• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

কলকাতার পর দেশের এই রাজ্যকে 'লন্ডন' বানানোর ঘোষণা সেরাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর!

নয়াদিল্লি, ৬ মার্চ : বিরোধী দলনেত্রী থাকাকালীনই কলকাতাকে লন্ডন বানানোর ঘোষণা করেছিলেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেইসময়ে অনেকেই তা নিয়ে তীব্র শ্লেষ করেছিলেন। তৃণমূলের ব্যাখ্যা ছিল লন্ডন শব্দটিকে একটি রূপক হিসাবে ব্যবহার করা হয়েছিল। আসলে শহরের সার্বিক উন্নয়নের কথাই বলেছিলেন মমতা।[প্রার্থী হতে চাইলে শুধু একটা ফোন করুন, পোস্টার পড়ল পূর্ব মেদিনীপুরে]

এবার প্রায় একই পথে হেঁটে দিল্লির আম আদমি সরকারের মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল ঘোষণা করলেন, যদি আম আদমি পার্টি দিল্লি পুর নির্বাচনে ক্ষমতা দখল করে তাহলে আগামী এক বছরের মধ্যে দিল্লি শহরকে লন্ডনের সমতুল্য করে তুলবেন।

কলকাতার পর দেশের এই রাজ্যকে 'লন্ডন' বানানোর ঘোষণা সেরাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর!

তবে এসবের মধ্যেও বিজেপিকে আক্রমণের রাস্তা থেকে সরেননি কেজরিওয়াল। পুর নির্বাচনের প্রেক্ষিতে বিজেপির পাশাপাশি কংগ্রেসকেও কড়া নিশানা করেছেন তিনি। শীলা দীক্ষিতের নেতৃত্বের পরপর তিনবার কংগ্রেস সরকার দিল্লির দায়িত্বে থাকলেও উন্নয়নের প্রশ্নে অনেককিছুই আটকে রয়েছে বলে কেজরির অভিযোগ।

দিল্লির উত্তম নগর এলাকায় এক অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে কেজরিওয়াল বলেন, "দিল্লি পুরসভা নিজেদের দেওয়া কথা রেখে শহরকে পরিচ্ছন্ন করতে পারেনি। বিরোধীরা বলেন, আমি খুব হল্লা করি। আপনারাই বলুন এটা করে কি আমি ভুল করি?" এরপরই কেজরিওয়াল বলেন, দিল্লি বিধানসভায় আমাদের সংখ্য়াগরিষ্ঠতা দিয়েছেন মানুষ। এবার পুরসভাতেও ২৭২টি আসনেও আপকে ক্ষমতায় আনুন। যদিও আপ ক্ষমতায় আসে তাহলে দিল্লির চেহারা পাল্টে দেব, কথা দিচ্ছি।

lok-sabha-home
English summary
In a highly emotive politically-charged speech, chief minister Arvind Kejriwal on Sunday promised to give the city's civic management a makeover and make it "comparable to London within just one year if AAP wins the municipal polls" that are likely to be held in April.
For Daily Alerts

Oneindia - এর ব্রেকিং নিউজের জন্য
সারাদিন ব্যাপী চটজলদি নিউজ আপডেট পান.

Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X
We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Oneindia sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Oneindia website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more