সিপিএম নেতা

সিপিএম নেতা তন্ময় ভট্টাচার্য বলেন, শমীক ভট্টাচার্য জানেন না জনরোষ কাকে বলে। যদি জনরোষেই বিশাল ইমারত ভেঙে পড়বে, তাহলে কেন শাবল, কোদাল, গাঁইতি নিয়ে যাওয়া হয়েছিল। এটা কি পূর্বপরিকল্পনা নয়। সে্দিনের ঘটনার ছবি, ভিডিও কেন বিচার্য বিষয হল না, তা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন তন্ময় ভট্টাচার্য।

কলকাতা : বাবরি মসজিদ ধ্বংস মামলায় অভিযুক্তদের বেকসুর খালাস নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়া

বিতর্কে এখনও পড়ল না দাড়ি! বাবরি মসজিদ মামলায় পরবর্তী পদক্ষেপ ঘোষণা মুসলিম ল বোর্ডের

English summary
Bengal’s political leaders give reaction about Babri masjid case. CBI court says 32 are acquittal from the allegation of Babri masjid collapsed
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X