• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

    স্বামী ও দেওরদের গণধর্ষণের শিকার মহিলা, অভিযোগ এই পাশবিক অত্যাচার চলেছে আগেও

    গতবছরে তাঁর ওপর ধর্ষণ হয়েছে, এমন অভিযোগ দায়ের করেছিলেন। লাভ হয়নি। বছর ঘুরতেই আরও একবার ধর্ষণ, এবার গণধর্ষণ। অভিযোগ স্বামী ও দেওরদের বিরুদ্ধে। এই মর্মান্তিক ঘটনা, লুধিয়ানার কৈলাস নগর এলাকার।

    স্বামী ও দেওয়ারদের গণধর্ষণের শিকার মহিলা, অভিযোগ এই পাশবিক অত্যাচার চলেছে আগেও

    মহিলার অভিযোগ, তাঁর স্বামী হ্যাপি ভিজ তাঁকে হুমকি দেয় তিনি যদি একথা কাউকে গিয়ে বলেন তাহলে, আবারও তাঁকে ধর্ষণ করা হবে। মহিলার অভিযোগের ভিত্তিতে মহিলার স্বামী ও দেওর ভিকি ভিজ ও অরুন ভিজের বিরুদ্ধে গণ ধর্ষণ, অপরাধ, অপরাধমূলক প্রবৃত্তি, দুবৃত্তায়নের মতো ধারা প্রয়োগ করা হয়েছে।

    মহিলার অভিযোগ এর আগে লুধিয়ানা পুলিশকে বার বার ধর্ষণের অভিযোগ জানালেও তাতে কোনও কাজ হয়নি। এরপর লুধিয়ানা পুলিশের ডিজিপিকে চিঠি লিখে ঘটনার কথা জানালে, তিনি বিষয়টি নিয়ে উদ্যোগী হন। গ্রেফতার করা হয় অভিযুক্তদের।

    অভিযোগ, ২০১৬ সালে ওই মহিলাকে ধর্ষণ করে হ্যাপি ভিজ । ঘটনার অভিযোগ দায়ের করার পর, মহিলার সঙ্গে বিয়ে করতে বাধ্য হয় হ্যাপি। তবে মহিলার অভিযোগ, বিয়ে করলেও তাকে কোনও দিনও নিজের বাড়িতে রাখেনি হ্যাপি, উপরন্তু অত্যাচার চালাতো তাঁর ওপর।

    English summary
    A woman, who was raped last year, again alleged that she was gangraped by her husband and his two brothers in a factory.She alleged that her husband has also threatened that they will repeat the crime. The Basti Jodhewal police have registered a case under Sections 376-D (gangrape), 120-B (criminal conspiracy), 427 (mischief) and 506 (criminal intimidation) of the IPC against her husband, a resident of Kailash Nagar and his elder brothers Arun Vij and Vicky Vij.
    For Daily Alerts

    Oneindia - এর ব্রেকিং নিউজের জন্য
    সারাদিন ব্যাপী চটজলদি নিউজ আপডেট পান.

    Notification Settings X
    Time Settings
    Done
    Clear Notification X
    Do you want to clear all the notifications from your inbox?
    Settings X
    We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Oneindia sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Oneindia website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more