Oneindia থেকে ব্রেকিং নিউজের আপডেট পেতে

সারাদিন ধরে চটজলটি নিউজ আপডেট পান

You can manage them any time in browser settings

পশ্চিমবঙ্গের এই ৫টি রাজবাড়িতে রয়েছে রাত্রিবাসের রাজকীয় বন্দোবস্ত

Subscribe to Oneindia News

অনেকদিন ধরে উইকেন্ড ট্যুর -এ যাবেন ভাবছেন, কিন্তু সপ্তাহের ক্লান্তি দূর করতে কাছে পিঠে ঠিক কোথায় যাবেন বুঝে উঠতে পারছেনা। একদিনে ঘুরে বাড়ি ফিরে আসার জায়গা তো বহু রয়েছে হাতের কাছে। তবে চিডি়য়াখানা, ভিক্টোরিয়াতে শীতের আমেজে যা ভিড় তাতে ক্লান্তি দূর করা দায় ! তাহলে উপায়?

উপায় আছে বৈকি, সারা পশ্চিমবঙ্গে ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে বহু ঐতিহ্যবাহী জমিদারি বাড়ি। আর সেখানে থেকে খেয়ে একরাত কাটানোর সুবন্দোবস্তও রয়েছে। আসুন তাহলে এক নজরে দেখে নেওয়া যাক পশ্চিমবঙ্গের ৫ টি ঐতিহ্যশালী জমিদার বাড়ি।

বলাখানা রাজবাড়ি

বলাখানা রাজবাড়ি

নদীয়ার কৃষ্ণনগর থেকে ১১.৫ কিমি দূরে নবদ্বীপ ঘাট রোডের ওপর অবস্থিত এই রাজবাড়ি। প্রধান আকর্ষণ বলতে রয়েছে ৪ ফুট উঁচু পালঙ্ক, যেখানে সিঁড়ি বেয়ে ওঠার ব্যবস্থা রয়েছে। এখানে থাকার জন্য় ঘর পিছু খরচ ৩,৫০০টাকা। ফরাসী সাহেবদের এক সময়ের অবস্থান ছিল এই রাজবাড়ী, পরে এই বাড়ির মালিক হন পালচৌধুরিরা।
যোগাযোগ-09831328486

বাওয়ালি রাজবাড়ি

বাওয়ালি রাজবাড়ি

কলকাতা থেকে ৩৩.৪ কিমি দূরে অবস্থিত বাওয়ালি রাজবাড়ি। ট্রেনে যেতে হলে বজবজ স্টেশনে নেমে যাওয়া যেতে পারে। বজবজে নেমে রিক্সোতে কয়েক মিনিটে পৌঁছে যেতে পারবেন বাওয়ালি রাজবাড়ি। রাজবাড়ির ৪ টি ঘরে পর্যটকদের থাকবার জন্য বন্দোবস্ত করা রয়েছে। প্রতিটি ঘরের জন্য় খরচ ৭,৫০০ টাকা। সঙ্গে থাকছে রাজবাড়ির জমিদার পরিবারের ৩০০ বছরের পুরোনো রন্ধনশৈলির খাওয়াদাওয়া।
যোগাযোগ-098303 83008

ইটাচুনা রাজবাড়ি

ইটাচুনা রাজবাড়ি

দুর্গাপুর এক্সপ্রেসওয়ে থেকে দেড়ঘণ্টার রাস্তা পেরোলেই এই রাজবাড়ি। হুগলীর চুঁচুড়া থেকে ১৯ কিমি এগোলেই হালসুই মোড়ের কাছে যেতে হবে। বাঁদিকে বেঁকলেই ইটাচুনা গ্রাম। এছাড়াও হাওড়া থেকে বর্ধমান মেন লাইনে যেতে খন্যান স্টেশনে নেমে রিক্সোয়ে করে যাওয়া যায় এই রাজবাড়ি। রাজবাড়িতে বিখ্যাত মদনমোহনের মন্দির ছাড়াও দেখার জন্য রয়েছে অনেক কিছুই। এখানেই শ্যুটিং হল সোনাক্ষী-রনবীর অভিনীত ছবি 'লুটেরা'-এরও। পর্যটকদের থাকবার জন্য ১৪টি ঘরের বন্দোবস্ত রয়েছে এখানে। সঙ্গে থাকছে রাজকীয় বাঙালী খাবারের ব্যবস্থা। এখানে প্রতিটি ঘরের ভাড়া ১,৫০০ টাকা থেকে শুরু।
যোগাযোগ- 098302 36940

সাইনো হেরিটেজ গেস্ট হাউস

সাইনো হেরিটেজ গেস্ট হাউস


দার্জিলিং থেকে ২৮ কিমি দূরে পাহাড়ের কোলে রয়েছে সাইনো হেরিটেজ গেস্টহাউস। একসময় ব্রিটিশ সাহেবদের দখল ছিল এই ঐতিহ্যশালী জায়গা। এখানে 'বনফায়ার'-এর আকর্ষণের পাশাপাশি রয়েছে বাড়ির বারান্দা থেকে পাহাড়ি প্রকৃতিকে দুচোখে মেখে নেওয়ার সুযোগ। রয়েছে 'ক্যান্ডেল লাইট ডিনার'-এর রাজকীয় ব্যবস্থা। প্রতিটি ঘরের ভাড়া ১,৬০০ টাকা।
যোগাযোগ- 094749 63183

কাশিমবাজার রাজবাড়ি

কাশিমবাজার রাজবাড়ি

মুর্শিদাবাদের বহরমপুর থেকে ২.৯ কিমি এগোলেই কাশিমবাজার রোডে পড়বে কাশিমবাজার রাজবাড়ি। রাজবাড়ির ৩টি ঘরকে বর্তমানে থাকবার জন্য় ভাড়া দেওয়া হয়। প্রতিটি ঘরের ভাড়া ১,৩৫০ টাকা। নবারের শহর মুর্শিদাবাদে এরকম এক রাজবাড়িতে থাকবার অভিজ্ঞতাই আলাদা বলে জানিয়েছেন রাজবাড়ির সদস্যরা।
যোগাযোগ- 098310 31108

English summary
Rajbaris of West Bengal are the best places to be. Of late, a few rajbaris, which were once the grand residences of zamindars, have regained lost glory as commercial spaces and are also offering homestay facilities.
Please Wait while comments are loading...