• search

তিন জঙ্গি সংগঠনের একযোগে প্রশিক্ষণ কাশ্মীরের মাটিতে

Subscribe to Oneindia News
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS
For Daily Alerts

    শ্রীনগর , ২৭ এপ্রিল: তিনটি বড় জঙ্গি সংগঠন একযোগে কাশ্মীরে নাশকতার ছক কষছে। এই খবর সামনে আসতেই নড়েচড়ে বসেছে ভারতের প্রতিরক্ষা বাহিনী। তিনটি বড়সড় জঙ্গি সংগঠনের একযোগে প্রশিক্ষণ শিবিরের ছবি ভিডিও করে, তা পোস্ট করা হয়েছে।

    ভিডিওটিতে দেখানো হয়েছে, হিজাবুল মুজাহিদ্দিন, লস্কর-ঈ-তৈবা, জৈশ-ঈ-মহম্মদ এই তিনটি জঙ্গি সংগঠনের ৩০ জন সদস্য একযোগে প্রশিক্ষণ করছে। চাঞ্চল্যকর বিষয় এটাই যে, তারা প্রত্যেকেই দক্ষিণ কাশ্মীরের মাটিতে এই প্রশিক্ষণ চালাচ্ছে।

    তিন জঙ্গি সংগঠনের একযোগে প্রশিক্ষণ কাশ্মীরের মাটিতে

    ভিডিওর মাধ্যমে ভারতকে বার্তা দেওয়ার পদক্ষেপ গত জুলাই মাস থেকে নিয়েছে জঙ্গি শিবিরগুলি। হিজাবুল মুজাহিদ্দিন সম্পর্কে বলতে গিয়ে সেনার তরফের এক অফিসার বলেন, এর আগে হিজাবুল মুজাহিদ্দিন কাশ্মীরের দক্ষিণ অনন্তনাগে একাধিক হামলা চালায়।

    এছাড়াও ত্রাল, সোপিয়ান এলাকাতেও তারা বেশ সক্রিয় বলে জানান তিনি।পিছিয়ে নেই লস্কর-ঈ-তৈবাও। কাশ্মীরের কুলগাম , কাকাপোরাতে তাদের বেশ প্রভাব রয়েছে বলে সেনা সূত্রের খবর। অন্যদিকে জৈশ-ঈ-মহম্মদও রয়েছে কাশ্মীরের সোপিয়ানে বেশ প্রভাব বিস্তান করেছে।

    গত দুবছরে আগেই প্রায় ৮০ জন দক্ষিণ কাশ্মীর থেকে জঙ্গি সংগঠন হিজাবুলে যোগ দিয়েছে। এদিকে গতকালই সেনা সূত্রে জানা গিয়েছে, কাশ্মীরের ভারত-পাক সীমান্তে প্রায় ১৫০ জন জঙ্গি দেশে ঢোকার জন্য মুখিয়ে রয়েছে। সবমিলিয়ে , এই সমস্ত তথ্য যথেষ্ট চিন্তায় ফেলেছে ভারতীয় সেনাকে।

    English summary
    Security forces are worried about three major militant groups operating together in Kashmir after a video, being circulated on social media, purportedly showed 30 militants of the Hizbul Mujahideen (HM), Lashkar-e-Toiba (LeT) and Jaish-e-Mohammad (JeM) together in south Kashmir.

    Oneindia - এর ব্রেকিং নিউজের জন্য
    সারাদিন ব্যাপী চটজলদি নিউজ আপডেট পান.

    We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Oneindia sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Oneindia website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more