• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

অসমের ডিটেনশন সেন্টারের নয়া চাঞ্চল্যকর তথ্য! মৃতের সংখ্যা জানালেন খোদ কেন্দ্রীয় মন্ত্রী

  • |

দেশে কোনও ডিটেনশন সেন্টার নেই বলে দিল্লি নির্বাচনের আগে রামলীলা ময়দান থেকে দাবি করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। আর তার পর কয়েক মাস কাটতেই সেই নরেন্দ্র মোদীর মন্ত্রিসভার সদস্য তথা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের প্রতিমন্ত্রী নিত্যানন্দ রাই প্রকাশ্যে আনলেন নয়া তথ্য। এর আগে সংসদে তৃণমূল সংসদ নুসরতের প্রশ্নের জবাবেও ডিটেনশন সেন্টার নিয়ে একের পর এক তথ্য জানাতে বাধ্য হয় সরকার।

গত ৩ বছরে অসমের ডিটেনশন সেন্টারের পরিস্থিতি

গত ৩ বছরে অসমের ডিটেনশন সেন্টারের পরিস্থিতি

রাজ্যসভায় মন্ত্রী নিত্যানন্দ রাই জানান, অসম সরকারের তরফে দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, অসমের ডিটেনশন সেন্টারে ৭৯৯ জন ২০২০ সালের ফেব্রুয়ারি মাস পর্যন্ত রয়েছেন। যাঁদের মধ্যে ৯৫ জন গত ৩ বছর ধরে ওই ডিটেনশন সেন্টারেই রয়েছেন। এমন হাড়হিম করা তথ্য ঘিরে স্বভাবতই উঠছে চাঞ্চল্য।

অসমের ডিটেনশন সেন্টার নিয়ে নুসরতের প্রশ্ন

অসমের ডিটেনশন সেন্টার নিয়ে নুসরতের প্রশ্ন

এর আগে , সংসদে অসমের ডিটেনশন সেন্টার নিয়ে প্রশ্ন তোলেন তৃণমূল সাংসদ নুসরত। তার জবাবে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী কিষেণ রেড্ডি জানান, অসমে তেজপুর, শিলচর, গোয়ালপাড়া, কোকরাঝাড়, জোরহাট, ডিব্রুগড়ে রয়েছে ডিটেনশন সেন্টার।

নুসরতের সওয়াল এনআরসি ও ডিটেনশন সেন্টার নিয়ে

নুসরতের সওয়াল এনআরসি ও ডিটেনশন সেন্টার নিয়ে

তৃণমূল সাংসদ নুসরতের প্রশ্নবাণ যায় ডিটেনশন সেন্টারে কাদের রাখা হয়েছে , তা নিয়ে। কেন্দ্রের তরফে জানানো হয়, এনআরসি সংক্রান্ত কাউকেই ডিটেনশন সেন্টারে রাখা হয়নি। অসমে এনআরসি নিয়ে কোনও ডিটেনশন সেন্টার নেই বলে জানান মন্ত্রী। তিনি জানান, বিভিন্ন কারমে দোষী সাব্যস্ত 'বিদেশী' দের এই ডিটেনশন সেন্টারে রাখা হয়েছে।

 গত ৩ বছরে মৃতের সংখ্যা কত?

গত ৩ বছরে মৃতের সংখ্যা কত?

এদিকে , আজ কেন্দ্রীয় মন্ত্রী নিত্যানন্দ রাই জানিয়েছেন, গত ৩ বছরে অসমের ডিটেনশন সেন্টারে মৃতের সংখ্য়া ২৬ জন। এঁদের মৃত্যু কীভাবে হয়? এমন কৌতূহলের জবাব দিতে গিয়ে মন্ত্রী জানান, অসুস্থতার জেরে এই ২৬ জনের মৃত্যু হয়েছে।

 অসমে ৬ টি ডিটেনশন সেন্টার সম্পর্কে তথ্য

অসমে ৬ টি ডিটেনশন সেন্টার সম্পর্কে তথ্য

কেন্দ্রের তরফে এর আগে জানানো হয়েছে, অসমে মোট ৬ টি ডিটেনশন সেন্টার রয়েছে। সেখানে ৩,৩৩১ জনকে রাখার বন্দোবস্ত করা হয়েছে। এই ৬টি ডিটেনশন সেন্টার ছাড়াও মাতিয়া ও গেয়ালপাড়ায় আরও ডিটেনশন সেন্টার তৈরির কাজ চলছে বলে জানা যায়।

প্রতীকী ছবি

English summary
In Assam Detention centres 26 people died in 3 years, says minister
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X