• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে ব্যাট-বলের লড়াইয়ে কাদের বাজিমাত, জেনে নিন পরিসংখ্যান

Google Oneindia Bengali News

২০১৯ সাল থেকে শুরু হয়েছিল। গতকালই সাউদাম্পটনে শেষ হয়েছে প্রথম বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ। ২০০০ সালের পর ফের কোনও আইসিসি ইভেন্টে নিউজিল্যান্ড চ্যাম্পিয়ন হল। দুবারই ভারতকে হারিয়ে। বিরাটদের ৮ উইকেটে হারিয়ে টেস্টের প্রথম বিশ্বচ্যাম্পিয়নের তকমা পেয়েছে নিউজিল্যান্ড।

সর্বকালের সেরা

সর্বকালের সেরা

২০১৫-র ক্রিকেট বিশ্বকাপের ফাইনালে ব্রেন্ডন ম্যাকালামের নেতৃত্বাধীন কিউয়িরা হেরেছিল অস্ট্রেলিয়ার কাছে। ২০১৯ বিশ্বকাপ সেমিফাইনালে ভারতকে হারিয়ে কেন উইলিয়ামসনের নিউজিল্যান্ড ফাইনালে ওঠে। নির্ধারিত ৫০ ওভার টাই হওয়ার পর সুপার ওভারও টাই হয়। বেশি বাউন্ডারি মারার নিরিখে নিউজিল্যান্ডকে হারিয়ে ঘরের মাটিতে বিশ্বকাপ জিতেছিল ইংল্যান্ড। সেই যন্ত্রণা কাটিয়ে এবার বিরাট-বধ সেরেই ফের আইসিসি ইভেন্টে বিশ্ববিজয়ী নিউজিল্যান্ড। ১৪৪ বছরের টেস্ট ক্রিকেটের ইতিহাসে প্রথম বিশ্বচ্যাম্পিয়ন এই দলটাকেই দেশের সর্বকালের সেরা বলেছেন স্যর রিচার্ড হ্যাডলি।

বেশি রানের মালিক

বেশি রানের মালিক

প্রথম আইসিসি বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে মোট ৬৬টি ম্যাচ হয়েছে। সবচেয়ে বেশি রানের রেকর্ড রইল অস্ট্রেলিয়ার মার্নাস লাবুশানের দখলে। ১৩টি টেস্টে ২৩ ইনিংসে তাঁর মোট রান ১৬৭৫। ৫টি শতরান ও ৯টি অর্শতরান করেছেন। তাঁর পরেই দ্বিতীয় স্থানে ইংল্যান্ডের অধিনায়ক জো রুট। ২০টি ম্যাচে ৩৭ ইনিংসে করেছেন ১৬৬০ রান। শতরান তিনটি, অর্ধশতরান আটটি। তৃতীয় স্থানে স্টিভ স্মিথ ১৩টি টেস্টে ২২ ইনিংসে ১৩৪১ রান করেছেন। ৪টি শতরান ও ৭টি অর্ধশতরান রয়েছে। চতুর্থ স্থানে ইংল্যান্ডের বেন স্টোকস। ১৭ টেস্ট ৩২ ইনিংসে ১৩৩৪ রান রয়েছে তাঁর, ৪টি শতরান ও ৬টি অর্ধশতরান-সহ। প্রথম পাঁচে একমাত্র ভারতীয় অজিঙ্ক রাহানে ১৮টি টেস্টে ৩০ ইনিংসে ১১৫৯ রান করেছেন। ৩টি শতরান ও ছয়টি অর্ধশতরান রয়েছে।

