কেরলের লাভ জেহাদ মামলায় হাদিয়াকে এই অনুমতি দিল সুপ্রিমকোর্ট

  • Posted By:
Subscribe to Oneindia News

কেরলের 'লাভ জেহদ' মামলায় আজ এক নয়া মোড় উঠে এলো। সুপ্রিমকোর্টের তরফে এই মামলায় অন্যতম চরিত্র হাদিয়াকে পড়াশোনা চালিয়ে যেতে বলা হয়েছে। কেরলের অখিলা অশোকেন ওরফে হাদিয়া, শাফিন আহমেদকে বিয়ে করলে , তাদের বিরুদ্ধে এই মামলা দায়ের হয়।

কেরলের লাভ জিহাদ মামলায় হাদিয়াকে এই অনুমতি দিল সুপ্রিমকোর্ট

এদিন মামলা চলাকালীন হাদিয়া আদালতকে জানান তিনি পড়তে চান, আর তাঁকে এই স্বাধীনতা দেওয়া হোক। আর হাদিয়ার আবেদন অনুযায়ী সেই স্বাধীনতাই দেয় সর্বোচ্চ আদালত। হোমিওপ্যাথির ছাত্রী হাদিয়াকে আবারও বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি করে নেওয়ার কথা জানিয়েছে সুপ্রিমকোর্ট। এজন্য তাঁকে যেমন হস্টোল দেওয়া হবে, তেমনই সমস্তরকমের নিরাপত্তা দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এদিন, আদালতের কাছে হাদিয়া জানিয়েছেন যে , তাঁর বাবা যেহেতু অবসরপ্রাপ্ত, তাই পড়াশুনোর আর্থিক খরচ চালাতে তাঁর স্বামী শফিনের কাছে থেকে তিনি পড়াশুনা করতে চান। তবে তাঁর বিয়ে সম্পর্কীয় যাবতীয় বিষয়ের শুনানি অন্য়দিন হবে বলে হাদিয়াকে আজ জানিয়েছে আদালত।

উল্লেখ্য, শাফিন জাহানকে বিয়ে করে অখিলা অশোকেন থেকে 'হাদিয়া' নাম নিয়ে ধর্ম পরিবর্তন করেন হাদিয়া। যা মেনে নেননি অখিলা ওরফে হাদিরা পরিবার। বিষয়টি নিয়ে চরম আপত্তি ছিল হাদিয়ার পরিবারের। এনিয়ে কেরল হাইকোর্টে মামলার পর, সুপ্রিমকোর্ট পর্যন্ত মামলা গড়ায়। কেরলা হাইকোর্টের রায়কে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে সুপ্রিমকোর্টে যান হাদিয়া জাহান। সেই মামলারই আজ শুনানি হয়।

English summary
The Supreme Court on Monday allowed Hadiya, the woman at the centre of the controversial Kerala love jihad case, to come out of her father's custody to resume her studies at Salem in Tamil Nadu.
Please Wait while comments are loading...

Oneindia - এর ব্রেকিং নিউজের জন্য
সারাদিন ব্যাপী চটজলদি নিউজ আপডেট পান.