• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

মন্দিরের ১৫ বিঘা জমি নিয়ে বিবাদ, রাজস্থানে জীবন্ত জ্বালিয়ে দেওয়া হল পুরোহিতকে

‌জমি সংক্রান্ত বিবাদের জেরে এক মন্দিরের পুরোহিতকে জীবন্ত জ্বালিয়ে হত্যা করল পাঁচ দুষ্কৃতী। মর্মান্তিক এই ঘটনা ঘটেছে রাজস্থানের কারাউলি জেলায়। শুক্রবার এই ঘটনার কথা জানায় পুলিশ। এই ঘটনার মূল অভিযুক্ত কৈলাশ মিনাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ এবং বাকিদের খোঁজে তল্লাশি অভিযান চলছে।

মুখ্যমন্ত্রী টুইটে এই ঘটনার নিন্দা করেন

মুখ্যমন্ত্রী টুইটে এই ঘটনার নিন্দা করেন

এই ঘটনার তীব্র সমাসোচনা করেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী অশোক গেহলট। তিনি টুইট করে বলেন, ‘‌বাবু লাল বৈষ্ণবের মৃত্যু দুর্ভাগ্যজনক এবং নিন্দনীয়। আমরা এ ধরনের ঘটনা এখানে বরদাস্ত করব না। মৃতর পরিবারের পাশে রয়েছে রাজ্য সরকার। প্রধান অভিযুক্ত গ্রেফতার হয়েছে এবং ঘটনার তদন্ত চলছে। দোষীদের রেহাই দেওয়া হবে না।'‌ সাংবাদিকদের সামনে কারাউলি পুলিশ জানিয়েছে যে বাবু লাল বৈষ্ণব আগেই পুলিশের কাছে মিনা ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে অভিযোগ এনেছিলেন যে তারা বুকনা গ্রামের রাধা গোপাল মন্দিরের ১৫ বিঘা জমি আত্মসাৎ করার চেষ্টা করছে। বৈষ্ণব এবং তাঁর পরিবার এই মন্দিরের পুরোহিত এবং এই জমির তদারকও। প্রসঙ্গত, এ জাতীয় জমিগুলিকে রাজস্থানে 'মন্দির মাফি' বলা হয়। যা পুরোহিতদের আয়ের একটি অন্যতম উৎস।

জীবন্ত জ্বালিয়ে দেওয়া হয়

জীবন্ত জ্বালিয়ে দেওয়া হয়

পুলিশ জানিয়েছে, বুধবার সকালে বৈষ্ণবের সঙ্গে মিনা ও তার সহকারিদের বচসা বাঁধে মন্দির সংলগ্ন পাহাড়ে কিছু নির্মাণ কাজকে কেন্দ্র করে। এরপর অভিযুক্তরা ৬০ বছরের বৃদ্ধর শরীরে আগুন ধরিয়ে দেয়। গুরুতর আহত অবস্থায় পুরোহিতকে জয়পুরের এসএমএস হাসপাতালে ভর্তি করা হয়, বৃহস্পতিবার মারা যান তিনি।

 জমিটি সরকারের

জমিটি সরকারের

পুলিশের এক আধিকারিক বলেন, ‘‌প্রাথমিক তদন্তে উঠে এসেছে যে ওই বিতর্কিত জমিটি সরকারের। মনা সহ পাঁচজনের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের হয়েছে।'‌ বাকি অভিযুক্তদের খোঁজার জন্য পুলিশ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। তবে মৃত্যুর আগে দেওয়া জবানবন্দিতে পুরোহিত মিনাসহ ৫ অভিযুক্তদের নাম জানিয়ে গেছেন। ঘটনার ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই মূল অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে রাজস্থান পুলিশ।

বিজেপির কটাক্ষ

বিজেপির কটাক্ষ

এই ঘটনা নিয়ে রাজ্যের কংগ্রেস সরকারকে কটাক্ষ করতে ছাড়ে না বিরোধী দল বিজেপি। রাজস্থানে অপরাধ বেড়ে যাওয়ার জন্য সরকারকে দায়ি করে তারা। প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বসুন্ধরা রাজে টুইট করে বলেন, ‘‌রাজ্যে যেভাবে অপরাধ বেড়ে চলেছে তাতে এটা স্পষ্ট যে মহিলা, শিশু, বৃদ্ধ, দলিত, ব্যবসায়ী কেউ সুরক্ষিত নয় এই রাজ্যে। রাজ্যের কংগ্রেস সরকারের গভীর ঘুম থেকে এবার উঠে পড়া উচিত এবং অভিযুক্তদের জন্য কড়া শাস্তির ব্যবস্থা করুক এবং পরিবারকে বিচার পাইয়ে দিক।'‌

কলকাতাঃ নবান্ন অভিযান সফল দাবি দিলীপের, ২৪ জন নেতাকে মামলায় ফাঁসানো হয়েছে মন্তব্য দিলীপের

'মা-মাটি নয়, রাজ্যে আসলে মানি-মাফিয়ার সরকার চালাচ্ছেন মমতা’, বেনজির আক্রমণে নিশীথ

English summary
dispute over 15 bighas of temple land priest was burnt alive in rajasthan
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X