• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

সমুদ্রে নজরদারি বাড়ানোর জন্য আরও একটি এফপিভি ‌নিযুক্ত কলকাতা থেকে

সমুদ্রে নজরদারির জন্য আরও একটি ফাস্ট পেট্রল ভেসেল (‌এফপিভি)‌ তৈরি করল গার্ডেনরিচ শিপ বিন্ডার্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ার্স (‌জিআরএসই)‌। বুধবার এই আইসিজিএস কনকলতা বড়ুয়া জাহাজটি তুলে দেওয়া হয় ভারতীয় উপকূলরক্ষী বাহিনীর হাতে। এই জাহাজটি কলকাতা বন্দরের জন্য বরাদ্দ করা হয়েছে।

সমুদ্রে নজরদারি বাড়ানোর জন্য আরও একটি এফপিভি ‌নিযুক্ত কলকাতা থেকে

এই সম্পাদনের কাজটি সম্পন্ন করা হয় ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে। যেখানে উপস্থিত ছিলেন প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের সহ সচিব জিওয়েশ নন্দন এবং ভারতীয় উপকূল রক্ষী ও জিআরএসই–এর র আধিকারিকরাও উপস্থিত ছিলেন। জিআরএসই দ্বারা নির্মিত আইসিজিএস কনকলতা বরুয়া পঞ্চম এফপিভি। এফপিভি গোত্রের মোট পাঁচটি জাহাজ তৈরির বরাত পায় জিআরএসই। ৯ জুন এটি সরবরাহ করা হয়। এর আগের ৪টি উপকূল রক্ষী বাহিনীর হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে।

জিআরএসই–এর কর্মকর্তা জানিয়েছেন যে এফপিভিগুলি মাঝারি–পরিসরের ভূ–পৃষ্ঠের জাহাজ, যার দৈঘ্য ৫০ মিটার ও প্রস্থ ৭.‌৫ মিটার এবং স্থানচ্যুত করা যায় না, কারণ এটি ৩০৮ টনের। জিআরএসই–এর পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, '‌এই ক্ষমতাশালী, জ্বালানী–সহায়ক জাহাজগুলি বহু অপারেশন যেমন নজরদারি, পাচার–বিরোধী, চোরা–শিকার রোধ ও উদ্ধার কাজের জন্য বিশেষভাবে তৈরি করা হয়েছে।’‌ তিনটি প্রধান ইঞ্জিনের সহায়তায় এটি চলবে। ছিল। উপকূল রক্ষী বাহিনীর কর্তারা জানিয়েছেন, জিআরএসই’র এই জাহাজগুলি আধুনিক, দ্রুতগতিতে চলতে সক্ষম এবং শক্তিশালী বন্দুক থাকায় জলসীমায় নজরদারি চালাতে সুবিধাজনক। ভারতীয় উপকূল রক্ষী বাহিনীর সুপারিশে জিআরএসই এ ধরনের এফপিভি তৈরি করতে সফল হয়েছেন।

জোর যার মুলুক তার! সেলিমের খোঁচায় বাববির রায়ের সঙ্গে মমতাও

English summary
another fpv has been commissioned in kolkata to increase surveillance at sea
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X