• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts
Oneindia App Download

বৃষ্টিতে বিপুল ধস মণিপুরের সেনা ক্যাম্পে, মৃত ৬

Google Oneindia Bengali News

মণিপুরের ননীতে আর্মি ক্যাম্পে নামল ব্যাপক ভূমিধস। ঘটনায় ৬ জন মারা গিয়েছে। ১৩ জনকে উদ্ধার করা হয়েছে। ৫০ জনেরও বেশি নিখোঁজ হয়ে গিয়েছে বলে খবর মিলছে। বিশাল এই ভূমিধসের পরে উদ্ধার অভিযান শুরু হয়েছে ভারতীয় সেনাবাহিনীর ১০৭ টেরিটোরিয়াল আর্মির ক্যাম্পে।

কতজনকে উদ্ধার করা হয়েছে ?

কতজনকে উদ্ধার করা হয়েছে ?

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত সেখান থেকে এখনও পর্যন্ত মোট ১৩ জনকে উদ্ধার করা হয়েছে। মণিপুরের মুখ্যমন্ত্রী এন বীরেন সিং, টুইটারে বলেছেন যে তিনি পরিস্থিতি মূল্যায়ন করতে একটি জরুরি বৈঠক ডেকেছেন। সংবাদ সংস্থা এএনআই জানিয়েছে, বৃহস্পতিবার ননী জেলার টুপুল রেলওয়ে স্টেশনের কাছে অবস্থিত ভারতীয় সেনাবাহিনীর ১০৭ টেরিটোরিয়াল আর্মির কোম্পানির ক্যাম্পে একটি বিশাল ভূমিধসের পরে এখন উদ্ধার অভিযান চলছে বলে জানা গিয়েছে।

কী বলছেন কর্মকর্তারা ?

কী বলছেন কর্মকর্তারা ?

কর্মকর্তারা বলছেন , "মোট ১৩ জনকে উদ্ধার করা হয়েছে। আহত ব্যক্তিদের ননি আর্মি মেডিকেল ইউনিটে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। গুরুতর আহত কর্মীদের সরিয়ে নেওয়ার কাজ চলছে," এ পর্যন্ত ৫৩ জনেরও বেশি ব্যক্তি নিখোঁজ এবং ৬টি মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে বলে খবর মিলছে। জেলা প্রশাসকের কার্যালয় ননীএ সাধারণ জনগণকে তাদের নিজস্ব সতর্কতা অবলম্বন করতে বলেছে এবং শিশুরা যাতে নদীর ধারে না যায় তা নিশ্চিত করার পরামর্শ দিয়েছে। ঘটনার জেরে একাধিক রাস্তা বন্ধ হয়ে গিয়েছে। এর ফলে যাত্রীদের হাইওয়ে - ৩৭ রোড দিয়ে না যাওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

মণিপুরের মুখ্যমন্ত্রী কী বলছেন ?

মণিপুরের মুখ্যমন্ত্রী কী বলছেন ?

মণিপুরের মুখ্যমন্ত্রী এন বীরেন সিং টুইটারে বলেছেন যে তিনি টুপুল টোডায় ভূমিধসের পরিস্থিতি মূল্যায়ন করতে একটি জরুরি বৈঠক ডাকা হয়েছে। "অনুসন্ধান ও উদ্ধার অভিযান ইতিমধ্যেই চলছে। আসুন আজ তাদের প্রার্থনা করি। অপারেশনে সহায়তা করার জন্য ডাক্তারদের সাথে অ্যাম্বুলেন্সও পাঠানো হয়েছে," তিনি টুইট করেছেন।

ভাড়ি বৃষ্টি

ভাড়ি বৃষ্টি

চলছে ভারী বর্ষণ। এই দুর্যোগের জেরে ফের ধস নামতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। এমন পরিস্থিতিতে উদ্ধারকাজ চালানো কঠিন হয়ে পড়ছে। এদিকে ধসের নিচে আটকে পড়ে রয়েছে অনেকে। ঘটনাস্থলে রয়েছে সেনা বাহিনীর হেলিকপ্টার।

এদিকে, অসম রাজ্য দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষ (এএসডিএমএ) শনিবার জানিয়েছিল যে অসমের সামগ্রিক বন্যা পরিস্থিতির উন্নতি হয়েছে কিন্তু রাজ্যের প্রাকৃতিক দুর্যোগের কারণে ২৮টি জেলার ৩৩.০৩ লাখেরও বেশি মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত রয়ে গেছে। এএসডিএমএ অনুসারে, এই বছর রাজ্যে বন্যা ও ভূমিধসের কারণে মোট ১১৭ জন প্রাণ হারিয়েছে; যার মধ্যে ১০০ জন একা বন্যায় মারা যায়, বাকি ১৭ জন ভূমিধসে মারা যায়।

জানা গিয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় শনিবার বন্যার জলে ডুবে চার শিশুসহ অন্তত ১০ জনের মৃত্যু হয়েছে।প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে যে শুধুমাত্র বারপেটা জেলায় ৮.৭৬ লাখ মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে, তারপরে নগাঁওতে ৫.০৮ লাখ, কামরুপে ৪.০১ লাখ, কাছাড়ে ২.২৬ লাখ, করিমগঞ্জে ২.১৬, ধুবরিতে ১.৮৪ লাখ এবং ১.৭০ লাখ মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন। উল্লেখযোগ্যভাবে, রাজ্যের ৯৩টি রাজস্ব বৃত্তের অধীনে ৩৫১০টি গ্রাম এবং প্রায় ৯১,৭০০ হেক্টর ফসলি জমি এখনও বন্যার জলের নিচে ডুবে আছে। রাজ্যের ২২টি জেলার প্রশাসনের দ্বারা স্থাপিত ৭১৭ টি ত্রাণ শিবিরে বন্যার জলে ক্ষতিগ্রস্ত ২লক্ষ ৬৫ হাজার ৭৬৬ জন লোক এখনও আটক রয়েছে বলে জানাচ্ছে এএসডিএমএ রিপোর্ট করেছে।

ছবি সৌ:ইউটিউব

অবশেষে মুম্বইয়ে পা রাখলেন একনাথ শিন্ডে, ফড়নবীশের সঙ্গে বৈঠক সেরেই রাজ্যপালের সঙ্গে দেখাঅবশেষে মুম্বইয়ে পা রাখলেন একনাথ শিন্ডে, ফড়নবীশের সঙ্গে বৈঠক সেরেই রাজ্যপালের সঙ্গে দেখা

English summary
manipur army territory landslide cause six death
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X