• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

থাইল্যান্ডে সপরিবারে অভিজিতের নোবেল জয়ের কৃতিত্ব সেলিব্রেশন হবে

দ্বিতীয় বাঙালি হিসাবে নোবেল জয় করে বাংলার মুখ উজ্জ্বল করেছেন অর্থনীতিবিদ অভিজিত বিনায়ক ব্যানার্জি। তাঁর এই কৃতিত্বে গর্ববোধ করছে গোটা কলকাতা। শুক্রবারই তিনি দেশের মাটিতে পা রাখতে চলেছেন আর ২২ অক্টোবর তিনি নিজের শহর কলকাতায় আসবেন। বালিগঞ্জ সার্কুলার রোডের বাড়িতেই সময় কাটাবেন তিনি। মঙ্গলবার নোবেলজয়ীর মা ও ভাই এই খবর নিশ্চিত করেছেন। ঘরের ছেলে ঘরে ফিরবে, তাই স্বাভাবিক ভাবেই অভিজিতকে স্বাগত জানানোর জন্য চলছে গ্র্যান্ড প্রস্তুতি।

থাইল্যান্ডে সপরিবারে অভিজিতের নোবেল জয়ের কৃতিত্ব সেলিব্রেশন হবে

এ সপ্তাহে এমআইটির অধ্যাপক তাঁর দ্বিতীয় বই '‌গুড ইকোনমিকস ফর হার্ড টাইমস, বেটার আনসার টু আওর বিগেস্ট প্রবলেম’‌ প্রকাশের জন্য দিল্লিতেই রয়েছেন। শনিবার তাঁর এই বই প্রকাশের অনুষ্ঠান রয়েছে। অভিজিতের ভাই অনিরুদ্ধ ব্যানার্জি বলেন, '‌নোবেল পুরস্কার পাওয়ার আগেই এই বইটি প্রকাশের অনুষ্ঠান নির্ধারণ হয়ে গিয়েছিল। আমি গতকাল রাতেই ওঁর সঙ্গে কথা বলেছি এবং দাদা জানিয়েছেন যে তিনি বই প্রকাশ অনুষ্ঠানে যাবেন। বই প্রকাশের পর তাঁর আরও কিছু কাজ রয়েছে, সেগুলো মিটিয়ে ২৩ অক্টোবর একদিনের জন্য বাড়ি আসবেন।’‌ একদিনের জন্য বাড়ি ফিরলেও, তাঁর জন্য গালা সেলিব্রেশন হবে বলে জানান অভিজিতের ছোট ভাই। তবে তিনি সস্ত্রীক আসবেন না, একাই বাড়িতে এসে মা ও ভাইয়ের সঙ্গে দেখা করবেন। অভিজিতের স্ত্রী তথা তাঁর বইয়ের সহ–লেখক এস্থার ডাফলোও নোবেল পেয়েছেন অর্থনীতিতে।

কলকাতায় বসে নোবেলজয়ীকর ৮৩ বছরের মা অভিনন্দনের জোয়ারে ভেসে চলেছেন। বাড়িতে ঘন ঘন প্রতিবেশী ও অন্য আত্মীয়–পরিজনদের যাতায়াতে মুখরিত হয়ে উঠেছে বালিগঞ্জ সার্কুলার রোডের বাড়িটি। ছেলের কৃতিত্বে গর্বিত মা নির্মলা ব্যানার্জি বলেন, '‌আমি ছেলেকে স্বাগত জানানোর জন্য আর অপেক্ষা করতে পারছি না। ওর বাবা বেঁচে থাকলে আমার চেয়েও বেশি খুশি হত। তবে আমরা এখনই ওর এই সাফল্য উদযাপন করব না। আগে অভিজিত ঘরে ফিরে আসুক প্রথমে।’‌ মা নির্মলাদেবী নিজেও একজন অর্থনীতিবিদ। তিনি আরও বলেন, '‌ছেলে যদি আরও কিছুদিন বাড়িতে থাকত তাহলে আমারও ভালো লাগত। কিন্তু আমি বুঝি। এখন সে খুব ব্যস্ত এবং গুরুত্বপূর্ণ এক ব্যক্তি হয়ে উঠেছে। ওর সময় এখন খুব মূল্যবান। বাড়িতে ফেরার পরেরদিনই অভিজিত আমেরিকায় চলে যাবে।’‌ মা জানান, নোবেল জয়ের খবর শোনার পর তিনি অনেকবার চেষ্টা করেছিলেন অভিজিতকে অভিনন্দন জানানোর। কিন্তু পারেননি। অনেক পরে তাঁর সঙ্গে ছেলে এবং এস্থার সঙ্গে তাঁর কথা হয়। অভিজিত অবশ্য মাকে প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন যে তিনি পরিবারের সঙ্গে খুব শীঘ্রই থাইল্যান্ডে ঘুরতে যাবেন এবং সেখানেই গোটা পরিবার মিলে তাঁর সাফল্যকে উদযাপন করবেন।

অভিজিতের ঘনিষ্ঠ বন্ধু তথা বিদ্যাসাগর কলেজের ইতিহাসের অধ্যাপক উজায়ন ব্যানার্জি সোমবার জানান, তিনি নোবেল জয়ের পরই তাঁর বন্ধুকে ফোন করে অভিনন্দন জানিয়েছিলেন। সেই সময় অভিজিত জানিয়েছিল যে ২৩ অক্টোবর কলকাতায় ফিরে তিনি তাঁর বন্ধুর সঙ্গে দেখা করবেন। গত ১৪ অক্টোবর অর্থনীতিতে নোবেল জয় করেন অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়। অমর্ত্য সেনের পরে দ্বিতীয় বাঙালি হিসেবে অর্থনীতির ক্ষেত্রে এই সম্মানে ভূষিত হলেন তিনি। একই সঙ্গে নোবেল সম্মান পেলেন তাঁর স্ত্রী এস্থার ডাফলোও। পুরস্কৃত হলেন অর্থনীতিবিদ মাইকেল ক্রেমারও। নোবেল কমিটি জানাচ্ছে, দারিদ্র দূরীকরণ নিয়ে গবেষণার জন্যেই পুরস্কার দেওয়া হল এই ত্রয়ীকে।

English summary
After the book launch programme, he has some pre-scheduled appointments
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X