উল্লেখযোগ্য বাকিরা

উল্লেখযোগ্য বাকিরা

এই তালিকায় ষষ্ঠ স্থানে রয়েছেন রোহিত শর্মা। ১২টি টেস্টে ১৯ ইনিংসে ১০৯৪ রান করেছেন। ৪টি শতরান ও ২টি হাফ সেঞ্চুরি করেছেন। একাদশ স্থানে রয়েছেন ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি। ১৫টি টেস্টে ২৪ ইনিংসে ৯৩৪ রান করেছেন বিরাট। ২টি শতরান ও ৫টি অর্ধশতরান রয়েছে। ত্রয়োদশ স্থানে রয়েছেন চ্যাম্পিয়ন নিউজিল্যান্ড দলের অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন। ১০টি টেস্টে ১৬টি ইনিংসে তাঁর রান ৯১৮। ৩টি শতরান ও ২টি অর্ধশতরান করেছেন। উইলিয়ামসনের পরেই রয়েছেন ভারতের ময়াঙ্ক আগরওয়াল। ১২টি টেস্টে ২০ ইনিংসে তাঁর রান ৮৫৭। তিনটি শতরান ও ২টি অর্ধশতরান রয়েছে। চেতেশ্বর পূজারা রয়েছেন ১৭ নম্বরে। ভারতের তিন নম্বরে নামা ব্যাটসম্যান ১৮টি ম্য়াচে ৩০ ইনিংসে করেছেন ৮৪১ রান। একটিও শতরান নেই, অর্ধশতরান ৯টি। ২৬ নম্বরে রয়েছেন ঋষভ পন্থ ১২টি টেস্টে ২০ ইনিংসে তাঁর রান ৭০৭। ১টি শতরান ও ৪টি অর্ধশতরান রয়েছে ভারতের উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যানের।

ইনিংসে সর্বাধিক রান

ইনিংসে সর্বাধিক রান

ইনিংসে সর্বাধিক রানের নিরিখে শীর্ষে অস্ট্রেলিয়ার ডেভিড ওয়ার্নারের অপরাজিত ৩৩৫। তিনি ছাড়া কেউই বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে ট্রিপল সেঞ্চুরি করতে পারেননি। ইংল্যান্ডের জ্যাক ক্রলির ২৬৭ রয়েছে দ্বিতীয় স্থানে। তৃতীয় বিরাট কোহলির অপরাজিত ২৫৪। চতুর্থ স্থানে কেন উইলিয়ামসনের ২৫১। পঞ্চম স্থানে শ্রীলঙ্কার দিমুথ করুণারত্নের ২৪৪। এ ছাড়া ময়াঙ্ক আগরওয়াল ২৪৩ ও ২১৫ রানের ইনিংস খেলেছেন। উইলিয়ামসনের ২৩৮ রানের ইনিংস ছাড়াও উল্লেখযোগ্য ইংল্যান্ড অধিনায়ক জো রুটের ২১৮ ও ২১৫। লাবুশানেও ২১৫ রানের ইনিংস খেলেছেন। ইনিংসে ২১২ রান করেছেন প্রথম ১২-তে রয়েছেন রোহিত শর্মাও। ব্যাটিং গড় সবচেয়ে ভালো মার্নাস লাবুশানের, ৭২.৮২। এরপর বাবর আজমের ৬৬.৫৭। ওয়াশিংটন সুন্দরের ৬৬.২৫ তৃতীয় সেরা। তাঁর পরেই স্টিভ স্মিথের ৬৩.৮৫ ও কেন উইলিয়ামসনের ৬১.২০।

উইকেটশিকারীদের তালিকা

উইকেটশিকারীদের তালিকা

ভারতের স্পিমার রবিচন্দ্রন অশ্বিন গতকালই টপকে গিয়েছেন প্যাট কামিন্সকে, তিনিই সবচেয়ে বেশি উইকেটের মালিক হলেন আইসিসি বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে। ১৪ টেস্টে ২৬ ইনিংসে ৭১টি উইকেট হল তাঁর। অস্ট্রেলিয়ার প্যাট কামিন্স ১৪টি টেস্টের ২৮টি ইনিংসে ৭০ উইকেট নিয়েছেন। স্টুয়ার্ট ব্রড ১৭টি টেস্টের ৩২ ইনিংসে ৬৯ উইকেট পেয়েছেন। নিউজিল্যান্ডের টিম সাউদি ১১টি টেস্টে ২২ ইনিংসে এবং অস্ট্রেলিয়ার নাথান লিয়ঁ ১৪টি টেস্টে ২৭টি ইনিংসে নিয়েছেন ৫৬টি উইকেট। প্রথম দশে অশ্বিন ছাড়া একমাত্র রয়েছেন মহম্মদ শামি। ১১টি টেস্টে ২০ ইনিংসে ৪০ উইকেট নিয়ে রয়েছেন দশম স্থানে। ট্রেন্ট বোল্ট ও ইশান্ত শর্মা নিয়েছেন ৩৯টি করে উইকেট। জসপ্রীত বুমরাহ-র উইকেট সংখ্যা ৩৪।

