• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

বিহার বিধানসভা নির্বাচন ২০২০ তে 'মুখ্যমন্ত্রী' পদের লড়াইয়ে নীতীশকে চ্যালেঞ্জ দিতে পারেন কারা

  • |

ভোট দামামা বেজে গিয়েছে। করোনার আবহে দেশের প্রথম নির্বাচন সংগঠিত হতে চলেছে বিহারে। করোনার জেরে এবারে বিহারের ভোট প্রচার পাল্টালেও ভোট গণিত একই খাতে এগিয়ে যাচ্ছে। এমন এক পরিস্থিতিতে গোবলয়ের অন্যতম শক্তির আধার বিহার দখলে মুখিয়ে রয়েছে বহু রাজনৈতিক শক্তি। দেখে নেওয়া যাক এনডিএর মুখ্যমন্ত্রীপদের মুখ নীতীশ কুমারকে 'কুর্সি'র লড়াইতে কারা চ্যালেঞ্জে ফেলতে চলেছেন।

হেভিওয়েট চ্যালেঞ্জ

হেভিওয়েট চ্যালেঞ্জ

বিহারে জোট অঙ্ক এখনও সেভাবে সুস্থির পর্যায়ে যায়নি। তবে তারই মাঝে এলজেপির রামবিলাস পাসওয়ানের নাম উঠে আসতে শুরু করেছে বিহার নির্বাচন ঘিরে। বিহার বিধানসভা নির্বাচনে মুখ্যমন্ত্রিত্বের দৌড়ে নীতিশকে তিনি চ্যালেঞ্জের মুখে ফেলতে পারেন বলে জল্পনার পারদ চড়ছে। মনে করা হচ্ছে, বিহার বিধানসভা নির্বাচনে মুখ্যমন্ত্রিত্বের লড়াইয়ে পাসওয়ান এই বছরই শেষ চেষ্টা করবেন। কারণ এর পরবর্তী পর্যায়ে এই চেয়ার রামবিলাস তাঁর ছেলে চিরাগের জন্য 'পাখির চোখ' করে ঘুঁটি সাজাতে পারেন। বিহার বিধানসভা নির্বাচনের ইতিহাসে ১৯৬৯ সালে বিধায়ক পদে রামবিলাসের পদার্পণের তথ্য পাওয়া যায়। জরুরি অবস্থার সময় ১৫ মাসের জেলবন্দি রামবিলাস ২০২০ সালের বিধানসভা নির্বাচনের কালো ঘোড়া হয়ে ওঠার চেষ্টায় রয়েছেন।

 চেনা বিরোধী মুখ

চেনা বিরোধী মুখ

বিহার নির্বাচনে নীতীশ কুমারের বিরুদ্ধে চেনা বিরোধী মুখ লালুপুত্র আরজেডি নেতা তেজস্বী। বিহারের রাঘোপোর বিধানসভা আসন থেকে ২০১৫ সালে জয়লাভ করে গোবলয় রাজনীতিতে ছাপ ফেলেন তেজস্বী। এবারের বিহার নির্বাচনে তিনিও রয়েছেন বিরোধী শিবিরের মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থীর দৌড়ে। বাবা লালু প্রসাদ জেলবন্দি থাকা অবস্থা পার্টির রাশ আপাতত তিনিই সামলাচ্ছেন। এককালের শরিক জেডিইউকে বিহারের কুর্সি থেকে উৎখাত করতে তেজস্বী বদ্ধ পরিকর । ফলে নীতীশ কুমারের কাছে তিনিও এক বড় চ্যালেঞ্জ হতে পারেন। বিশেষত কৃষি বিল, এনআরসি, সিএএ সহ একাধিক ইস্যু নিয়ে বিহারে রাজনীতির হাওয়া জোরদার হলে, তেজস্বী বিরোধী শিবিরের অন্যতম মুখ হতে পারেন নীতীশের বিরুদ্ধে।

 খোদ বিজেপি জোটের মধ্যেই...

খোদ বিজেপি জোটের মধ্যেই...

উল্লেখ্য, বিহারে এনডিএ জোটে মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী হিসাবে আগেই নীতীশ কুমারের নাম ঘোষণা করেছে এনডিএ। তাতে সহমত রয়েছে অমিত শাহ থেকে জেপি নাড্ডাদের। এদিকে, বিজেপির সঙ্গে বিহারে জেডিইউয়ের জোট গড়ার মূল হোথা ছিলেন সুশীল মোদী। সেই সুশীল মোদীই বিহার সরকারের উপমুখ্যমন্ত্রী আপাতত। তবে সূত্রের দাবি, বিহারের ভোট অঙ্কের গতিবিধি অনুযায়ী বিজেপির এই নেতাও মুখ্যমন্ত্রিত্বের দাবিদার হতে পারেন।

দলিত মুখ

দলিত মুখ

বহু কাঠখড় পোড়ানোর পর বিহারের দলিত শিবিরের নেতা জিতেন রাম মাঝি এনডিএর হাত ধরেছেন। হিন্দুস্তানি আওয়াম মোর্চার এই নেতা ১৯৮০ সাল থেতকে বিহারে দলিত ভোট সমর্থনের একটি মুখ। এনডিএর সঙ্গে ২০১৪ সালে তাঁর সংঘাতের পর তিনি বিজেপি-জেডিইউ বিরোধীদের হাত ধরেন। এরপর নীতীশ কুমার তাঁকে পদত্যাগ করতে বলার পর, তিনি আস্থা ভোটেও পর্যুদস্ত হন। পরে বহু রাজনৈতিক সমীকরণ পেরিয়ে তিনি এনডিএতে রয়েছেন। তবে নীতীশকে মুখ্যমন্ত্রীর দৌড়ে চ্যালেঞ্জ দিতে তিনিও ক্রমেই নিজের ঘুঁটি সাজাচ্ছেন।

পুষ্পম প্রিয়া চৌধুরি

পুষ্পম প্রিয়া চৌধুরি

বিহারের রাজনৈতিক ময়দানে নতুন নাম পুষ্পম প্রিয়া চৌধুরি। ২০২০ সালে তাঁর পার্টি 'প্লুরালস পার্টি' পা রাখছে ভোট ময়দানে। লন্ডন স্কুল অফ ইকোনমিক্সের ছাত্রী পুষ্পম বিহারে নতুন ভাবনার রাজনৈতিক শক্তি নিয়ে হাজির। তিনিও মুখ্যমন্ত্রী পদে নীতীশকে চ্যালেঞ্জ দিতে তৈরি হচ্ছেন।

English summary
Bihar assembly Election 2020, who may be the threat to Nitish Kumar, a political analysis
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X