Oneindia থেকে ব্রেকিং নিউজের আপডেট পেতে

সারাদিন ধরে চটজলটি নিউজ আপডেট পান

You can manage them any time in browser settings

রাজ্যে বাজেট পেশ ১০ ফেব্রুয়ারি, পাস হতে পারে শিক্ষা ও সরকারি সম্পত্তি সংক্রান্ত দু’টি বিল

Subscribe to Oneindia News

কলকাতা, ৩১ জানুয়ারি : এবার রাজ্য বাজেট পেশ হবে আগামী ১০ ফেব্রুয়ারি। মঙ্গলবার বিধানসভায় সর্বদলীয় বৈঠক শেষে এ কথা ঘোষণা করা হয়। এবার বাজেট অধিবেশনে দু'টি বিল পাস হতে পারে বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহল। এদিন সর্বদলীয় বৈঠক বয়কটের সিদ্ধান্ত নেয় বিজেপি ও কংগ্রেস। ফলে দু'দলের কোনও বিধায়ক উপস্থিত ছিলেন না। তবে বামফ্রন্ট অংশগ্রহণ করে অধ্যক্ষের ডাকা সর্বদলীয় বৈঠকে।

এবার বাজেটে অন্তত দু'টি বিল পাস হতে পারে বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহল। গতবার অধিবেশনে শিক্ষা সংক্রান্ত একটি বিল স্থগিত রাখা হয়েছিল। সেটি আরও পরিমার্জন দরকার বলে তা পাস করা হয়নি। কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয় নিয়ন্ত্রণ বিল এবার নবরূপে আসতে পারে। সেইসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষিত সরকারি সম্পত্তি নষ্টে নয়া বিল এই বাজেট অধিবেশনেই আনা হতে পারে।

রাজ্যে বাজেট পেশ ১০ ফেব্রুয়ারি, পাস হতে পারে শিক্ষা ও সরকারি সম্পত্তি সংক্রান্ত দু’টি বিল

আগামী ৩ ফেব্রুয়ারি থেকে রাজ্য বিধানসভায় শুরু হচ্ছে বাজেট অধিবেশন। তার আগে এদিন সর্বদলীয় বৈঠক ডাকেন স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়। তৃণমূলকে পাল্টা দিতেই এই সর্বদলীয় বৈঠক বয়কট করে বিজেপি। উল্লেখ্য, তৃণমূলও গতকাল কেন্দ্রের বাজেট অধিবেশনের আগে সর্বদলীয় বৈঠক বয়কট করেছিল। তারপর বাজেট অধিবেশেনর প্রথন দু'দিনও বয়কট করার সিদ্ধান্ত নেয়।

তৃণমূল এই বয়কটের পিছনে কারণ দর্শিয়ে ছিল, নোট কাণ্ডের সমাধান না করে পাঁচ রাজ্যে বিধানসভার আগে বাজেট পেশ করছে কেন্দ্রীয় সরকার। তারপর তাঁদের দুই সাংসদকে মিথ্যে মামলায় ফাঁসিয়ে গ্রেফতার করা হয়েছে। আবার এই তালিকায় রয়েছেন তৃণমূলের লোকসভার সাংসদ সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়ও। তাই নোট কাণ্ড ও গ্রেফতারির প্রতিবাদে তৃণমূলের এই বয়কট সিদ্ধান্ত।

বিজেপিও তাঁদের সর্বদলীয় বৈঠক বয়কটের কারণ হিসেবে তুলে ধরে সেই গ্রেফতারির তত্ত্বই। বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেন, বিরোধীদের গ্রেফতারির চক্রান্ত চলছে। বিঘানসভায় তাঁদের বলতে দেওয়া হচ্ছে না। সেই কারণেই এই প্রতিবাদ।

কংগ্রেস, সিপিএম ও বিজেপি-র দাবি, এবার অধিবেশনে তাঁদের দাবি থাকবে, বিরোধীদের মর্যাদা দিতে হবে। তাঁদের বলার সুযোগ দিতে হবে আরও। আর ভাঙড়কাণ্ডে কৃষকদের উপর জমি নিয়ে যে অত্যাচার চলেছে, সেগুলি আলোচনায় গুরুত্ব দিতে হবে।

English summary
The state budget on 10th February. Congress-BJP boycotted the all-party meeting.
Please Wait while comments are loading...