Oneindia থেকে ব্রেকিং নিউজের আপডেট পেতে

সারাদিন ধরে চটজলটি নিউজ আপডেট পান

You can manage them any time in browser settings

আউশগ্রামে অনুব্রত মণ্ডলের সভায় আপত্তি নেই, প্রশাসনের ‘অ্যালার্জি’ অধীর চৌধুরীর সভায়

Subscribe to Oneindia News

বর্ধমান, ৩০ জানুয়ারি : অনুব্রত মণ্ডলের সভায় আপত্তি নেই, 'অ্যালার্জি' প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর চৌধুরীর সভা ঘিরেই। ফের আউশগ্রাম পুলিশ-প্রশাসনের দ্বি-মুখী মনোভাব প্রকট হয়ে পড়ল। আউশগ্রাম কাণ্ডের প্রতিবাদে সোমবার বর্ধমানের গুসকরায় সভা করার অনুমতি পেলেন না প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি। অথচ আগামীকাল আউশগ্রামে তৃণমূলের বীরভূম জেলা সভাপতির সভার জন্য মঞ্চ বাঁধার কাজ শেষের পথে।[ভাঙড়ের আন্দোলনকে দিল্লি পৌঁছে দিতে চান অধীর, মিছিলকে সমর্থন কংগ্রেসের]

কেন অধীর চৌধুরীর সভার অনুমতি দিল না প্রশাসন? আইন শৃঙ্খলার কারণেই প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতির অনুমতি দেওয়া যাচ্ছে না বলে সাফাই গেয়েছে পুলিশ। তাহলে কেন আউশগ্রামে সভা করার অনুমতি পেলেন অনুব্রত মণ্ডল? প্রশ্ন উঠে পড়েছে, পুলিশ কেন নিরপেক্ষ হবে না?[গ্রেফতার সিপিএম জোনাল সম্পাদকও, তৃণমূল-সিপিএম গোপন বৈঠকে তৈরি হয় থানা হামলার ব্লু-প্রিন্ট!]

আউশগ্রামে অনুব্রত মণ্ডলের সভায় আপত্তি নেই, প্রশাসনের ‘অ্যালার্জি’ অধীর চৌধুরীর সভায়

ঠিক যে কারণে আউশগ্রাম উত্তাল হয়ে উঠেছিল দু'দিন, আবারও সেই পক্ষপাত দুষ্টতার অভিযোগ পুলিশে বিরুদ্ধে। ঠেকেও শিখছে না পুলিশ।
আজ অর্থাৎ সোমবার গুসকরায় অধীর চৌধুরীর সভা। আগামীকাল অর্থাৎ মঙ্গলবার আউশগ্রামে অনুব্রত মণ্ডলের সভা। বর্ধমান পুলিশ প্রথম সভার অনুমতি দিল না। অথচ সবুজ সঙ্কেত পেয়ে গেলেন অনুব্রত। এ কেমন বিচার পুলিশের?[আউশ গ্রামের ধুন্ধুমারে গ্রেফতার তৃণমূল নেতা-সহ ১১]

শনিবার আউশগ্রাম থানা হামলাকে কেন্দ্র করে উত্তাল হয়ে উঠেছিল আউশগ্রাম। পুলিশ পিটিয়ে থানায় হামলা চালিয়েছিল গ্রামবাসীরা। অগ্নিসংযোগ করা হয়েছিল থানায়। অসহায় পুলিশের দেখা ছাড়া কোনও কাজ ছিল না। শুধু চোখের জলই সম্বল ছিল তাঁদের। স্কুলের জায়গায় বেআইনি নির্মাণকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা চরমে পৌঁছয়।[জনরোষে চোখের সামনে জ্বলল থানা, অসহায় পুলিশের কান্নাই সম্বল]

এদিকে জেলা কংগ্রেস সূত্র জানা গিয়েছে, প্রশ্ন অনুমতি না দিলেও প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি গুসকরায় যাচ্ছেন। প্রশাসন তাঁকে গুসকরায় ঢুকতে দেন কি না, তাই এখন দেখার। নতুন কের এই ঘটনায় উত্তেজনা ছড়াতে পারে বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহল। এক্ষেত্রেও সমালোচিত পুলিশ। পুলিশ অধীর চৌধুরীকে সভার অনুমতি দিলে উত্তেজনা তৈরির সম্ভাবনা কমত।

English summary
There is no objection to the meeting of Anubrata Mondal at Aaushgram. Administration has 'allergy' to the meeting of Adhir Choudhury.
Please Wait while comments are loading...