• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

এবার বিবাহ সম্পর্কিত কিংবা ব্যবসায়িক মামলাতেও মিডিয়েশন! জানালেন হাইকোর্টের বিচারপতি

  • |

বিবাহ সম্পর্কিত সমস্যা হোক, ব্যবসায়িক সমস্য থেকে দ্রুত নিষ্পত্তি হবে এবার সরাসরি মিডিয়েশনের মাধ্যমে জানালেন, হাইকোর্টের বিচারপতি হরিশ ট্যান্ডন। বুধবার কলকাতা হাইকোর্টে একটি সাংবাদিক সম্মেলন তিনি জানান, দীর্ঘ মেয়াদি মামলাগুলি দ্রুত নিষ্পত্তি হবে এই মিডিয়েশনের মাধ্যমে। সারা দেশে চালু হয়েছে। এখন তিনটি জেলা দিয়েই শুরু করা হবে।

 এবার বিবাহ সম্পর্কিত কিংবা ব্যবসায়িক মামলাতেও মিডিয়েশন! জানালেন হাইকোর্টের বিচারপতি

কলকাতা,উত্তর, দক্ষিণ চব্বিশ পরগনা এই তিনটি জেলার প্রথম চালু হতে চলেছে। লোক আদালত বা আর্বিট্রেশনের মতো নয়। মামলার শুরুতেই বিবাদী ও বাদী পক্ষকে প্রস্তাব দেবে আদালত। তারা সম্মতি দিলে সমাধানের পথ তৈরি করবেন বিচারকরা। তবে এক্ষেত্রে হার জিতের কোনও সম্পর্ক নেই বলেই জানান বিচারপতি ট্যান্ডন।

নতুন কমার্শিয়াল আইনের পরিপ্রেক্ষিতে কলকাতা হাইকোর্টের মিডিয়েশন পদ্ধতি চালু হয়েছে। সব কমার্শিয়াল সমস্যা ব্যবসায়িক বিবাদ মীমাংসা জন্য মধ্যস্থতাকারীদের একটি প্যানেল তৈরি হয়েছে বিবাদমান সংস্থাগুলি সরাসরি এই প্যানেলের দ্বারস্থ হতে পারবেন। আর আদালতে গিয়ে মামলা করার হ্যাপা পোহাতে হবে না।

ব্রিটেনসহ অন্যান্য বহু দেশে হাজার ১৯৮০ সাল থেকে এই পদ্ধতিতে বিবাদ মীমাংসা করা হচ্ছে । এর ফল পাওয়া গিয়েছে। এটি একটি অভিনব ধারণা এই পদ্ধতিতে বিচারে মধ্যস্থতাকারী প্যানেল পক্ষের বক্তব্য শুনে যে মীমাংসা করবেন । তারপরে সংস্থাগুলোকে আর উচ্চ আদালতের দ্বারস্থ হতে হয় না ফলে আদালতে র চাপ কমে। এই পদ্ধতি বিভিন্ন বিবাদের মীমাংসার জন্য বিভিন্ন দেশে বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। মামলাকারী বিভিন্ন সংস্থার কাছে বিচারপতির আবেদন তারাও এই পদ্ধতিতে বিভিন্ন মীমাংসার চেষ্টা করবেন। কমার্শিয়াল আদালতে আবেদন জানাতে পারবেন।

English summary
Now there is mediation in marriage and business cases in Courts
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X