• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

করোনা ঠেকাতে যুগান্তকারী পদক্ষেপ, টিকাকরণ নিয়ে শুরু মোদী-কেজরি রাজনীতি

১৬ জানুয়ারি থেকে শুরু হতে চলেছে কোরোনার টিকাকরণ। এই ঘোষণা হওয়ার পরই দেশবাসীকে শুভেচ্ছা জানিয়ে টুইট করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এদিন তিনি নিজের বার্তায় লেখেন, '১৬ জানুয়ারী, ভারত কোভিড -১৯-এর লড়াইয়ে এক যুগান্তকারী পদক্ষেপ নিতে চলেছে। সেই দিন থেকে, ভারতে দেশব্যাপী করোনা রোধক টিকা দেওয়ার অভিযান শুরু হবে। আমাদের সাহসী ডাক্তার, স্বাস্থ্যসেবা কর্মী, সাফাই করমচারিসহ ফ্রন্টলাইন কর্মীদের অগ্রাধিকার দেওয়া হবে।'

টিকাকরণে অগ্রাধিকার পাবেন কারা?

টিকাকরণে অগ্রাধিকার পাবেন কারা?

করোনার টিকা কবে বাজারে আসবে, কবে তা সাধারণের নাগালের মধ্যে আসবে তা নিয়ে জল্পনা চলছিল কিছুদিন ধরে। সম্প্রতি কোভিশিল্ড ও কোভ্যাক্সিনের জরুরিভিত্তিতে ব্যবহারের অনুমতি দেয় কেন্দ্র। পাশাপাশি বলা হয়, টিকাকরণে অগ্রাধিকার পাবেন চিকিৎসক, স্বাস্থ্যকর্মী ও সামনের সারিতে থেকে যারা করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াই করেছেন তাঁরা। অর্থাৎ পুলিশ, সাফাইকর্মী, রাজ্য ও কেন্দ্রের বিভিন্ন দপ্তর, সশস্ত্র বাহিনী, হোমগার্ড, বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী, পৌর ও রাজস্ব বিভাগে কর্মরত মানুষজনও অগ্রাধিকার পাবেন টিকাকরণে।

আওতায় আনা হবে দেশের পঞ্চাশোর্ধ মানুষজনকে

আওতায় আনা হবে দেশের পঞ্চাশোর্ধ মানুষজনকে

এরপরেই টিকাকরণের আওতায় আনা হবে দেশের পঞ্চাশোর্ধ মানুষজনকে। ৫০-এর নিচে বয়স অথচ কোমরবিডিটিতে আক্রান্তরাও টিকাকরণের আওতায় প্রাথমিকভাবে আসবেন বলে জানায় কেন্দ্রীয় সরকার। সবশেষে লোকসভা ও বিধানসভা নির্বাচনের ভোটার তালিকা ব্যবহার করে এই বয়সসীমার মানুষদের বেছে নেওয়া হবে।

কেন্দ্রীয় সরকারকে চাপে রাখার কৌশল

কেন্দ্রীয় সরকারকে চাপে রাখার কৌশল

এদিকে টিকাকরণের ঘোষণা হতেই কেন্দ্রীয় সরকারকে চাপে রাখার কৌশল শুরু করে দিলেন অরবিন্দ কেজরিওয়াল। এদিন দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল দাবি করেন, সকলের জন্য বিনামূল্যে করোনার ভ্যাকসিনের ব্যবস্থা করুক কেন্দ্রীয় সরকার। এদিন তিনি টুইট করে এই দাবি তুলেছেন।

টিকাকরণ নিয়ে কী বললেন কেজরিওয়াল?

টিকাকরণ নিয়ে কী বললেন কেজরিওয়াল?

কেজরিওয়াল লিখেছেন, 'করোনা ভাইরাস হল এই শতাব্দীর সবচেয়ে বড় প্যান্ডেমিক। আমাদের নাগরিকদের সুরক্ষা দেওয়া তাই খুবই গুরুত্বপূর্ণ। সকলেই যাতে বিনামূল্যে কোরোনার ভ্যাকসিন পায়, তার ব্যবস্থা করার জন্য আমি কেন্দ্রীয় সরকারের কাছে আবেদন করছি। এর জন্য যা খরচ হবে, তাতে অনেক মানুষের প্রাণ বেঁচে যাবে।' উল্লেখ্য, দিল্লি সরকার ইতিমধ্যেই সেখানকার সকলকে বিনামূল্যে কোরোনার ভ্যাকসিন দেওয়ার ব্যবস্থা করার কথা ঘোষণা করেছে।

English summary
Arvind Kejriwal and Narendra Modi tweets after Health Ministry announces Covid Vaccination Date
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X