২৬/১১ -এর রক্তাক্ত স্মৃতি বুকে নিয়ে গোটা দেশ শ্রদ্ধা জানাল নিহতদের প্রতি

  • Posted By:
Subscribe to Oneindia News
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS
For Daily Alerts

    ৯ বছর কেটে গিয়েছে কিন্তু তাতও ২৬/১১ এর মুম্বই হামলার ঘটনার মূলচক্রীদের নিরাপদ আশ্রয় দিয়ে চলেছে পাকিস্তান। আজও আরেকটি ২৬/১১ , আর প্রতি বছরের মতে এই দিনটির ভয়ঙ্কর স্মৃতি আজও তাড়া করে বেড়াচ্ছে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের ভারতীয়কে। সেই দিনের কথা স্মরণ করে আজ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী শ্রদ্ধা জানান এই হামলার নিহতদের।

    ২৬/১১ -এর রক্তাক্ত স্মৃতি বুকে নিয়ে গোটা দেশ শ্রদ্ধা জানাল নিহতদের প্রতি

    [আরও পড়ুন:২৬/১১ এর সেই অভিশপ্ত দিনের ঘটনা থেকে জঙ্গি কাসাবের পরিণতির তথ্য জানুন টাইমলাইনে]

    প্রধানমন্ত্রী ছাড়াও আজ রাষ্ট্রপতি রমানাথ কোবিন্দ ওই অভিশপ্ত দিনটিকে স্মরণ করে নিহতদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাবার পাশাপাশি নিহত নিরাপত্তাকর্মী ও পুলিশ অফিসারদের প্রতিও শ্রদ্ধাজ্ঞাপন করেন।

    রাষ্ট্রপতির পাশাপাশি কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি জানান, ২৬/১১ এর ঘটনা একটি কাপুরুষোচিত ঘটনা। সকলকে তিনি এক যোগে সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে লড়ার আহ্বান জানান। এছাড়াও সেদিনের ঘটনায় শহীদ হওয়া দেশের বীর পুলিশ কর্মী ও নিরাপত্তা কর্মীদের প্রতিও তিনি সম্মান জানান। কেন্দ্রীয়মন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদও এদিন সোশ্যাল মিডিয়ায় দিনটিকে স্মরণ করে একটি ভিডিও পোস্ট করেন।

    [আরও পড়ুন:২৬/১১ এর মুম্বই হামলার সঙ্গে এক রহস্যময়ী মহিলার যোগ নিয়ে এক সময়ে ধন্ধে পড়েন তদন্তকারীরা]

    English summary
    Paying his tribute to the victims of 2008 Mumbai terror attack, President Ram Nath Kovind wrote on Twitter, "On the ninth anniversary of the Mumbai terror attacks, we mourn with the families that lost their dear ones. And we recall with gratitude the security personnel who gave their lives in the battle against evil."

    Oneindia - এর ব্রেকিং নিউজের জন্য
    সারাদিন ব্যাপী চটজলদি নিউজ আপডেট পান.

    We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Oneindia sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Oneindia website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more