India
  • search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts
Oneindia App Download

'মানুষ এমভিএ জোটের প্রতি ক্ষুব্ধ' , মহারাষ্ট্র সরকারের দোলাচলের মাঝে ঘি বিজেপি নেতার

Google Oneindia Bengali News

মহা দোলাচল শুরু হয়েছে মহারাষ্ট্রে। পাঁচ বছরের রাজত্বে মাত্র আড়াই বছর কেটেছে শিবসেনা ও তাঁর সঙ্গীদের নিয়ে তৈরি জোট সরকারের। তার মধ্যেই সরকার যায় যায় অবস্থা। মঙ্গলবার বিজেপি নেতা এবং কেন্দ্রীয় মন্ত্রী রাওসাহেব দানভে বলেছেন যে মহারাষ্ট্রের মানুষ রাজ্যের শিবসেনার নেতৃত্বাধীন মহা বিকাশ আঘাদি সরকারের উপর বিরক্ত।

মানুষ এমভিএ জোটের প্রতি ক্ষুব্ধ , মহারাষ্ট্র সরকারের দোলাচল নিয়ে মন্তব্য বিজেপি নেতার

মহারাষ্ট্রে খেলা হচ্ছে কেনাবেচার মাধ্যমে , আর বিজেপি নেতারা বলছেন মানুষ চায়নি তাঁদের বিরোধী দলকে। এমভিএ' তৈরি শিবসেনা, এনসিপি এবং কংগ্রেসকে নিয়ে। বিজেপি নেতা বলছেন যে, এই জোটের মধ্যে কোনও নিয়ন্ত্রণ নেই। এই কথা উল্লেখ করে বিজেপি নেতা বলেছেন, "জনগণের সমস্যার প্রতি সম্পূর্ণ তারা নজর দেয়নি, দিনের পর দিন অবহেলা করে গিয়েছে।"

তিনি বলেছেন , "বিধান পরিষদের ভোটে এটা স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে যে এমভিএ উপর তাদের নিজের দলের লোকী বিরক্ত। তারা বিভক্ত হয়ে গিয়েছেন এবং নির্দলরা আমাদের (বিজেপি) সমর্থন করেছে। বিজেপির পঞ্চম প্রার্থী জয়ী হয়েছে, ওদিকে কংগ্রেসের প্রার্থী অন্য দুটি দলের কাছে পরাজিত হয়েছে (সেনা এবং এনসিপি), "। এটা বলে দেয় যে এমভিএ সরকারের মধ্যে একটা বিরোধ ছিল, এমনটাই বললেন রেল প্রতিমন্ত্রী।

রাওসাহেব দানভে বলেছেন , "কারও ওপর কারো নিয়ন্ত্রণ নেই। জনগণের সমস্যার প্রতি সম্পূর্ণ অবহেলা করা হয়েছে। বিধান পরিষদ নির্বাচনের পর রাজ্যের পরিবেশ পরিষ্কার হয়ে গেছে। মানুষ এখন সরকারের ওপর বিরক্ত। আমরা ঘটনাগুলো পর্যবেক্ষণ করব।"

সোমবার বিরোধী বিজেপি রাজ্য বিধান পরিষদ নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করা পাঁচটি আসনেই জিতেছে, যখন কংগ্রেসের চন্দ্রকান্ত হান্দোর, একজন প্রাক্তন মন্ত্রী এবং একজন দলিত নেতা হেরেছেন। শিবসেনা এবং এনসিপির প্রত্যেকে দুইজন প্রার্থী জিতেছে, যখন কংগ্রেস ১০ টি কাউন্সিলের আসনে নির্বাচনে মাত্র একটি আসন পেতে সক্ষম হয়েছে।

রাজ্য বিধান পরিষদের নির্বাচন শেষ হওয়ার পর শিন্দের নেতৃত্বাধীন বিধায়করা গুজরাটের সুরাতে চলে যাওয়ার পর থেকে এমভিএ সরকারে দোলাচল শুরু হয়। শিবসেনার দুই প্রার্থী ৫২ ভোট পেয়েছিলেন যদিও দলটি ৬৪ টি আশা করেছিল, যার মধ্যে ৫৫ টি নিজস্ব এবং স্বতন্ত্র এবং ছোট দলগুলির অন্তর্ভুক্ত ছিল। দেখা যায় যে ৬৪ জন বিধায়কের মধ্যে অন্তত ১২ জন ক্রস ভোট দিয়েছেন। সেই শুরু সমস্যার।

ক্ষমতাসীন জোটের শরিক শিবসেনা, জাতীয়তাবাদী কংগ্রেস পার্টি (এনসিপি) এবং কংগ্রেস রাজ্য বিধানসভায় ২০১৯ সালের আস্থা ভোটে ১৬৯ ভোট পায়। সোমবার কাউন্সিল নির্বাচনে তিনটি দলই মিলে পায় ১৫০টি ভোট। পাশাপাশি অল ইন্ডিয়া মজলিস-ই-ইত্তেহাদুল মুসলিমীনের (এআইএমআইএম) দুটি আসন রয়েছে এবং ভারতের কমিউনিস্ট পার্টি (মার্কসবাদী), মহারাষ্ট্র নবনির্মাণ সেনা এবং স্বাভিমানি পক্ষের একটি করে আসন রয়েছে। এআইএমআইএম এই মাসে রাজ্যসভা নির্বাচনে ক্ষমতাসীন জোটকে সমর্থন করেছিল।

English summary
bjp leader attack MVA government of Maharashtra on MLA issue
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X