• search

অভিযোগ পোস্ট করা যাবে না সোস্যাল মিডিয়ায়, কড়া বার্তা সেনাপ্রধান বিপিন রাওয়াতের

Subscribe to Oneindia News
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS
For Daily Alerts

    নয়াদিল্লি, ১৫ জানুয়ারি : সেনা জওয়ানদের কোনও অভিযোগ থেকে থাকলে, তা নির্দিষ্ট পন্থায় দায়ের করার আহ্বান জানলেন ভারতীয় সেনা প্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়াত। পাশপাশি তিনি সোস্যাল মিডিয়াতে কোনওরকমের অভিযোগ দায়ের করা থেকেও সেনা জওয়ানদের বিরত থাকবার কথা বলেছেন। এধরনের ঘটনা গোটা সেনার মানসিক বলকে নষ্ট করে দেওয়ার সামিল বলেও জানান তিনি।

    আজ নয়াদিল্লিতে সেনা দিবস উপলক্ষে এক অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে তিনি একথা বলেন। পাশাপাশি তিনি জানান, কোনও সেনা জওয়ান যদি অসন্তুষ্ট হন তাহলে তাঁরা সরাসরি সেনা প্রধানের কাছে গিয়েই সেকথা জানাতে পারেন।

    অভিযোগ পোস্ট করা যাবে না সোস্যাল মিডিয়ায়, কড়া বার্তা সেনাপ্রধান বিপিন রাওয়াতের

    কিছুদিন আগেই সোস্যাল মিডিয়া একের পর এক সেনা জওয়ানদের অভিযোগের ভিডিওতে সরগরম হয়। সেনা ক্যাম্প গুলিতে নিম্নমানের খাবার ও সেনাদের জন্য ধার্য সামগ্রী বাইরে বিক্রি করবার মতো চাঞ্চল্যকর অভিযোগ উঠে আসে, কয়েকজন জওয়ানদের সোস্যাল মিডিয়ার পোস্ট গুলি থেকে। নড়েচড়ে বসে প্রশাসন। তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফে। তারপরই আজ সেনা দিবসে সেনাপ্রধানের এই বক্তব্য অত্যন্ত প্রাসঙ্গিক বলে দাবি ওয়াকিবহাল মহলের।


    এদিকে এই প্রসঙ্গের পাশপাশি, পাকিস্তান ইস্যুতে তিনি জানান, সীমান্তে দুতরফেরই শান্তি বজায় রাখার কথা। তবে কেউ যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘন করলে, তাকে ছেড়ে কথা বলবেনা ভারতীয় সেনাও। উত্তরের সীমান্তে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখাতেও উপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে বলেও এদিন জানান ভারতীয় সেনাপ্রধান।

    English summary
    Army Chief General Bipin Rawat on Sunday said proper channels were in place for jawans to put across their grievances and discouraged them from using social media to air them as it would effect the overall morale of the army.

    Oneindia - এর ব্রেকিং নিউজের জন্য
    সারাদিন ব্যাপী চটজলদি নিউজ আপডেট পান.

    We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Oneindia sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Oneindia website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more