• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের আগেই চাকরির বাজারে সার্জিক্যাল স্ট্রাইক ট্রাম্পের! কতটা রদবদল নয়া ভিসা নীতিতে?

  • |

আসন্ন রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের মুখেই ভিসার নিয়মে বড়সড় রদবদল করল মার্কিন প্রশাসন। মঙ্গলবার এইচ১বি ভিসার জন্য নয়া নীতি ঘোষণা করতে দেখা গেল ট্রাম্প প্রশাসনকে। যা নিয়ে জোরদার বিতর্ক শুরু হয়েছে আন্তর্জাতিক রাজনৈতিক মহলে। কারণ এর ফলে ভারত সহ আমেরিকায় কর্মরত বিভিন্ন দেশের ভিন্ন ভিন্ন পেশার লক্ষাধিক মানুষ বড়সড় বিপদের মুখে পড়বেন বলে মনে করা হচ্ছে।

‘বাই আমেরিকান, হায়ার আমেরিকান’ দাবিতেই কার্যত মান্যতা ট্রাম্পের

‘বাই আমেরিকান, হায়ার আমেরিকান’ দাবিতেই কার্যত মান্যতা ট্রাম্পের

এদিকে করোনা আবহে ধুঁকছে মার্কিন অর্থনীতি। ক্রমবর্ধমান বেকারত্বে ঘুম উড়েছে ট্রাম্প প্রশাসনের। সেই সঙ্গে জিডিপির লাগামহীন পারাপতনেও দিশেহারা অবস্থা বিশ্বের অন্যতম প্রধান এই ধনী রাষ্ট্রের। এদিকে দেশীয় বাজারে কাজের ক্ষেত্রে দীর্ঘদিন থেকেই মার্কিনিদের অগ্রাধিকারের দাবি উঠছিল সমাজের বিভিন্ন মহল থেকে। এদিকে এর আগে ভোটে জিতে আমেরিকার মসনদে বাসর আগেই ‘বাই আমেরিকান, হায়ার আমেরিকান' অর্থাৎ ‘আমেরিকার পণ্য কেনো, আমেরিকানদের চাকরিতে নাও' স্লোগানে ঝড় তুলতে দেখা যায় ট্রাম্পকে। এবার কার্যত সেই দাবিকেই যেন মান্যতা দিলেন স্বয়ং ট্রাম্প।

ভোটের আগেই কাজের বাজারে ‘সার্জিক্যাল স্ট্রাইক’ ট্রাম্পের

ভোটের আগেই কাজের বাজারে ‘সার্জিক্যাল স্ট্রাইক’ ট্রাম্পের

আন্তর্জাতিক রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের মতে কখনও বর্ণবৈষম্য হোক বা কখনও করোনা মোকাবিলা, প্রতিক্ষেত্রেই মুখ পুড়েছে বিদায়ী প্রেসিডেন্টের। সেই সঙ্গে করোনাকালে গোদের উপর বিষফোড়ার মতো ট্রাম্পের দুশ্চিন্তা বাড়াতে থাকে ক্রমবর্ধমান বেকরত্ব। যুবসমাজের মধ্যে বাড়তে থাকে ট্রাম্প বিরোধী ক্ষোভ। ওয়াকিবহাল মহলের ধারণা ভোটের আগে জনপ্রিয়তা বৃদ্ধি করতে এইচ১বি ভিসার আবেদন কড়া বিধিনিষেধ আরোপ করে মার্কিন মুলুকে কাজের বাজারেই যেন কার্যত ‘সার্জিক্যাল স্ট্রাইক' করলেন ট্রাম্প।

সমস্যা পড়তে চলেছে তথ্য-প্রযুক্তি সংস্থায় কর্মরত প্রবাসী ভারতীয়রা

সমস্যা পড়তে চলেছে তথ্য-প্রযুক্তি সংস্থায় কর্মরত প্রবাসী ভারতীয়রা

এদিকে এই ভিসায় নিয়মে বড়সড় রদবদলের জেরে সবথেকে বেশি সমস্যায় পড়বেন আমেরিকায় কর্মরত প্রবাসী ভারতীয় তথ্যপ্রযুক্তি কর্মীরা। সমস্যা বাড়বে চিনাদেরও। যদিও মার্কিন মুলুকের একটা বড় অংশের অভিযোগ কম টাকায় দক্ষ কর্মী নিয়োগ করতেই ভারত-চিনের দিকে ঝোঁকে একাধিক মার্কিন সংস্থা। যার জেরে যোগ্যাতা থাকা সত্ত্বেও কাজল পান না অনেক আমেরিকানই। বর্তমানে এই ভিসা বলে চিন ও আমেরিকার প্রায় ৫০ লক্ষেরও বিভিন্ন পেশার মানুষ আমেরিকায় কাজ করছেন বলে জানা যাচ্ছে।

মাধ্যমে আবারও ‘ব্যাক টু দ্য বেসিক’ নীতিতে ফিরলেন ট্রাম্প

মাধ্যমে আবারও ‘ব্যাক টু দ্য বেসিক’ নীতিতে ফিরলেন ট্রাম্প

এদিকে প্রতিবছরে আমেরিকায় কাজের জন্য এইচ১বি ভিসার জন্য আবেদন করেন প্রায় ৮৫ হাজারের বেশি মানুষ। আমেরিকার শ্রম মন্ত্রকের তথ্য বলছে এই নতুন ভিসা আইনের ফলে এই সংখ্যা এক তৃতীয়াংশ পর্যন্ত কমে যাবে। যার ফলে পরোক্ষ ভাবে লাভবান হবেন মার্কিনিরাই। এর আগে ২০১৭ সালে ‘আমেরিকা ফার্স্ট' অর্থাৎ ‘প্রথম পছন্দ আমেরিকা' নীতিতে ভর করেই আমেরিকার ভিসা নীতির ক্ষেত্রে আমূল বদল আনেন ট্রাম্প। এবার তার সেই ঘোষণার ঠিক ৩ বছরের মাথায় এইচ১বি ভিসা নীতিতে বদলের মাধ্যমে আবারও ‘ব্যাক টু দ্য বেসিক' নীতিতে ফিরলেন ট্রাম্প।

কলকাতাঃ হাথরাসের প্রতিবাদে তৃণমূল মহিলা কংগ্রেসের মিছিল

'বয়ফ্রেন্ডকে ক্ষেতে ডেকেছিলেন মনে হয়..!' হাথরাসের নির্যাতিতাকে নিয়ে বিজেপি নেতার মন্তব্যে তোলপাড়

English summary
trumps surgical strike in the job market before the presidential election how many changes in the new visa policy
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X