• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

সুশান্ত কণ্ডে ‌‌এনসিবির তদন্তের ওপর ভিত্তি করে নতুন মামলার পথে ইডি

সুশান্ত সিং রাজপুতেরর মৃত্যু কাণ্ডে এনফোর্,মেন্ট ডিরেক্টরেট বা ইডি অর্থ তছরূপের বিষয়টি খতিয়ে দেখছিল। তাদেরই তদন্তে এই ঘটনার মূল অভিযুক্ত রিয়া চক্রবর্তীর সঙ্গে মাদক যোগ উঠে আসে। ইডির সুপারিশ করা চিঠির ভিত্তিতে নার্কোটিক্স ব্যুরো এই ঘটনার তদন্ত শুরু করে এবং রিয়াকে গ্রেফতার করে। সূত্রের খবর, এনসিবির তদন্তের ওর ভিত্তি করে ইডি খুব শীঘ্রই আরও একটি মামলা দায়ের করতে চলেছে এই সুশান্ত কাণ্ডে।

ইডি অর্থ তছরূপের মামলা তদন্ত করছে

ইডি অর্থ তছরূপের মামলা তদন্ত করছে

মঙ্গলবারই এনসিবি রিয়া চক্রবর্তীকে গ্রেফতার করে। প্রসঙ্গত, সুশান্তের বাবা কে কে সিং বিহার পুলিশের কাছে টাকা আত্মসাতের অভিযোগ দায়ের করেছিল। সেই অভিযোগের ওপর ভিত্তি করে ইডি গত ৩১ জুলাই অর্থ তছরূপের মামলা দায়ের করে। সুশান্তের বাবা বিহার পুলিশের কাছে করা অভিযোগে জানিয়েছিলেন যে তাঁর প্রয়াত ছেলের অ্যাকাউন্ট থেকে ১৫ কোটি টাকা তোলা হয়, এমন একজন সেই টাকা তোলে যার সঙ্গে পরিবারের কোনও যোগ নেই। ইডির এক শীর্ষ কর্তা জানিয়েছেন যে এনসিবির তদন্তের ওপর ভিত্তি করে ইডি সমস্ত দিক বিবেচনা করে অর্থ তছরূপের নতুন মামলা দায়ের করতে চলেছে। ওই কর্মকর্তা জানয়েছেন যে এনডিপিএস আইনে এনসিবি মামলা দায়ের করায় নতুন মামলা নথিভুক্তের জন্য আর্থিক তদন্তকারী সংস্থা এর বৈধতা বোঝার জন্য আইনী সহায়তা নিচ্ছে।

এনসিবির তদন্তের ভিত্তিতে নতুন মামলা

এনসিবির তদন্তের ভিত্তিতে নতুন মামলা

ইডি সূত্রের খবর, ‘‌এর আগে আমরা যে মামলাটি দায়ের করেছিলাম তা কে কে সিংয়ের অভিযোগের ভিত্তিতে। যেটি অর্থ তছরূপের মামলা ছিল এবং যার সঙ্গে সুশান্তের অ্যাকাউন্টের সম্পর্ক ছিল। কিন্তু নতুন মামলাটি এনসিবির তদন্তের ভিত্তিতে দায়ের করা হবে, ইতিমধ্যেই এনসিবি বেশ কয়েকজনকে গ্রেফতার করেছেন।'‌

 এনসিবির তদন্তের নথি খতিয়ে দেখবে ইডি

এনসিবির তদন্তের নথি খতিয়ে দেখবে ইডি

ইডি এছাড়াও মাদক পাচার ও মাদক ক্রয়ের ক্ষেত্রে অর্থ তছরূপের বিষয়টির তদন্তে জোর দেবে। এর পাশাপাশি মাদক বিক্রয়, কেনা ও পাচারে ফলে যে অর্থ উপার্জন হয়েছে তা নতুন মামলায় অপরাধ হিসাবে গণ্য করা হবে। ইডির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, ‘‌আমরা এনসিবির তদন্তের প্রতিলিপি নেব এবং তা খতিয়ে দেখব। ওই নথি দেখার পরই আমরা নতুন মামলা দায়ের করব কিনা তার সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।'‌

সুশান্ত ঘটনার তদন্তে তিন তদন্তকারী সংস্থা

সুশান্ত ঘটনার তদন্তে তিন তদন্তকারী সংস্থা

গত ১৪ জুন বান্দ্রার ফ্ল্যাট থেকে উদ্ধার হয় সুশান্তের ঝুলন্ত দেহ। এনসিবি ইতিমধ্যেই রিয়া, তাঁর ভাই শৌভিক ও গোয়ার হোটেল মালিক গৌরব আর্য, ট্যালেন্ট ম্যানেজার জয়া সাহা ও সুশান্তের বাড়ির ম্যানেজার স্যামুয়েল মিরান্ডা সহ অন্যান্যদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে। এনসিবির পাশাপাশি এই ঘটনার তদন্ত করছে ইডি ও সিবিআই। এনসিবি রিয়া সহ তাঁর ভাই শৌভিক ও স্যামুয়েলকে গ্রেফতার করেছে।

কঙ্গনার বিরুদ্ধে মানহানির মামলা ! পাল্টা উদ্ধব শিবিরকে 'সোনিয়া সেনা' তকমা অভিনেত্রীর

English summary
ed likely to register fresh case on sushant case bases of ncb findings
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X