• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

চাপের মধ্যেও রাজ্যসভা নির্বাচনের জন্য কোমর বাঁধছে কংগ্রেস

Google Oneindia Bengali News

রাজ্যসভায় অনেকগুলি পদ খালি হয়ে গিয়েছে। তাই সেই পদগুলির জন্য এবার নির্বাচন হবে। সেই নির্বাচন জবে আগামী মাসে। মে মাস শেষ হতে আর দিন চারেক বাকি তাই দলগুলিওর মধ্যে আসন্ন রাজ্যসভা নির্বাচনের জন্য প্রস্তুতি তুঙ্গে। কংগ্রেসের অবস্থা খারাপ হলেও তারা তাদের আসনগুলি ধরে রাখার চেষ্টা করবে। সঙ্গে থাকবে তাদের ইউপএ'র দলগুলি। তারাও রাজ্যসভায় অনেকগুলি আসন পাবেন। সূত্রের খবর বলছে যে কারা কংগ্রেসের পক্ষে রাজ্যসভায় যাবেন তাদের নাম গিয়েছে রাহুল গান্ধীর কাছে। তিনি অনুমোদন দেওয়ার পরে তালিকাটি চূড়ান্ত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। আগামী ৩০ মে এই তালিকা হউএ যাবে বলে জানা গিয়েছে।

রাজ্যসভায় কী অবস্থা কংগ্রেস ও ইউপিএ'র

রাজ্যসভায় কী অবস্থা কংগ্রেস ও ইউপিএ'র


৫৭টি আসনের মধ্যে প্রায় এগারোটি আসন ১৫টি রাজ্যে কংগ্রেস নেতাদের দখলের জন্য রয়েছে যেখানে ১০ জুন ভোট হবে। সম্প্রতি অনুষ্ঠিত বিধানসভা নির্বাচনের ফলাফল অনুযায়ী ইউনাইটেড প্রগ্রেসিভ অ্যালায়েন্স বা ইউপিএ কংগ্রেস পেতে পারে ১৩টি আসন। দলীয় সূত্র অনুসারে, কংগ্রেস আটটি রাজ্যসভার আসন পেতে পারে, দ্রাবিড় মুনেত্র কাজগম (ডিএমকে) তিনটি আসন পেতে পারে এবং শিবসেনা এবং জাতীয়তাবাদী কংগ্রেস পার্টি (এনসিপি) একটি করে আসন পেতে পারে।

 কোন রাজ্য থেকে কংগ্রেস রাজ্যসভার আসন পেতে পারে ?

কোন রাজ্য থেকে কংগ্রেস রাজ্যসভার আসন পেতে পারে ?

যে রাজ্যগুলি থেকে কংগ্রেস রাজ্যসভার আসন পেতে পারে তার মধ্যে রয়েছে রাজস্থানের তিনটি, ছত্তিসগড়ে দুটি এবং হরিয়ানা, কর্ণাটক, তামিলনাড়ু, মহারাষ্ট্র, ঝাড়খন্ড এবং মধ্যপ্রদেশের একটি করে আসন।

 কারা যাবেন কংগ্রেসের হয়ে রাজ্যসভায় ?

কারা যাবেন কংগ্রেসের হয়ে রাজ্যসভায় ?

আসন্ন রাজ্যসভা নির্বাচনের জন্য সম্ভাব্য কংগ্রেস প্রার্থীদের নামগুলির মধ্যে রয়েছে জয়রাম রমেশ, গুলাম নবী আজাদ, পি চিদাম্বরম, রাজীব শুক্লা, অজয় ​​মাকেন, রণদীপ সুরজেওয়ালা, সেলজা কুমারী, প্রবীণ চক্রবর্তী, আনন্দ শর্মা এবং মুকুল ভাসনিক৷ অন্যান্য প্রার্থীদের মধ্যে রয়েছেন মিলিন্দ দেওরা, কুলদীপ বিষ্ণোই, পবন খেরা, তারিক আনোয়ার এবং প্রমোদ তেওয়ারি। কিছু রাজ্য রয়েছে যা কংগ্রেসের কাছে সমস্যার কারণ হতে পারে

ঝাড়খণ্ড

ঝাড়খণ্ড

বিধানসভায় জেএমএমের ৩০ জন এবং কংগ্রেসের ১৭ জন বিধায়ক রয়েছে। ঝাড়খণ্ডে জেএমএমের নেতৃত্বাধীন জোটের একটি আসন রয়েছে। কংগ্রেস প্রার্থীর জন্য ঝাড়খণ্ডে তার পুরনো বন্ধুকে রাজি করাতে পারবে কিনা তা নিয়ে এখনও অস্পষ্টতা রয়েছে। ঝাড়খণ্ডের নেতারা রাজ্যের দায়িত্বপ্রাপ্ত অবিনাশ পান্ডের সাথে দেখা করেছিলেন, যিনি বলেছিলেন যে এটি গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়ার একটি অংশ, এবং চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত দলীয় হাইকমান্ড গ্রহণ করবে। পান্ডে যোগ করেছেন , "আমাদের দলে গণতন্ত্র আছে, এবং প্রত্যেকেরই তাদের মতামত প্রকাশ করার অধিকার আছে, আমরা ঝাড়খণ্ড মুক্তি মোর্চা (জেএমএম) এর সাথে জোটবদ্ধ এবং আমরা এমন একজন প্রার্থীকে দাঁড় করিয়ে দেব যাতে সবাই একমত হয়। গতবার আমরা রাজ্যসভার আসন দিয়েছিলাম। তাদের কাছে এইবার আমরা আশা করি যে তারা আমাদের প্রার্থীকে সমর্থন করবে। আমি ঝাড়খণ্ডের মুখ্যমন্ত্রীকে কংগ্রেস সভাপতির সাথে একটি বিষয়ে আলোচনা করার জন্য আমন্ত্রণ জানিয়েছি," ।

হরিয়ানা

হরিয়ানা


কংগ্রেস নেত্রী সোনিয়া গান্ধীর সঙ্গে দেখা করেন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী ভূপিন্দর হুডা। সোমবার তাকে আবার ডাকা হয়েছে হরিয়ানায় বার্থের দিকে তাকিয়ে থাকা বেশ কয়েকজন নেতার ভাগ্য নির্ধারণ করার জন্য।সূত্রের খবর, হুডা ইতিমধ্যেই তার মতামত ব্যক্ত করেছেন এবং দলীয় হাইকমান্ডের নির্দেশ অনুসরণ করবেন।

রাজস্থান

রাজস্থান


কংগ্রেসের মোট ১০৮ জন বিধায়ক রয়েছে, যার মধ্যে দুইজন প্রাক্তন বিএসপি বিধায়ক এবং ১৩ জন স্বতন্ত্র রয়েছে, যেখানে বিজেপির ৭১টি আসন রয়েছে এবং রাজ্যসভার দ্বিতীয় আসনে জয়ের জন্য আরও ১১টি আসন প্রয়োজন। সূত্র জানিয়েছে যে রাজস্থান তিনটি আসনে সংখ্যালঘু মুখ দিতে পারে কারণ গতবার সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের কেউ ছিল না।

English summary
congress getting ready for rajyasabha election
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X