• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

চিন-ভারত সংঘর্ষের আবহেই ৩০০টি পণ্যের উপর বসতে পারে বাড়তি আমদানি শুল্ক

  • |

লাদাখ সংঘর্ষের উত্তাপ ক্রমেই ছড়িয়ে পড়ছে দেশীয় বাজারে। ইতিমধ্যেই ভারতের ব্যবসায়ী সংগঠন কনফেডারেশন অফ অল ইন্ডিয়া ট্রেডার্স বা সিএআইটি প্রায় ৫০০টি চিনা পণ্য বয়কটের ডাক দিয়েছে। ইতিমধ্যেই চিনা পণ্য বয়কটের ডাক দিয়ে দেশব্যাপী আন্দোলনে নেমেছে ৭ কোটি স্থানীয় ব্যবসায়ীদের এই সংগঠন। এমতাবস্থায় সরকারি সূত্র মতে ভারতের বাজারে চিনের অবাধ বিচরণ রুখতে আরও নতুন পরিকল্পনা করছে সরকার।

চিন-ভারত সংঘর্ষের আবহেই ৩০০টি পণ্যের উপর বসতে পারে বাড়তি আমদানি শুল্ক

সূত্রের খবর, আগামীতে আরও প্রায় তিনশোটি প্রয়োজনীয় পণ্যের উপর অতিরিক্ত আমদানি শুল্ক চাপাতে চলেছে ভারত। চিন ছাড়াও অন্যান্য দেশ থেকে এই পণ্য গুলি আনলে বাড়তি কর চাপাতে বলে জানিয়েছেন নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক দুই সরকারি আধিকারিক। আত্মনির্ভর ভারত গড়তে ও অর্থনৈতিক মজবুতির জন্য এপ্রিল থেকেই এই পরিকল্পনা চলছিল বলে জানা যাচ্ছে। বর্তমানে চিন-ভারত সংঘাতের আবহে তা আরও দ্রুত বাস্তবায়ন হতে পারে বলে খবর।

পরবর্তী তিন মাসের মধ্যে নতুন শুল্ক কাঠামোগুলির রূপরেখা ধীরে ধীরে প্রকাশ্যে আনার সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানা যাচ্ছে। দেশের অর্থ ও বাণিজ্য মন্ত্রকে এই বিষয়ে চূড়ান্ত পর্যালোচনা চলছে বলেও জানা যাচ্ছে। সূত্রের খবর, নিম্ন মানের পণ্যের আমদানি রোধে প্রাথমিক ভাবে ৮০০ থেকে ১০০০ হাজার কোটি টাকার আমদানির উপর নজর দেওয়া হচ্ছে বলে খবর। যার জেরে দেশীয় পণ্যের চাহিদা দেশীয় বাজারে আরও বাড়বে বলে মনে করা হচ্ছে। সরকার বর্তমানে ১৬০-২০০টি পণ্যের উপর আমদানি শুল্ক অনেকাংশেই বাড়ানোর পরিকল্পনা করছে। পাশাপাশি ১০০টি পণ্যে আমদানির ক্ষেত্রে লাইসেন্সের প্রয়োজনীয়তা, কঠোর ভাবে গুণমান পরীক্ষা সহ একাধিক বিধিনিষেধ আরোপ করতে পারে।

শহীদ পরিবারের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে হলে বদলা চাই, মন্তব্য সোমেন মিত্রের

চৈনিক আগ্রাসনের প্রতিবাদ, বদলে যাচ্ছে শিলিগুড়ির হংকং মার্কেটের নাম

English summary
The government plans to impose additional import duties on 300 products
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X