• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

এক জনকে বাঁচাতে গিয়ে জলে ডুবে মৃত পরিবারের পাঁচ সদস্য

Google Oneindia Bengali News

এক জনকে বাঁচাতে গিয়ে পুরো পরিবার তলিয়ে গেল জলে। এক জনকেও বাঁচানো যায়নি। মর্মান্তিক এই ঘটনা ঘটেছে মহারাষ্ট্রে। জানা গিয়েছে ওই পরিবারে ছিল তিন শিশু এবং ছিল ঠাকুমা ও মা। এরা সবাই একসঙ্গে ডুবে মারা গিয়েছে বলে খবর মিলেছে।

এক জনকে বাঁচাতে গিয়ে জলে ডুবে মৃত পরিবারের পাঁচ সদস্য

শনিবার থানে জেলার ডোম্বিভালিতে কাপড় ধোয়ার সময় জলভর্তি জলাশয়ে ডুবে তিন শিশু সহ এক পরিবারের পাঁচ সদস্যের মৃত্যু হয়েছে। দুর্ঘটনাবশত জলাশয়ে পড়ে যাওয়া শিশুটিকে বাঁচাতে ঝাঁপিয়ে পড়ে অন্য চার সদস্য ডুবে যায়। মীরা গায়কওয়াড় (৫৫), তার পুত্রবধূ অপেক্ষা (৩০), এবং নাতি ময়ুরেশ (১৫), মোক্ষ (১৩), এবং নীলেশ (১৫) জলের অভাবের কারণে তাদের কাপড় ধোয়ার জন্য বিকেল ৪ টার দিকে জলাশয়েতে গিয়েছিল। তাদের গ্রামে, দেশলেতে বলে জানা গিয়েছে।

পুলিশ কর্মকর্তা জানিয়েছেন , "একজন মহিলা এবং তার পুত্রবধূ কোয়ারির কাছে কাপড় ধুচ্ছিলেন, তখন পাশে বসে থাকা মহিলার তিন নাতি-নাতনির মধ্যে একজন দৃশ্যত পানিতে পড়ে যায়। বাকি চারজন শিশুটিকে উদ্ধার করার চেষ্টা করলেও তারা সবাই ডুবে যায়।"

গ্রামে জলের অভাবের কারণে গ্রামবাসীরা কাপড় ধোয়ার মতো কাজের জন্য কোয়ারিটি ব্যবহার করে। জানা গেছে, শনিবারও গ্রামে জল সরবরাহ ছিল না। ফায়ার ব্রিগেড পাঁচটি মৃতদেহকে কোয়ারি থেকে বের করে। মৃতদেহগুলি এখন ময়নাতদন্তের জন্য একটি সরকারি হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে, রিপোর্টে বলা হয়েছে।

অশনির আশঙ্কায় ধান কেটে ফেলার নির্দেশ দিল নবান্ন

২ মে টোনিকাদাভুতে পায়স্বিনী হ্রদ থেকে তিনজনের ডুবে যাওয়ার খবর পাওয়া যায়। মৃতদের নাম নিথিন (৩৮), তাঁর স্ত্রী দীক্ষা (৩০) এবং তাঁর আত্মীয় মনীশ (১৬)৷ বিকাল ৩টার দিকে দীক্ষা হ্রদে নেমে ঘূর্ণিতে ধরা পড়লে এই ঘটনা ঘটে। তাকে উদ্ধার করার জন্য, অন্য দু'জন হ্রদে ঝাঁপ দেয় এবং তাদের সকলেই একটি জলাবদ্ধ কবরের সাথে দেখা করে। পুলিশ, ফায়ার সার্ভিস ও স্থানীয়দের কয়েক ঘণ্টা তল্লাশির পর ডুবে যাওয়া মরদেহ উদ্ধার করা সম্ভব হয়।

নিথিন কয়েকদিন আগে উপসাগর থেকে ফিরেছিল এবং তাদের মধ্যে নয়জন বিকেলে লেকে গিয়েছিল। নিতিন ও তার স্ত্রী দীক্ষা জলে নামেন। তার স্ত্রীকে উদ্ধারের সর্বাত্মক প্রচেষ্টা সত্ত্বেও নিথিন তাকে ডুবে যাওয়া থেকে রক্ষা করতে পারেনি। মণীশও তাদের দুজনকে বাঁচাতে লেকে ঝাঁপ দেন। তারা সবাই সাহায্যের জন্য চিৎকার করলে স্থানীয়রা তাদের উদ্ধারে এগিয়ে আসে কিন্তু ব্যর্থ হয়। সন্ধ্যা ৬টার দিকে নিমজ্জিত মরদেহ উদ্ধার করে কাসারগোদ জেনারেল হাসপাতালের মর্গে হস্তান্তর করা হয়।

English summary
five members of a family drowned in a water-filled quarry
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X