• search
For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

আগামী অর্থবছরেই ভারতীয় বিমান সংস্থা গুলির ৬০০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ক্ষতির সম্ভাবনা

  • |

জেট এয়ারওয়েজের বন্ধ হয়ে যাওয়া এবং জ্বালানির দাম নিয়ন্ত্রণের আনতে না পারার ফলে ২০২০ অর্থবছরে ভারতীয় বিমান পরিষেবায় প্রায় ৬০০ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের ক্ষতির সম্ভাবনা। সম্প্রতি বিমান বিষয়ক পরামর্শক সংস্থা সিএপিএ তাদের সদ্য প্রকাশিত একটি প্রতিবেদনে এই তথ্য প্রকাশ করেছে।

২০২০ অর্থবছরে ভারতীয় বিমান পরিষেবায় বিপুল ক্ষতির সম্ভাবনা

এই নতুন তথ্যটি চলতি বছরের জুনে প্রকাশিত তথ্যের তুলনায় অনেকটাই আলাদা বলে স্পষ্টতই দেখা যাচ্ছে। পাঁচ মাস আগেও যখন ভারতে বিমান শিল্পে এই পর্যায়ের সঙ্কট দেখা যায় নি তখন তখন চলতি অর্থবছরের জন্য সিএপিএ ৫০০-৭০০ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের নিট মুনাফা অনুমান করেছিল।

সিপএপিএ-র পরিসংখ্যানে মাত্র একটি ত্রৈমাসিকে ভারতীয় বিমান পরিষেবার আয়ের এই পারাপতন গত ১৬ বছরেও দেখা যায়নি বলে মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল। এদিকে গত মাসেই স্পাইসজেট এবং ইন্ডিগোর যথাক্রমে ৪৬২.৬ কোটি এবং ১,০৬২ কোটি টাকার লোকসানের খবর মিলেছে।

সূত্রের খবর, ২০২০ সালের মধ্যে এয়ার ইণ্ডিয়ার সম্পূর্ণরূপে বেরসকারীকরণ প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ হবে। যদিও এই প্রসঙ্গে এর আগে সিএপিএ জনায় বেসরকারিকরণের ফলে এয়ার ইণ্ডিয়ার প্রায় ১৫০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ক্ষতি হতে পারে। যদিও পরে নতুন পরিসংখ্যানে এই বিমান পরিষেবা পরিদর্শক সংস্থা জানায় সরকারের এই পদক্ষেপের ফলে এয়ার ইণ্ডিয়ার লোকসানের পরিমাণ ৫০০ মিলিয়ন ডলার ছাড়িয়ে যেতে পারে।

English summary
Airlines can report more than USD 600 million losses in FY20
চটজলদি খবরের আপডেট পান
Enable
x
Notification Settings X
Time Settings
Done
Clear Notification X
Do you want to clear all the notifications from your inbox?
Settings X