Oneindia থেকে ব্রেকিং নিউজের আপডেট পেতে

সারাদিন ধরে চটজলটি নিউজ আপডেট পান

You can manage them any time in browser settings

৭০তম স্বাধীনতা দিবসে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বক্তৃতার সারাংশ!

  • By: Oneindia Bengali Digital Desk
Subscribe to Oneindia News

নয়াদিল্লি, ১৫ আগস্ট : কড়া নিরাপত্তার বজ্র আঁটুনি। ১২০০০ পুলিশ অফিসার এহং একাধিক কেন্দ্রীয় বাহিনি, ড্রোনের কড়া নজরদারির মধ্যেই দিল্লির লালকেল্লায় ভারতের ৭০তম স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষ্যে লালকেল্লা থেকে বক্তৃতা পেশ করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। পতাকা উত্তোলেন পর এদিন বক্তৃতা রাখতে শুরু করে প্রধাননমন্ত্রী।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন নয়াদিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল, বিজেপির সভাপতি অমিত শাহ-সহ বিশিষ্ট ব্যক্তিরা।

৭০তম স্বাধীনতা দিবসে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বক্তৃতার সারাংশ!

নিজের ভাষণে কি কি বললেন প্রধানমন্ত্রী একঝলকে দেখে নেওয়া যাক

  • অতীতে সরকারের কাজকে নিরুদ্যম বলেই গণ্য করা হত। তবে এখন পরিস্থিতি অনেকটাই অনুকুলে এসেছে। সরকারে নতুন উদ্দীপনা ও এনার্জির সঞ্চার হয়েছে।
  • আমার প্রথমবারের বক্তব্যে আমি জিজ্ঞাসা করেছিলাম আমরা কীভাবে আমাদের দেশের শৌচ ব্যবস্থার মতো গুরুত্বপূর্ণ সমস্যার সমাধান করতে পারি। অত্যন্ত কম সময়ের মধ্যে আমরা ২ কোটি শৌচালয় তৈরি করেছি। এর ফলে ৭০,০০০-এর বেশি গ্রামবাসী উপকৃত হয়েছেন এবং সংক্রমণনুক্ত জীবনযাপনে সমর্থ হয়েছেন।
  • ২০১৪ সালে ১৮,০০০ -এর বেশি গ্রামে বিদ্যুৎ ছিল না। আমরা ক্ষমতায় আসার পর ১০০০ দিনের মধ্যে গ্রামগুলোয় বিদ্যুৎ পৌঁছনোর শপথ নিয়েছিলাম। এখনও অর্ধেক সময়ও অতিক্রান্ত হয়নি তবু আমরা ১০,০০০ গ্রামে ইতিমধ্যে বিদ্যুৎ পৌঁছে দিতে পেরেছি।
  • অতীতে আমাদের সরকারের অভ্যাস ছিল যেখানে প্রয়োজন নেই সেখান নাক গলানোর। যেখানে প্রয়োজন সেখানে সরকার চুপ থাকত। আমাদের হস্তক্ষেপে এলএডি বাল্বের দাম আমরা ৩৫০ টাকা থেকে কমিতে ৫০ টাকা করেছি। আমি জানতে চাইছি না সেই টাকাগুলো কোথায় গেল, শুধু জানাতে চাই এইধরণের ১৩ কোটি বাল্ব আমরা সরবরাহ করেছি। আমরা আরও ৭৭ কোটি এলইডি বাল্ব মানুষের কাছে পৌঁছে দিতে চাই। তাই আমার অনুরোধ যারা এলইডি বাল্ব ব্যবহার করুন এবং বিদ্যুৎ সঞ্চয়ে দেশের সাহায্য করুন। ৭৭ কোটি এলইডি বাল্ব ২০,০০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ বাঁচাবে যার আর্থিক মূল্য ১.২৫ লক্ষ কোটি টাকা।
  •  অতীতে মুদ্রাস্ফীতির হার ১০ শতাংশ ছিল। আমাদের সরকারের প্রচেষ্টায় আমরা তা কখনও ৬ শতাংশের বেশি বাড়তে দিইনি। আমরা আগামীদিনেও এমনভাবে কাজ করব এবং নিশ্চিত করব যাতে মুদ্রাস্ফীতির ফলে দরিদ্রের পাতে খাবারের অভাব না হয়।
  • ডাল সমস্যার মোকাবিলা করতে আমাদের কৃষক ভাইয়েরা এগিয়ে এসেছেন। এরজন্য আমরা বোনাস ও বিভিন্ন প্রকল্প ঘোষণা করেছি। ডালের সাধারণ উৎপাদনের চেয়ে ১.৫ গুন বেশি ডালের উৎপাদন দেখিয়েছেন তারা। জলসংরক্ষণ ও সেচকে আমরা আমরা আরও গুরুত্ব দিয়ে আরও বড় করে করার জন্য প্রকল্প এনেছি।
