• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

এফএটিএফকে ধোকা দিয়ে চলে অর্থের আদানপ্রদান! পাকিস্তানকে আড়ালের চেষ্টা জইশ জঙ্গিদের

  • |

হামলার প্রায় দেড় বছর পর পুলওয়ামা কাণ্ডে চার্জশিট জমা দেয় চলেছে জাতীয় তদন্থকারী সংস্থা বা এনআইএ। মঙ্গলবারই জম্মুর এনআইএ আদালতে ওই পাঁচ পাতার চার্জশিট। এদিকে পুলওয়ামা হামলার নেপথ্যে জইশ জঙ্গিদের একাধিক চাঞ্চল্যকর যড়যন্ত্রের কথা সামনে আনতে শুরু করেছে এনআইএ।

ফিনান্সিয়াল অ্যাকশন টাস্ক ফোর্সকে ধোকা জইশ জঙ্গি

ফিনান্সিয়াল অ্যাকশন টাস্ক ফোর্সকে ধোকা জইশ জঙ্গি

ফিনান্সিয়াল অ্যাকশন টাস্ক ফোর্স বা এফএটিএফকে ধোকা দিয়ে কি-ভাবে জইশ-ই-মহম্মদ জঙ্গিরা পুরো পরিকল্পনা ছকে ছিল তার রহস্য উদঘাটন করেছেন ভারতীয় এনাআইএ-র দুঁদে গোয়েন্দারা। সূত্রের খবর, ২০১৯ সালে যখন পুলওয়ামায় বর্বরোচিত আক্রমণ চালিয়েছিল জইশ-ই-মহম্মদ বা জেইএম ততদিনে পাকিস্তানের নাম উঠে গিয়েছিল এফএটিএফ-এর গ্রে লিস্টে।

কি এই এফএটিএফ ?

কি এই এফএটিএফ ?

এদিকে আন্তর্জাতিক আর্থিক দুর্নীতি, জঙ্গিদের অর্থের যোগান সহ একাধিক বিষয়ের উপর নজরদারি চালানোর জন্য ১৯৮৯ সালে তৈরি হয় এই আন্তঃরাষ্ট্রীয় সংস্থা এফএটিএফ। এদিকে পুলওয়ামা হামলার জন্য আটঘাট বেঁধেই মাঞে নেমেছিল জঙ্গি সংগঠন জঈশ-ই-মহম্মদ। সেই সময় জঙ্গিনেতাদের মাথায়ছিল আর্থিক আদানপ্রদানের বিষয় সামনে এলে আরও বেকায়দায় পড়তে পারে পাক প্রশাসন। এনআইএ-র গোয়েন্দাদের মতে তাই ইমরান সরকারের পিঠ বাঁচাতে কোনও খাতিই রাখেনি তারা।

পাঁচ কিস্তেতে চল আদানপ্রদান

পাঁচ কিস্তেতে চল আদানপ্রদান

সূত্রের খবর, আন্তর্জাতিক ফোরামের নজরদারি এড়াতে জইশ নেতারা পুলওয়ামার হামলা ঘটানোর জন্য, পাকিস্তান থেকে ছোট ছোট অঙ্কে ভেঙে পাঁচ কিস্তিতে উমর ফারুক-এর অ্যাকাউন্টে অর্থ স্থানান্তর করেছিল। অন্যসময় পুরো লেনদেন একবারেই করা হতো বলে জানাচ্ছেন গোয়েন্দারা। এনআইএ-র মতে অ্যালায়েড ব্যাঙ্ক অব পাকিস্তান এবং মীনাজ ব্যাঙ্কে ফারুকের অ্যাকাউন্ট ছিল। সেখানে ২৭শে জানুয়ারি থেকে ৪ঠা ফেব্রুয়ারির মধ্যে পাঁচটি কিস্তিতে পাকিস্তানি মুদ্রায় ১০ লক্ষ ৬৬ হাজার টাকা আদানপ্রদান করা হয়েছিল।

গোটা হামলার পরিকল্পনায় কত ব্যায় ?

গোটা হামলার পরিকল্পনায় কত ব্যায় ?

এনআইএ-র চার্জশিট অনুযায়ী হামলা চালাতে মোট খরচ হয়েছিল ৫ লক্ষ ৭০ হাজার টাকা। এদিকে ২০১৯-এর ১৪ ফেব্রুয়ারি পুলওয়ামায় আইইডি বিস্ফোরণে ৪০ জন সিআরপিএফ জওয়ানের মৃত্যু হয়। বর্তমানে সমস্ত উপযুক্ত তথ্যপ্রমাণ সহ পুলওয়ামা হামলায় অভিযুক্তদের একটি তালিকাও ইতিমধ্যে তৈরি কার হয়েছে। যা চার্জশিটের সঙ্গেই পেশ করা হবে। যে তালিকায় নাম রয়েছে জইশ-ই-মহম্মদ প্রধান মৌলানা মাসুদ আজাহার এবং তার ভাই রাউফ আসগরেরও।

আধার কার্ড আপ-টু-ডেট করতে গেলে এবার থেকে লাগবে ১০০ টাকা

প্রদীপেই আস্থা রাখল হাইকমান্ড, শীঘ্রই নাম ঘোষণা সোমেনের উত্তরাধিকারীর

English summary
jaish militants exchange money in pulawama case with fatf surveillance in mind shocking information from nia
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X