• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

‌১০০ টাকার নোট অমিল এটিএমে! জানেন এর পিথনে রয়েছে কোন কারণ

পাঁচশো বা দু’‌হাজার টাকার নোট ছাড়া এটিএম থেকে অনেকসময়ই খুচরো একশো টাকা বের হয় না। লক্ষ লক্ষ ভারতীয়দের জন্য ১০০ টাকার নোটটি সর্বাধিক সুবিধাজনক এবং এখন এটির যোগান এটিএম থেকে অনেকটাই কমে গিয়েছে। বর্তমানে প্রচলিতভাবে ১০০ টাকা মূল্যের দুটি পৃথক আকারের নোট রয়েছে।

একশো টাকা কম পাওয়া যাচ্ছে

একশো টাকা কম পাওয়া যাচ্ছে

এটিএমে থাকা ক্যাসেটগুলিতে এই দুই ধরণের নোটকে আলাদাভাবে রাখতে হয়। এটি ব্যাংক এবং এটিএম অপারেটরদের জন্য একটি বেদনাদায়ক বিষয় কারণ তাদের বিভিন্ন প্রকারের নোটগুলি কনফিগার করার জন্য এটিএমগুলির লাইভ তালিকা প্রয়োজন। নোটের প্রাপ্যতা এবং এটিএমের প্রয়োজনীয়তার ভিত্তিতে তাদের ভ্যান রুটের মানচিত্র তৈরি করতে তাদের এই তালিকাটি প্রয়োজন হয়। কখনও কখনও যখন ব্যাংকগুলিতে নতুন ১০০ টাকার নোট পর্যাপ্ত পরিমাণে না থাকে, তখন এটিএমে তা লোড করতে পারে না, যার ফলে এই নোটটি পাওয়া যায় না।

প্রতিদিন চলে জুয়া খেলা

প্রতিদিন চলে জুয়া খেলা

ব্যাংকার এবং এটিএম সরবরাহকারীরা বলছেন, একমাত্র যৌক্তিক সমাধান হল পুরনো নোটগুলি সরিয়ে ফেলা, যাতে কোনও সুযোগেই প্রতিদিন খেলা না খেলে সমস্ত এটিএমই ভারতে লোড করা যায়। এটিএম সরবরাহকারী এনসিআর-এর এমডি নভরোজ দস্তুর বলেন, ‘‌প্রতিদিন বিশৃঙ্খলা হচ্ছে। দেশে ২.৪ লক্ষ এটিএমের জন্য ১০০ টাকার প্রচলিত নগদের ২৫% উপস্থাপন করে। এবং প্রতিদিন আমাদের জন্য জুয়া হয়ে যায় কারণ আমরা জানি না যে আমরা কী নোট পেতে যাচ্ছি।'‌

কম এটিএমে একশো টাকা রয়েছে

কম এটিএমে একশো টাকা রয়েছে

ভারতে ২.৪ লক্ষ এটিএমের মধ্যে মাত্র ২০-২৫% নতুন ১০০ টাকার নোটগুলি পরিচালনা করার জন্য রাখা হয়েছে। অবশিষ্ট এটিএমে পুরনো ১০০ টাকার নোটগুলি ধরে রাখে। এটিএম ব্যবহারকারীর জন্য, এটা অবশ্যই ভাগ্যের ব্যাপার যে তাঁরা কোন এটিএম থেকে ১০০ টাকার নোট পাবেন। হিটাচি ইন্ডিয়ার এমডি রুস্তম ইরানী বলেছেন, ‘‌আরবিআইয়ের ট্রেজারি বুকের কাছ থেকে আমরা নতুন ১০০ টাকার নোটের সামান্য শতাংশ পেয়েছি। একশ টাকার নোটের বেশিরভাগই খুচরা সংগ্রহকদের কাছে চলে যায়। বাজারে একশো টাকার সরবরাহ করা খুবই কঠিন বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে।'‌

অধীর চৌধুরীর দিল্লির বাড়িতে হামলার প্রতিবাদে জেলা কংগ্রেসের বিক্ষোভ
উচ্চ চাহিদা

উচ্চ চাহিদা

প্রতিটি এটিএমে চারটি ক্যাসেট থাকে। বেশিরভাগ অপারেটর বর্তমানে ৫০০ টাকার নোটের জন্য দুটি স্লট চিহ্নিত করে, একটি স্লটে ২০০ টাকা এবং অন্যটিতে ১০০ টাকা। প্রতিটি ক্যাসেটে ২,২০০টি নোট থাকতে পারে। এই সমন্বয়ে ব্যাঙ্কগুলি প্রতিটি এটিএমে ২৮.‌৬ লক্ষ টাকার নোট রাখতে পারে। যেহেতু অ্যাকাউন্টধারীদের মধ্যে ১০০ টাকার নোটের বড় চাহিদা রয়েছে, তাই ব্যাংকের প্রচুর গ্রাহক তাদের নোটের বিনিময় করতে ব্যাঙ্কের দ্বারস্থ হন।

English summary
The cassettes in ATMs housing these two types of notes have to be calibrated differently. This is a pain point for banks and ATM operators as they need a live list of ATMs configured to the different types of notes
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X
We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Oneindia sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Oneindia website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more