  • অতীতে কৃষক ভাইদের একাধিক সমস্যার সম্মুখীন হতে হতো। তার মধ্যে অন্যতম ছিলে সারের ঘাটতি। এই সমস্যা আমরা অনেকটাই দুর করতে পেরেছি।
  • আমার সরকার থেকে দুর্নীতি দুর করতে আমার যথাসাধ্য চেষ্টা করেছি। আমরা কাজে স্বচ্ছতা এনেছি। আমরা সরকারের ভাবমূর্তির চেয়ে সর্বদা দেশের ভাবমূর্তিকে গুরুত্ব দিয়েছি।
  • সংস্কার, সঞ্চালন, রুপান্তর এই তিন হল সরকারের মূল মন্ত্র। এমন বহু প্রকল্প ছিল যা আটকে পরেছিল। আমরা তার পুনরুদ্ধার করেছি। আমরা প্রতীকের চেয়ে পদার্থকে বেশি মূল্য দিই, বিচ্ছিন্ন উন্নয়নের চেয়ে সমন্বিত উন্নয়নে বেশি জোর দিই আর আখ্যা দেওযার চেয়ে ক্ষমতায়নে বিশ্বাস করি বেশি।
  • বন্ধ হয়ে যাওয়া ৯০টি সেচপ্রকল্প পুনরুদ্ধারের চেষ্টা চলছে। কৃষকদের স্বার্থে ৭৭,০০০ সৌরশক্তিচালিত পাম্প কৃষক পরিবারের কাছে পৌঁছে দেওয়া হয়েছে। ১৫ লক্ষ টন খাবার রাখার মতো গুদামঘর তৈরি করা হয়েছে। খাদ্যপ্রক্রিয়াকণে জোর দেওয়া হচ্ছে।
  • এয়ার ইন্ডিয়ার ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ হয়েছিল। এখন লাভে চলছে। টেলিকম সংস্থাগুলি বেড়ে উঠলেও BSNL লোকসানে চলছিল। BSNL ও এখন লাভের মুখ দেখেছে। আগে অনেক দুর্নীতি ছিল। এখন তা আমরা ছেঁটে ফেলতে পেরেছি।
  • কয়লা বন্টন নিলাম নিয়ে আগে দুর্নীতির অভিযোগ ছিল। এখন তা স্বচ্ছতার সঙ্গে হয়। দেশ প্রচন্ডভাবে লাভবান হয়েছে।
  • GDP বৃদ্ধিতে আমরা অনেক দেশকে পিছনে ফেলে এগিয়ে গিয়েছি। সদ্য পাস হওয়া জিএসটি বিল ভারতকে অনেকদূর এগিয়ে নিয়ে যাবে। সমস্ত রাজনৈতিক দলগুলির কৃতজ্ঞতা প্রাপ্ত।
  • নারীকল্যানে আমরা অনেক পন্থা অবলম্বন করেছি। মুদ্রা প্রকল্প থেকে ৩.৫ কোটি পরিবার সুবিধা পাচ্ছে। গর্ভবতী মহিলাদের মাতৃত্বকালীন ছুটির সময়সীমা ২৬ সপ্তাহ করা হয়েছে।
  • এখন কৃষকরা তাদের দ্রব্য অনলাইন বাজারে যে কোনও জায়গায় বিক্রি করতে পারে। GST আমাদের করকে অভিন্ন করে আমাদের ঐক্যসাধন হয়েছে।
  • বৈচিত্রের মধ্যে ঐক্য আমাদের শক্তি। আমাদের সমাজে হিংসার কোনও জায়গা নেই। ভারত কখনও সন্ত্রাসবাদকে প্রশ্রয় দেয় না। যে তরুণ ও যুবকরা হাতে বন্দুক তুলে নিয়েছে তাদের আমার একান্ত অনুরোধ মা-বাবার কাছে ফিরে এসো। হিংসাকে কড়া জবাব দাও।
  • সার্ক দেশগুলির একটা সমস্যা রয়েছে আর তা হল দারিদ্র। আমি সবাইকে আহ্বাণ জানাচ্ছি, আসুন সবাই একসঙ্গে দারিদ্রের মোকাবিলা করি। দারিদ্র থেকে স্বাধীনতা পাওয়ার চেয়ে বড় স্বাধীনতা আর নেই।
  • পেশোয়ারের সন্ত্রাস হামলায় প্রচুর নিষ্পাপ মানুষের প্রাণ গিয়েছে। কিন্তু সংসদে আমাদের সবার চোখ ভিজেছিল কান্নায়। এই হল আমাদের ভারত। কিন্তু এমন হাত রয়েছে যারা সন্ত্রাসবাদকে প্রশ্রয় দেয়। কারা সন্ত্রাসবাদকে প্রশ্রয় দেয়? মানুষ মারা গেলে কারা আনন্দোৎসব পালন করে।
  • বালোচিস্তান, গিলগিট, বালতিস্তান এবং পাক অধিকৃত কাশ্মীরের এমন বহু মানুষ তাদের ভালবাসা ও শুভেচ্ছা আমাকে জানিয়েছেন যেখানে আমি এখনও যেতে পারিনি। আমি দেখা করতে পারিনি তাদের সঙ্গে। তাদেরকে অসংখ্য ধন্যবাদ জানাই।
English summary
PM Modi Addresses The Nation From Red Fort On India's 70th Independence Day
Please Wait while comments are loading...