• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

বায়ু দূষণ ভারতীয়দের জীবনের আয়ু চার বছর করে কমছে, জানাল সমীক্ষা

দূষণ যে স্বাস্থ্যের পক্ষে ক্ষতিকর তা বারবারই বিভিন্ন গবেষক–বিজ্ঞানীরা তাঁদের পরীক্ষায় প্রমাণ করেছেন। এবার নতুন এক গবেষণায় জানা গিয়েছে, মহামারীর মতো বায়ু দূষণ বিশ্বব্যাপী মানুষের আয়ু তিন বছর কমিয়ে দেয় এবং তার ফলে বছরে ৮৮ লক্ষ মানুষের অকাল মৃত্যু ঘটে ফি বছর।

ধূমপান নয়, বা্যু দূষণ ঝুঁকির কারণ

ধূমপান নয়, বা্যু দূষণ ঝুঁকির কারণ

কার্ডিওভ্যাসকুলার রিসার্চ জার্নালে উঠে এসেছে, তেল, গ্যাস এবং কয়লা জ্বালিয়ে ফেলে দেওয়া অণু এবং ফুসফুসে জমে থাকা বিষাক্ত কণার ককটেল নির্মূল করলে পুরো এক বছরের আয়ু ফিরিয়ে আনা সম্ভব হবে। এই গবেষণার শীর্ষ লেখক জার্মানির জস লেলিভেল্ড বলেন, ‘‌ধূমপানের চেয়েও বায়ু দূষণ মানুষের স্বাস্থ্যের জন্য ঝুঁকির কারণ হয়ে উঠতে পারে।'‌ তিনি আরও বলেন, ‘‌এর বেশিরভাগ অংশ জীবাশ্ম জ্বালানীগুলি পরিবর্তে পরিষ্কার পুনর্নবীকরণযোগ্য শক্তির সঙ্গে প্রতিস্থাপন করে এড়ানো যায়।'‌

বায়ু দূষণ মহামারির চেয়ে কম কিছু নয়

বায়ু দূষণ মহামারির চেয়ে কম কিছু নয়

অন্যান্য কারণে যে অকাল মৃত্যুগুলি হয় তার মধ্যে প্রত্যেক বছর ম্যালেরিয়ার চেয়ে ১৯ গুণ বেশি মানুষ মারে বায়ু দূষণ, এইচআইভি বা এইডসের ৯ গুণ বেশি ও তিনগুণ বেশি মদ খাওয়ার চেয়েও বায়ু দূষণে অকাল মৃত্যু হয়। করোনারি হৃদরোগ এবং স্ট্রোকের মধ্যে প্রায় অর্ধেক মৃত্যুর কারণ ফুসফুসের রোগ এবং অন্যান্য অ-সংক্রামক রোগ যেমন ডায়াবেটিস এবং উচ্চ রক্তচাপের বাকী অংশগুলির মধ্যে সবচেয়ে বেশি। দূষিত বায়ু থেকে জন্ম নেওয়া মৃত্যুর মাত্র ছয় শতাংশই ফুসফুসের ক্যান্সারের কারণে ঘটে। এই সমীক্ষার আর এক লেখক থমাস মুনজেল বলেন, ‘‌আমাদের পরীক্ষায় পাওয়া গিয়েছে যে বায়ু দূষণ মহামারি।'‌ তিনি আরও বলেন, ‘‌বায়ু দূষণ ও ধূমপান উভয়কেই প্রতিরোধ করা যায়, কিন্তু বিগত দশকগুলিতে দেখা গিয়েছে হৃদরোগ বিশেষজ্ঞরা বায়ু দূষণের চেয়ে ধূমপানের দিকে বেশি মনোনিবেশ করছেন।'‌

বিভিন্ন দেশের গড় আয়ু বায়ু দূষণের জন্য কমে গিয়েছে

বিভিন্ন দেশের গড় আয়ু বায়ু দূষণের জন্য কমে গিয়েছে

এশিয়ার মধ্যে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত অঞ্চলগুলি হল যেখানে গড় আয়ু কেটে গিয়েছে, তার মধ্যে চিন প্রথম। এখানে গড় আয়ু কেটেছে ৪.‌১ বছর, তারপর ভারত ৩.‌৯ বছর এবং তৃতীয় স্থানে পাকিস্তান, ৩.৮ বছর। অন্য এক গবেষণায় জানা গিয়েছে, এই দেশগুলি কিছু অংশে বিষাক্ত বায়ু রয়েছে, এমনকী তা মাত্রাতিরিক্ত। ভারতের উত্তরপ্রদেশে ২০০ মিলিয়ন মানুষের বাস, এখানে বায়ুতে ছোট কণার দূষণ নিজেই ৮.‌৫ বছর জীবনের আয়ু কমিয়ে দেয়। অন্যদিকে চিনের হেবেই প্রদেশে (‌৭৪ মিলিয়ন জনসংখ্যা)‌ ছ'‌বছর আয়ু কম। এই তথ্য জানিয়েছে এয়ার কোয়ালিটি লাইফ সূচক, যা তৈরি করেছে শিকাগোর এক সংস্থা। আফ্রিকান জীবন থেকেও গড় আয়ু ৩.‌১ বছর বাদ পড়েছে, অন্যদিকে আফ্রিকার ছাদ, সিয়েরা লিওনি, মধ্য আফ্রিকা রিপাব্লিক, নাইজেরিয়া ও কোট ডি'‌আইভরিতে গড় আয়ু থেকে বাদ পড়েছে ৪.‌৫ থেকে ৭.‌৩ বছর। গবেষকরা লক্ষ্য করে দেখেছেন যে সোভিয়েত ইউনিয়ন, স্যাটেলাইট দেশে সবচেয়ে বেশি মারণ দূষণ রয়েছে। বিশেষ করে বুলগেরিয়া, হাঙ্গারি ও রোমানিয়াতে। মুনজেল বলেন, ‘‌মানুষের তৈরি দূষণ বিশেষ করে জীবাশ্ম জ্বালানি ব্যবহারের জন্য এই দেশে অকাল মৃত্যু হয়েছে দুই তৃতীয়াংশের।'‌

রক্তে রাঙা অমিত শাহের হাত! শহিদ মিনারের শুদ্ধিকরণে বাম কংগ্রেস ছাত্ররা

English summary
The worst-hit region is Asia, where average lifespan is cut 4.1 years in China, 3.9 years in India, and 3.8 years in Paki
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X