সেরা বোলিং

সেরা বোলিং

ফাইনালের সেরা বোলার নির্বাচিত হয়েছেন কাইল জেমিসন। ফাইনালে তিনি ৭ উইকেট নিয়েছেন। ফাইনালের সেরা বোলিং ফিগার তাঁর ৩১ রানে ৫ উইকেট। আইসিসি বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে ৭টি টেস্টে ১৪ ইনিংসে তিনি ৪৩টি উইকেট পেয়েছেন। টুর্নামেন্টের সেরা বোলিং ফিগার (ইনিংসে) শ্রীলঙ্কার লসিথ এম্বুলডেনিয়ার ৭ উইকেট ১৩৭ রানের বিনিময়ে। তাঁর পরেই অশ্বিনের ১৪৫ রানে ৭ উইকেট। বুমরাহ ২৭ রানে নিয়েছেন ৬ উইকেট। স্টুয়ার্ট ব্রড ৩১ রানে ৬টি উইকেট দখল করেছেন। ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে অক্ষর প্যাটেলের ৩৮ রানে ৬ উইকেটও রয়েছে সেরা বোলিং ফিগারের তালিকায়। জেমিসনের সেরা বোলিং ফিগার অবশ্য ৪৮ রানে ৬ উইকেট। রবিচন্দ্রন অশ্বিন ৬১ রানেও ইনিংসে ৬ উইকেট নিয়েছিলেন। ইকনমির নিরিখে সবার উপরে পাকিস্তানের নাউমান আলি, ২.১৬। তাঁর পরেই জেমিসন, ২.১৮। ওয়েস্ট ইন্ডিজের কাইল মেয়ার্সের ২.১৯, অক্ষর প্যাটেলের ২.২৪ ও দক্ষিণ আফ্রিকার ভার্নন ফিলান্ডারের ২.২৭-ও রয়েছে সেরা ইকনমির প্রথম পাঁচে

জয়ের নিরিখে

জয়ের নিরিখে

আইসিসি বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে জয়ের শতকরা নিরিখে ভারতই এগিয়ে, ৬৯.৪৪৪ শতাংশ। নিউজিল্যান্ডের ৬৬.৬৬৭, অস্ট্রেলিয়ার ৬৪.২৮৬, ইংল্যান্ডের ৫৯.৫২৪ ও পাকিস্তানের ৪৫. ৮৩৩ শতাংশ রয়েছে প্রথম পাঁচে। সবচেয়ে বেশি ১২টি টেস্ট জিতেছে ভারত। তারপর ইংল্যান্ডের ১১টি টেস্ট জয়। অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ড জিতেছে ৮টি করে টেস্ট। দক্ষিণ আফ্রিকা জিতেছে ৫টি টেস্ট, হেরেছেও সবচেয়ে বেশি ৮টি। ইংল্যান্ড ৭টি, বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কা ৬টি করে টেস্টে হেরেছে। ভারত ও পাকিস্তান হেরেছে পাঁচটি করে টেস্ট। অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ড চারটি করে টেস্ট হেরেছে।

জীবনসঙ্গী খুঁজছেন? বাঙ্গালী ম্যাট্রিমনি - নিবন্ধন নিখরচায়!

English summary
Marnus Labuschagne Highest Run Getter And Ravichandran Ashwin Highest Wicket Taker In ICC WTC. Kyle Jamieson Named Man Of The Match In ICC WTC Final.
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X