• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

মৃত ছেলের সঙ্গে স্বর্গে গিয়ে দেখা হবে, এই আশায় আত্মঘাতী দম্পতি

  • By Ritesh
  • |

গুন্টুর, ৯ জানুয়ারি : মৃত ছেলের সঙ্গে দেখা হবে বলে আত্মহত্যা করে বসলেন এক দম্পতি। ঘটনাটি ঘটেছে অন্ধ্রপ্রদেশের গুন্টুরে। ছেলের মৃত্যুর ঠিক ৪৫ দিন পরে আত্মহুতি দিলেন এই দম্পতি।

জানা গিয়েছে, ওই দম্পতির স্কুলে পাঠরত ছেলে মারা যায়। রবিবার বৈকুণ্ঠ একাদশীর দিন ছেলের মৃত্যুর ৪৫ দিন পরে বাবা-মা একসঙ্গে প্রাণ দিলেন এই আশায় যাতে স্বর্গে গিয়ে ছেলের সঙ্গে দেখা হতে পারে।

মৃত ছেলের সঙ্গে স্বর্গে দেখা হবে, এই আশায় আত্মঘাতী দম্পতি

পরিবারের অন্যান্যদের সূত্রে জানা গিয়েছে, একমাত্র পুত্রের মৃত্যুশোকে কাতর দম্পতি ঘটনার পর থেকেই কারও সঙ্গে যোগাযোগ রাখছিলেন না। একেবারে নিঃসঙ্গ হয়ে পড়েছিলেন। গত দু'সপ্তাহ যাবদ কারও সঙ্গেই প্রায় যোগাযোগ ছিল না। এরপর রবিবার দুজনে গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করেন।

নুনে চন্দ্রশেখর রাও ও নবীনার পুত্র ভামসি কৃষ্ণ মাত্র ১৪ বছর বয়সে মারা যায়। সে নবস শ্রেণির ছাত্র ছিল। ভাইরাল জ্বরে আক্রান্ত হয়ে সে গতবছরের নভেম্বরে মারা যায়। ভামসি স্কুলের হস্টেলে থাকত। প্রায় শয্যাশায়ী অবস্থায় ভাসমি থাকার পরে তার বাবা-মাকে খবর দেওয়া হয়। যদিও পরে তাকে বাঁচানো যায়নি।

চন্দ্রশেখর রাও ও নবীনা ছেলের মৃত্যুর জন্য স্কুল কর্তৃপক্ষের দিকে অভিযোগের আঙুল তুলেছিলেন। স্কুলের বিরুদ্ধে পুলিশ কর্তৃব্য গাফিলতির মামলাও রুজু করে। তবে তারপরে যথারীতি মামলা নিয়ে পুলিশের গড়িমসিতে হাল ছেড়ে দেন এই দম্পতি। পাশাপাশি পুত্রশোকে তাদের তখন বেহাল দশা।

অভিযোগ, এরকম মানসিক অবস্থায় কিছুদিন কাটার পরে অবসাদগ্রস্ত হয়ে পড়েন দুজনে। এরপরই রবিবার বৈকুণ্ঠ একাদশীর দিন স্বর্গে গিয়ে ছেলের সঙ্গে দেখা করতে নিজেদের আত্মহুতি দিয়ে দেন দুজনে।

English summary
In a tragic incident that created a sensation in the city on Sunday, a couple committed suicide exactly 45 days after the sudden death of their lone school-going son.
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X