• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

    ভারতীয় রেলওয়ের সম্পর্কে এই তথ্যগুলি আপনি জানেন কি?

    • By Oneindia Bengali Digital Desk
    • |

    ভারত হল এমন একটি দেশ যেখানে পৃথিবীর সবচেয়ে বড় রেলওয়ে নেটওয়ার্ক ও পরিষেবা রয়েছে। পরিহবনের এই মাধ্যম লক্ষ লক্ষ যাত্রী দৈনন্দিন বহন করে এক স্থান থেকে অ্য স্থানে নিয়ে যায়।

    কিন্তু ভারতীয় রেল নিয়ে এমন বহু সাধারণ তথ্য রয়েছে যা আমরা অনেকেই জানি না। এই তথ্যগুলি যেমন জানা জরুরি, তেমনই কিছু কিছু তথ্য মজাদারও বটে।

    আজ সংসদে রেল বাজেট পেশ করছেন রেলমন্ত্রী সুরেশ প্রভু। তার আগে চলুন দেখে নেওয়া যাক ভারতীয় রেলওয়ের সাধারণ অথচ অজানা কিছু তথ্যগুলি।

    ১) দ্রুততম ও বিলম্বিত ট্রেন

    ১) দ্রুততম ও বিলম্বিত ট্রেন

    নয়াদিল্লি-ভোপাল শতাব্দী এক্সপ্রেস ভারতের সবচেয়ে দ্রুতগামী ট্রেন। এই ট্রেন গড় গততি প্রতি ঘন্টায় ৯১ কিলোমিটার থাকে। দিল্লি-আগরার১৯৫ কিলোমিটার রাস্তার এর সর্বোচ্চ গতি প্রতিঘন্টায় ১৫০ কিলোমিটার ছোঁয়।

    নীলগিরি এক্সপ্রেস ভারতের সবচেয়ে মন্দগতির ট্রেন। গড়ে এর গতি থাকে ১০ কিলোমিটার প্রতিঘন্টা।

    ২) দীর্ঘতম রুট এবং সবচেয়ে ছোট রুট

    ২) দীর্ঘতম রুট এবং সবচেয়ে ছোট রুট

    ডিব্রুগড় থেকে কন্যাকুমারী মোটে ৪,২৭৩ কিলোমিটার রাস্তা অতিক্রম করে বিবেক এক্সপ্রেস । সময় ও দূরত্বের নিরিখে এই ট্রেনটি দীর্ঘতম রুটের ট্রেন।

    নাগপুর থেকে আজনি এই মাত্র ৩ কিলোমিটারের জন্য রেল পরিষেবা রয়েছে। মূলত অজনী ওয়ার্কশপে য়ারা কাজ করেন তাদের নাগপুর থেকে নিয়ে যাওয়ার জন্যই এই রেল পরিষেবা।

    ৩) দীর্ঘতম ননস্টপ ট্রেন এবং সবচেয়ে বেশি দাঁড়ানো ট্রেন

    ৩) দীর্ঘতম ননস্টপ ট্রেন এবং সবচেয়ে বেশি দাঁড়ানো ট্রেন

    ত্রিবান্দ্রম-নিজামুদ্দিন রাজধানী এক্সপ্রেস-এর মোট ৫২৮ কিলোমিটারের রাস্তা অতিক্রম করা এই ট্রেনটি ভাদোদরা এবং কোটার মধ্যে ননস্টপ চলে। এটিই দীর্ঘতম ননস্টপ রান।

    হাওড়া-অমৃতসর এক্সপ্রেস সবচেয়ে বেশিবার পথে দাঁড়ায়, সংখ্যাটি ১১৫ বার।

    ৪) ২টো স্টেশন জায়গা একটাই

    ৪) ২টো স্টেশন জায়গা একটাই

    মহারাষ্ট্রের আহমেদনগর জেলায় শ্রীরামপুর এবং বেলাপুর স্টেশন ২টি একই জায়গায় অবস্থিত। একপাড়ে শ্রীরামপুর স্টেশন, বিপরীত পাড়ে বেলাপুর স্টেশন।

