Oneindia থেকে ব্রেকিং নিউজের আপডেট পেতে

সারাদিন ধরে চটজলটি নিউজ আপডেট পান

You can manage them any time in browser settings

ক্যানসার কেড়ে নিয়েছে ছেলেকে, দেহ নিয়ে বাংলাদেশ যাওয়ার পথে মৃত্যু বাবারও

দূরারোগ্য ক্যানসারে আক্রান্ত ছেলেকে নিয়ে চিকিৎসার জন্য এদেশে এসেও শেষ রক্ষা হয়নি। ছেলেকে হারিয়ে কফিনবন্দি দেহ নিয়ে ওপার বাংলায় ফিরছিলেন বাবা-মা।

Subscribe to Oneindia News

উত্তর ২৪ পরগনা, ১৮ এপ্রিল : দূরারোগ্য ক্যানসারে আক্রান্ত ছেলেকে নিয়ে চিকিৎসার জন্য এদেশে এসেও শেষ রক্ষা হয়নি। ছেলেকে হারিয়ে কফিনবন্দি দেহ নিয়ে ওপার বাংলায় ফিরছিলেন বাবা-মা। প্রখর রোদে ছেলের কফিনবন্দি দেহ সীমান্তের নো ম্যানস ল্যান্ডে রেখে চির ঘুমে ঘুমিয়ে পড়লেন বাবাও।

সোমবার পেট্রাপোল সীমান্তে এই মর্মান্তিক ঘটনা ঘটে। ছেলেকে হারানোর শোক, তারপর তীব্র গরম- তারই জেরে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হল রফিকের। ছেলের রোগ সারাতে এসে স্বামী-সন্তানকে হারিয়ে 'একা' হয়ে গেলেন আসমা বিবি।

ছেলের মরদেহ নিয়ে যাওয়ার সময়ে পথে মৃত্যু বাবারও

দু'দেশের সীমান্তের মূল ফটকে দাঁড়িয়ে ছেলের কফিনবন্দি দেহ নিয়ে অপেক্ষা করছিলেন স্বামী-স্ত্রী। কখন হাই কমিশনারের অফিস থেকে আসবে ছাড়পত্র। তখনই ঘটে গেল মর্মান্তিক ঘটনা। ছেলের কফিনের উপরই পড়ে যান রফিক। ছেলের দেহ ফেলে রেখে স্বামীকে নিয়ে ছুটলেন হাসপাতালে। সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিলেন সীমান্তরক্ষীরাও। কিন্তু বনগাঁ মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে গেলে তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করা হয়। ময়নাতদন্তের পর আসমা বিবি স্বামী-সন্তানের দেহ নিয়ে বাংলাদেশে পাড়ি দেন।

বছর ১৫-র আসাদ ক্যানসার আক্রান্ত। তাঁকে সুস্থ করার উদ্দেশ্যে বাংলাদেশের গাজিপুর থেকে কলকাতায় এসেছিলেন রফিক ও আসমা। ছেলের মৃত্যুর পর সোমবার দুপুরে কফিন বন্দি দেহ নিয়ে বাংলাদেশে ফিরছিলেন দু'জনে। তখনই হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু ঘটে রফিকের।

English summary
Father was died on his way to Bangladesh with son's body
Please Wait while comments are loading...