Oneindia থেকে ব্রেকিং নিউজের আপডেট পেতে

সারাদিন ধরে চটজলটি নিউজ আপডেট পান

You can manage them any time in browser settings

এক ম্যাচে ৪৩টি গোল খাওয়ায় পুলিশ তুলে নিয়ে গেল গোলকিপারকে!

  • By: OneIndia Bengali Digital Desk
Subscribe to Oneindia News

জার্মানির নীচুতলার ক্লাব এসভি ভন্ডারোর্ট শুধু যে তাদের প্রবল প্রতিপক্ষ পিএসভি ওবারহওসেনের কাছে রেকর্ড পরিমাণে গোল খেয়ে হেরেছে তাই নয়। স্কোরলাইন একেবারে ৪৩-০। আর যা নিয়ে হইচই শুরু হয়েছে জার্মানিতে। [নারী-পুরুষ একে অপরকে ছাড়াই জন্ম দিতে পারবে সন্তানের!]

ভন্ডারোর্ট দলের বেশিরভাগ খেলোয়াড়ই সিরিয়া, ইরাক ও গিনি থেকে আসা উদ্বাস্তু। অ্যামেচার এই দলের গোলকিপার মার্কো কিয়োটেকই তেকাঠির তলায় দাঁড়িয়ে এতগুলি গোল হজম করেছেন। অর্থাৎ প্রায় প্রতি ২ মিনিটে একটি করে গোল খেয়েছেন তিনি ও তাঁর দল ভন্ডারোর্ট। ['ফুটন্ত নদী'-র সন্ধান পেলেন বিজ্ঞানীরা]

এক ম্যাচে ৪৩টি গোল খাওয়ায় পুলিশ তুলে নিয়ে গেল গোলকিপারকে!

খেলার হাফ টাইম পর্যন্ত ৩৫-০ গোলে এগিয়ে ছিল ওবারহওসেন। তবে দ্বিতীয়ার্ধে কিছুটা ভালো খেলে মাত্র ৮টি গোল খান মার্কো। ফলে সবমিলিয়ে গোললাইন দাঁড়ায় ৪৩-০। [গীর্জায় চোখ খুললেন 'যীশু খ্রিস্ট', কিংকর্তব্যবিমূঢ় ভূত বিশারদরা!]

জানা গিয়েছে, একসময়ে খেলতে খেলতে ৮ জন খেলোয়াড়ে দাঁড়িয়ে গিয়েছিল ভন্ডারোর্ট। সৌজন্য দেখিয়ে তাই ওবারহওসেনও নিজেদের তিনজন খেলোয়াড় কমিয়ে ৮ জনে ম্যাচ খেলে। যদিও তাতে গোল খাওয়া কমেনি। [এই ছবিগুলি দেখলে আঁতকেই উঠতে হবে!]

ম্য়াচ শেষ হওয়ার পাঁচদিন পরে ভন্ডারোর্টের খেলোয়াড়রা যখন নিজেদের মাঠে অনুশীলন করছিলেন, তখনই পুলিশ এসে চ্যাংদোলা করে ধরে নিয়ে যায় সেই ম্যাচের গোলকিপার মার্কোকে। তবে কি কারণে তাঁকে ধরা হয়েছে তা জানায়নি পুলিশ। শুধু জানা গিয়েছে, জিজ্ঞাসাবাদের পরই মার্কোকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

এই বিষয়ে ক্লাবের ম্যানেজিং ডিরেক্টর ক্রিশ্চিয়ান স্রোয়ার বলেন, আমি এই ব্যাপারে কিছুই জানি না। পুলিশ কিছু বলছে না। এদিকে মার্কোকে ফোনে পাওয়া যাচ্ছে না। প্রথমে ও এতগুলি গোল খেল, এবং তারপরে ওকে পুলিশ তুলে নিয়ে গেল।

English summary
German goalkeeper questioned by police after conceding 43 goals in one game
Please Wait while comments are loading...