    ৫) সময়ানুবর্তীতায় সবচেয় খারাপ যে ট্রেন

    ৫) সময়ানুবর্তীতায় সবচেয় খারাপ যে ট্রেন

    সময়ের দিক থেকে বলতে গেলে গুয়াহাটি-ত্রিবান্দ্রাম এক্সপ্রেস একেবারেই ভরসাযোগ্য নয়। নিয়ম অনুযায়ী এই ট্রেনটি গন্তব্যে পৌঁছতে সময় নেওয়ার কথা ৬৫ ঘন্টা ৫ মিনিট। কিন্তু প্রত্যেক বারই গড়ে ১০-১২ ঘন্টা দেরিতে গন্তব্যে পৌঁছয় এই ট্রেন।

    ৬) স্টেশনের সবচেয়ে বড় ও সবচেয়ে ছোট নাম

    ৬) স্টেশনের সবচেয়ে বড় ও সবচেয়ে ছোট নাম

    সবচেয়ে বড় নামের স্টেশনটি হল : Venkatanarasimharajuvaripeta (ভেঙ্কাটানরসিংহরাজুভরিপেটা)। ২৮টি ইংরেজি বর্ণ রয়েছে শব্দটিতে। চেন্নাইয়ের কাথে আরাক্কোনাম -রেনিগুন্টা অংশে অবস্থিত এই স্টেশনটি।

    সবচেয়ে ছোট নামের স্টেশনটি হল : IB (আইবি)। মাত্র ২টি ইংরেজি বর্ণ রয়েছে এতে। ওড়িশার ঝাড়শুগুজড়ার কাছে এবস্থিতি এই স্টেশনটি

    ৭) প্রাচীন লোকো ইঞ্জিন

    ৭) প্রাচীন লোকো ইঞ্জিন

    ভারতের সবচেয়ে প্রাচীন সক্রিয় লোকোমোটিভ রেল ইঞ্জিনের ট্রেন হল ফেয়ারি কুইন। ১৮৫৫ সালে এই তৈরি হয়েছিল। এটি পৃথিবীর সর্বপ্রাচীন সক্রিয় স্টিম ইঞ্জিনও বটে।

    ৮) টানেল ট্র্যাক

    ৮) টানেল ট্র্যাক

    ভারতের সবচেয়ে দীর্ঘ টানেল ট্র্যাক হল পীর পাঞ্জল টানেল, যার দৈর্ঘ্য ১১.২১৫ কিলোমিটার। ২০১২ সালে জম্মু-কাশ্মীরে এই টানেলটি তৈরি হয়েছে।

    ৯) নিম্ন শ্রেনীতে মলত্যাগের ব্যবস্থা

    ৯) নিম্ন শ্রেনীতে মলত্যাগের ব্যবস্থা

    ১৯০৯ সালে প্রথম ট্রেনের নিম্ন শ্রেণীতে শৌচাগার চালু করা হয়। কারণ অখিল বাবু নামে এক ব্যক্তি চিঠি লিখে ট্রেনে শৌচাগার না থাকায় চলন্ত ট্রেনে কঠোর পরীক্ষার বর্ণনা দেওয়ার পরই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

    ১০) সবচেয়ে বড় প্ল্যাটফর্ম

    ১০) সবচেয়ে বড় প্ল্যাটফর্ম

    গোরখপুর প্ল্যাটফর্মটি ভারতের সবচেয়ে বড় প্ল্যাটফর্ম। এটি ১.৩৫ কিলোমিটার দীর্ঘ।

    English summary
    10 interesting things about Indian Railways
    For Daily Alerts

    Oneindia - এর ব্রেকিং নিউজের জন্য
    সারাদিন ব্যাপী চটজলদি নিউজ আপডেট পান.

    Notification Settings X
    Time Settings
    Done
    Clear Notification X
    Do you want to clear all the notifications from your inbox?
    Settings X
    We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Oneindia sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Oneindia website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more