Oneindia থেকে ব্রেকিং নিউজের আপডেট পেতে

সারাদিন ধরে চটজলটি নিউজ আপডেট পান

You can manage them any time in browser settings

বিবাহিত মহিলারা অন্যদের চিত্তচাঞ্চল্য ঘটায়, তাই আবাসিক কলেজে পড়ার যোগ্য নয় : তেলেঙ্গানা সরকার

Subscribe to Oneindia News

হায়দ্রাবাদ, ২ মার্চ : শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বিবাহিত মহিলারা অন্য পড়ুয়াদের চিত্তচাঞ্চল্যের কারণ। অন্তত এমনটাই মনে করে তেলেঙ্গানা সরকার। আর সেই কারণেই রাজ্যের সামাজিক কল্যাণ আবাসিক মহিলা ডিগ্রি কলেজগুলিতে ভর্তি হওয়ার জন্য একমাত্র অবিবাহিত মহিলাদেরই যোগ্য বলে গণ্য করা হচ্ছে।[স্বামী পর্নোগ্রাফিতে আসক্ত, সরাসরি সুপ্রিম কোর্টে অভিযোগ স্ত্রীর]

তেলেঙ্গানা স্যোসাল ওয়েলফেয়ার রেসিডেন্সিয়াল এডুকেশনাল ইন্সটিটিউশনস সোসাইটি (TSWREIS) নিজেদের ওয়েবসাইটে একটি বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, "টিএসডব্লু রেসিডেন্সিয়াল ডিগ্রি কলেজ ফর ওয়েমেন TSWDCET-২০১৭ বিএ/বিকম/বিএসসি ডিগ্রি ইরাজি মাধ্যম পাঠক্রমে ভর্তির অনলাইন আবেদনের জন্য শুধুমাত্র অবিবাহিত মহিলা প্রার্থীদের আমন্ত্রণ জানানো হচ্ছে।"[প্রথমবার বিয়ের পিঁড়িতে বসা বউ ঘর করেছেন তিন স্বামীর, অভিযোগ দায়ের পুলিশে]

বিবাহিত মহিলারা অন্যদের চিত্তচাঞ্চল্য ঘটায়, তাই আবাসিক কলেজে পড়ার যোগ্য নয় : তেলেঙ্গানা সরকার

রাজ্যে মহিলাদের জন্য মোট ২৩টি আবাসিক ডিগ্রি কলেজ রয়েছে। আর তাতে প্রতিবছর ২৮০ ছাত্রীর ভর্তির সুযোগ রয়েছে।[২৫ কিলোমিটার ম্যারাথন দৌড়ে তবেই বিয়ে করলেন দম্পতি]

তবে ভর্তির শর্তাবলী নিয়ে জানতে চাওয়া হলে TSWREIS-এর কনটেন্ট ম্যানেজার বলেন, "এই নিয়মের পিছনের আসল উদ্দেশ্য হল আবাসিক ডিগ্রি কলেজের অন্য ছাত্রীরা যাতে পড়াশোনার দিক থেকে লক্ষ্যভ্রষ্ট না হয়। কারণ বিবাহিত মেয়েদের ক্ষেত্রে তাদের সঙ্গে নিয়মিত দেখা করতে আসবে তার পুরোপুরি সম্ভাবনা থাকে। অন্যান্য ছাত্রীদের যাতে চিত্তবিক্ষেপ না হয় সেটাই আমাদের মূল লক্ষ্য।"[(ছবি) জলের তলায় আংটি বদল, বিয়ের প্রতিজ্ঞা দম্পতির, ভারতে এই প্রথম!]

পাশাপাশি সোসাইটি সেক্রেটারির কথায়, আমরা বিবাহিত মহিলাদের উৎসাহ দিই না একথা যেমন ঠিক তেমনই আমরা তাদের ভর্তি আটকাচ্ছিও না। যদি কেউ আমাদের কাছে এসে ভর্তির জন্য আবেদন করে আমরা বাধা দিইনা। আমাদের উদ্দেশ্য কারোর ভাবাবেগকে আহত করা নয়।

English summary
Married women a distraction, not eligible for residential colleges: Telangana government
Please Wait while comments are loading...