• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

চার নম্বরের চিন্তা দূর করলেন রায়ডু, সহঅধিনায়কের চওড়া ব্যাটে ভারত গড়ল রানের পাহাড়

ভারতের মিডল অর্ডারের দুশ্চিন্তা কি কিছুটা হলেও কাটল? চার নম্বরে নেমে মুম্বইয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে শতরান (৮০ বলে ১০০) করলেন আম্বাতি রায়ডু। আর আরও একবার দেড়শ' রানের বেশি ইনিংস খেললেন সহঅধিনায়ক রোহিত শর্মা (১৩৭ বলে ১৬২)। যার ফলে এধিন বিরাট কোহলি রান না পেলেও ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে চতুর্থ একদিনের ম্যাচে ৩৭৮ রানের বিশাল লক্ষ্যমাত্রা দিল ভারত।

সহঅধিনায়কের চওড়া ব্যাটে ভারত গড়ল রানের পাহাড়

এই টুর্নামেন্টে আম্বাতি রায়ডুর সামনে লক্ষ্যটা ছিল বিশ্বকাপের দলে ভারতের ব্যাটিং লাইনআপে চার নম্বর জায়গায় নিজের নামটা পাকা করা। এশিয়া কাপে দলে ফিরে আসার পর থেকে তাঁর রান ছিল যথাক্রমে ৬০, ৩১*, ১৩, ১২*, ৫৭, ২, ২২*, ৭৩ ও ২২। বোঝা যাচ্ছিল তিনি মিড অর্ডার ব্যাটসম্য়ানের ভূমিকায় মানানসই, কিন্তু প্রায় প্রত্যেক ইনিংসেই তিনি ভাল শুরু করেও আউট হযে যাচ্ছিলেন।

তাঁর এদিনের ইনিংস কিন্তু অধিনায়ক কোহলির চিন্তা অনেকটাই কমিয়ে দেবে। এদিন মাত্র ৮০টি বল নিলে তিনি শতরান করতে। মারলেন ৮টি চার ও ৪টি ছয়। শুরুতে খানিক দেখেশুনে খেললেন, শেষের দিকে গিয়ার বদলে পেটালেন তিনি।

সহঅধিনায়ক রোহিত শর্মাকে নিয়ে আর নতুন করে কী বলা যায়? এই নিয়ে ৭-৭টি দেড়শ'র বেশি রানের ইনিংস খেলা হয়ে গেল তাঁর। যে রেকর্ড তাঁর জিনিয়াস অধিনায়কেরও নেই। রোহিতের ব্যাট একার চলতে শুরু করলে বড় শতরান ছাড়া তিনি থামেন না এদিনও তাই হল।

শিখর ধাওয়ান (৪০ বলো ৩৮)- কিন্তু বেশ ভাল শুরু করেছিলেন। ভারতের ওপেনিং জুটি এদিন মাত্র ৮ ওভারেই ৫০ রান তুলে দিয়েছিল। কিন্তু ১২তম ওভারে শিখর ধাওয়ান ফিরে যান নার্সের বলে। এরপর এসেছিলেন বিরাট কোহলি। এদিন সবার নজর ছিল তাঁর দিকেই। গুয়াহাটি, বিশাখাপত্তনম, পুনের পর এদিন আরও একটি শতরান করে তিনি সাঙ্গাকারার পরপর চার ওডিআই ইনিংসে শতরানের রেকর্ড ছোঁবেন ভেবেছিলেন অনেকেই। কিন্তু তা হয়নি। কেমার রোচের একটি ভাল বল তাঁর ব্যাটের কানা ছুঁয়ে যায় উইকেটরক্ষকের হাতে। ১৭ বলে ১৬ করেই ফেরেন তিনি।

তারপর থেকেই শুরু হয়েছিল রোহিত-রায়ডু শো। ১৭ ওভারে ১০২/২ থেকে তাঁরা জুটিতে ভারতের রান নিয়ে যান ৪৩.৫ ওভারে ৩১২/৩ পর্যন্ত। ৩০ ওভার পর্যন্ত ধরে খেললেও তারপর প্রবল মারতে শুরু করেন দুজনেই। পরের ১১ ওভারে তাঁরা ১০০ রান তোলেন! সবাই য়খন ধরে নিয়েছেন একদিনের ক্রিকেটে নিজের ৪ নম্বর দ্বিশতরান করতে চলেছেন রোহিত, তখনই আউট হল রোহিত।

নার্সের একটি বাইরের বল স্লাইস করেছিলেন তিনি। কিন্তু ঠিকঠাক ব্যাটে-বলে না হওয়ায় তা সরাসরি চলে যায় শর্ট থার্ড ম্যানের হাতে। রোহিতের ইনিংসে ছিল ২০টি চার ও ৪টি ছয়। আর রায়ডুর পতন হয় শতরান করার পরই। পুনেতেই অভিষেক হওয়া ফাবিয়ান অ্যালেনের বল ঠেলেই রান নিতে দৌড়েছিলেন। কিন্তু তিনি সম্ভবত জানতেন না, এই ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলের সেরা ফিল্ডার অ্যালেন। সেকেন্ডের ভগ্নাংশে তিনি দৌড়ে গিয়ে ননস্ট্রাইকার প্রান্তের উইকেট সরাসরি থ্রোতে ভেঙে দেন।

শেষ দিকে দোনি (১৫ বলে ২২) ও কেদার যাদব (৭ বলে ১৬)-এর ক্যামিও ইনিংসে ভারত শেষ ১০ ওভারে ১১৬ রান তোলে। এই রানটা ওয়েস্ট ইন্ডিজ ব্যাটসম্যানরা তাড়া করতে পারেন কিনা সেটাই দেখার।

English summary
With 2 centuries of Rohit Sharma and Ambati Rayudu India has put up a big total for West Indies to chase in the 4th ODI in Mumbai.
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X